BREAKING NEWS

২৮ আশ্বিন  ১৪২৮  শুক্রবার ১৫ অক্টোবর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

বিধায়ক পদে মমতার শপথ নিয়েও রাজ্যের সঙ্গে কোন্দলে রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড়

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: October 4, 2021 8:51 pm|    Updated: October 4, 2021 8:51 pm

West Bengal Guv Jagdeep Dhankhar locks horns with state over Mamata Banerjee's oath taking ceremony | Sangbad Pratidin

বুদ্ধদেব সেনগুপ্ত: ফের রাজভবন-বিধানসভা টানাপোড়েন। এবারের বিষয়, বিধায়ক হিসেবে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee) শপথ গ্রহণ।

West Bengal Guv Jagdeep Dhankhar locks horns with state over Mamata Banerjee's oath taking ceremony

বৃহস্পতিবার ভবানীপুরের নব নির্বাচিত বিধায়ক হিসাবে শপথ নেবেন মমতা। রাজ্য সরকার চাইছে, ওই দিন রাজ্যপাল বিধানসভায় (West Bengal Assembly) এসে তাঁকে শপথবাক্য পাঠ করান। এ বিষয়ে পরিষদীয় দলের তরফে জানান হয় রাজভবনকে। এরপর সন্ধ্যায় রাজ্যপাল জগদীপ ধনকর (Jagdeep Dhankar) টুইট করে বলেন, সংবিধানের নির্দিষ্ট ধারার অপব্যাখ্যা করছে সরকার ও বিধানসভা। আইনের ধারা উল্লেখ করে তাঁর দাবি, এক্ষেত্রে সংবিধানই রাজ্যপালকে সিদ্ধান্ত নেওয়ার অধিকার দিয়েছে। সব মিলিয়ে শপথবাক্য পাঠ করানো নিয়ে বিধানসভা ও সরকারের সঙ্গে রাজভবনের ফের টানাপোড়েনের আবহ। রাজনৈতিক চাপান-উতোরও দানা পাকছে বিভিন্ন মহলে। মুখ্যমন্ত্রী পুরো বিষয়টির উপরে নজর রাখছেন।

[আরও পড়ুন: কংগ্রেসের সঙ্গে জোটে ইতি! একতরফা চার কেন্দ্রের উপনির্বাচনের প্রার্থী ঘোষণা বামেদের]

মুখ্যমন্ত্রী-সহ মন্ত্রিসভার সদস্যদের রাজভবনে শপথবাক্য পাঠ করাবেন রাজ্যপাল। আর বিধায়কদের বিধানসভায় শপথ নেওয়াবেন বিধানসভার অধ্যক্ষ। এটাই প্রচলিত রীতি ও প্রথা। কিন্তু সম্প্রতি রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড় বিধানসভার সচিবালয়কে চিঠি দিয়ে জানিয়েছেন, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বিধায়ক হিসাবে নির্বাচিত হয়ে এলে তিনি-ই তাঁকে শপথবাক্য পাঠ করাবেন।

স্পিকারের অধিকারে হস্তক্ষেপের সমতুল এ হেন বার্তায় বিধানসভার অধ্যক্ষ বিমান বন্দ্যোপাধ্যায় স্বভাবতই ক্ষুব্ধ। পরিণামে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে কে, কোথায় শপথবাক্য পাঠ করাবেন, তা ঘিরে জটিলতা তৈরি হয়েছে। প্রচলিত রেওয়াজ মেনে অধ্যক্ষ চাইছেন বিধায়ক হিসাবে মমতা বন্দোপাধ্যায় শপথ নিন বিধানসভায়। একই মত রাজ্যের পরিষদীয় মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের (Partha Chaterjee)। বিষয়টি নিয়ে স্পিকার ও পরিষদীয় মন্ত্রী বৈঠকে বসেছিলেন, মুখ্যমন্ত্রীও দু’জনের সঙ্গে কথা বলেন বলে সূত্রের খবর।

[আরও পড়ুন: ‘লখিমপুরের ঘটনা অমানবিক’, উত্তরপ্রদেশের কৃষক হত্যার তীব্র নিন্দা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের]

পার্থবাবুর বক্তব্য, রাজ্য সরকার চায়, বিধানসভার গরিমা ও রীতি অক্ষুণ্ণ থাকুক। পাশাপাশি যাতে রাজ্যপালের চেয়ারের সম্মানও অক্ষুণ্ণ থাকে, সে জন্য সরকারের ইচ্ছে রাজ্যপাল বিধানসভায় এসে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে বিধায়ক হিসেবে শপথ নেওয়ান। কিন্তু রাজ্যপাল যদি একান্তই নিজের অবস্থানে অনড় থাকেন, সে ক্ষেত্রে রাজভবনের শপথ অনুষ্ঠানে তাঁরা নাও যেতে পারেন বলে বিমানবাবু ও পার্থবাবু ইঙ্গিত দিয়েছেন। কিন্তু রাজ্যপাল যে এখনও নিজের বক্তব্যে অনড়, সেটা তাঁর টুইটেই স্পষ্ট।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement