BREAKING NEWS

১০ কার্তিক  ১৪২৮  বৃহস্পতিবার ২৮ অক্টোবর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

মোবাইলে কথা ব্রেন টিউমারের পরোক্ষ কারণ: ডা. সিদ্ধার্থ ঘোষ

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: October 22, 2016 4:05 pm|    Updated: October 22, 2016 4:05 pm

মস্তিষ্কের অলিগলিতে অবাধ যাতায়াত৷ ব্রেন টিউমার, ক্যানসার, স্পাইনাল সার্জারিতে নিখুঁত হাত৷ সাক্ষাৎ মৃত্যুর হাত থেকে বেঁচে ফিরে বহু মানুষ বলেছেন- ভগবান! তিনি চেন্নাই অ্যাপোলোর ‌বিশিষ্ট চিকিৎসক, দেশের অন্যতম সেরা নিউরোসার্জন ডা. সিদ্ধার্থ ঘোষ৷ নাম-যশ-অর্থ সব পেয়েছেন৷ তবু ভোলেননি মাটির কাছাকাছি থাকতে৷ কর্মজগৎ দক্ষিণে হলেও মন পড়ে থাকে বাংলায়৷ ব্রেন টিউমার সংক্রান্ত নানা কথা নিয়ে গল্প জমালেন জিনিয়া সরকারের সঙ্গে।

সংবাদ প্রতিদিন: আপনার স্পেশালাইজেশন একটা বৃহৎ বিষয়ের উপরে৷ ব্রেন টিউমার, স্পাইনাল টিউমারের মতো মারণরোগে আক্রান্তদের চিকিৎসা করেন৷ আপনার কাছে কোনটা চ্যালেঞ্জিং বলে মনে হয়?
ডা. সিদ্ধার্থ ঘোষ: স্পাইনের সমস্যা, স্লিপ ডিস্ক, ঘাড়ের সমস্যা, ডিজেনারেটিভ চেঞ্জ ইত্যাদি সাধারণ সমস্যার চিকিৎসাও নিউরোসার্জারির মধ্যেই পড়ে৷ তবে সবচেয়ে বেশি চ্যালেঞ্জিং ব্রেন টিউমার৷ এই অসুখের চিকিৎসার পর রোগীর সুস্থ হয়ে ওঠা বিরল৷  যা কিছু বিরল সেটা করে দেখানো বেশ চ্যালেঞ্জিং৷ চ্যালেঞ্জ নিয়ে কাজ করতেই আমার ভাল লাগে৷

সংবাদ প্রতিদিন: ব্রেন টিউমারের লক্ষণ কী?
ডা. সিদ্ধার্থ ঘোষ: অনেক রোগীর ক্ষেত্রেই দেখা যায় ব্রেন টিউমার হয়েছে অথচ কোনও লক্ষণ দেখা যায়নি৷ ব্রেন টিউমারের (ম্যালিগন্যান্ট বা বিনাইন) অন্যতম লক্ষণ হল সুস্থ মানুষের হঠাৎ খিঁচুনি হওয়া৷ প্রাপ্তবয়স্কদের এই সমস্যা দেখা গেলে সিটি স্ক্যান করাতে হবে৷ টেস্ট করলে হয়তো টিউমার ধরা পড়তে পারে৷ এছাড়াও মাথায় ব্যথা, চারিত্রিক পরিবর্তন দেখা যায়৷ হঠাৎ অস্বাভাবিক মাথার যন্ত্রণা, খুব বমি শুরু হলে, চোখে দেখতে সমস্যা হলে অবশ্যই জেনারেল ফিজিশিয়ানের কাছে গিয়ে সেই ব্যাপারে পরামর্শ নিন৷ প্রয়োজনে অবশ্যই সিটি স্ক্যান করিয়ে নিন৷

সংবাদ প্রতিদিন: ব্রেন টিউমার অপারেশন করে কি সম্পূর্ণ সুস্থ হওয়া যায়?
ডা. সিদ্ধার্থ ঘোষ: বিনাইন টিউমার হলে অপারেশন করে সম্পূর্ণ সুস্থ হওয়া যায়৷ ম্যালিগন্যান্ট টিউমার বিভিন্ন ধরনের হয়৷ টিউমারের ধরন, মাথার কোন স্থানে টিউমার তার উপর নির্ভর করে অপারেশনের পর কতটা সুস্থ হবে রোগী৷ মাথার বাঁ দিকে (স্পিচ এরিয়া, ল্যাঙ্গুয়েজ এরিয়া) ম্যালিগন্যান্ট টিউমার হলে তা অপারেশনের পর রোগীর অনেক কমপ্লিকেশন (কগনেটিভ চেঞ্জ) দেখা যায়৷ লো গ্রেড ম্যালিগন্যান্সি থাকলে অপারেশনের পর জটিলতা কম দেখা যায়৷

সংবাদ প্রতিদিন: নির্দিষ্ট কোনও কারণে কি ব্রেন টিউমার হয়?
ডা. সিদ্ধার্থ ঘোষ: এটা নিয়ে বিদেশে গবেষণা চলছে৷ তবে নির্দিষ্ট কোনও কারণের জন্য ব্রেন টিউমার হচ্ছে এমন কোনও তথ্য পাওয়া যায়নি৷ সবচেয়ে খারাপ ধরনের টিউমার যেটা ব্রেনে হয় তার জন্য ক্রোমোজম অনেকটা দায়ী৷ সেক্ষেত্রে টার্গেটেড থেরাপি, জিন থেরাপি করে চিকিৎসা করা হয়৷ ভবিষ্যতে হয়তো এমন দিন আসবে যখন ব্রেন টিউমারে সার্জারি করতে লাগবে না৷ ওষুধ, ইঞ্জেকশনের মাধ্যমেই সমস্ত চিকিৎসা সম্ভব হবে৷

braintumor1_web

সংবাদ প্রতিদিন: ব্রেন টিউমারের জন্য লাইফস্টাইল কতটা দায়ী?
ডা. সিদ্ধার্থ ঘোষ: মোবাইল ফোনের ব্যবহার ব্রেন টিউমারের জন্য দায়ী অনুমান করা হচ্ছে৷ যদিও এ বিষয়ে এখনও গবেষণা চলছে৷ তবে অবশ্যই ঘণ্টার পর ঘণ্টা মোবাইল ফোনের ব্যবহার, কানে দীর্ঘক্ষণ ফোন ধরে কথা বলা ব্রেন টিউমারের পরোক্ষ কারণ বলাই যায়৷

সংবাদ প্রতিদিন: টিউমার ধরা পড়লে প্রথম পদক্ষেপ কী হবে?
ডা. সিদ্ধার্থ ঘোষ: ব্রেন টিউমার ধরা পড়লে সময় নষ্ট না করে প্রথমেই নিউরোসার্জনের পরামর্শ নিতে হবে৷ এমন নয় যে কোনও নির্দিষ্ট হসপিটালে গেলেই সুস্থ হবে৷ ভাল নিউরোসার্জন সব জায়গাতেই আছেন৷ যেখানে কাজ ভাল হয়, সার্জন ভাল আছেন সেখানেই চিকিৎসা করান৷

সংবাদ প্রতিদিন: এমআরআই, সিটি স্ক্যানের রিপোর্ট দেখেই কি বলা যায়  টিউমার বিনাইন না ম্যালিগন্যান্ট? লক্ষণ দেখে বোঝার কোনও উপায় আছে?
ডা. সিদ্ধার্থ ঘোষ: বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই এমআরআই রিপোর্ট দেখে বোঝা যায় টিউমারের ধরন৷ সেই মতন অপারেশনের আগে রোগীকে প্রাথমিক ধারণাও দেওয়া হয়৷ বিনাইন টিউমার থাকলে অনেকক্ষেত্রে অনেক বছর অবধি কোনও লক্ষণ দেখা যায় না৷ টিউমার ম্যালিগন্যান্ট হলে তার লক্ষণ থাকে৷ বাচ্চাদের তুলনায় বয়স্কদের ম্যালিগন্যান্ট টিউমার বেশি হয়৷ যদিও বাচ্চার ব্রেনের পিছনের দিকে (সেরেবেলাম) টিউমার হলে তা ম্যালিগন্যান্ট হওয়ার সম্ভাবনাই বেশি থাকে৷

সংবাদ প্রতিদিন: কিছুদিন আগেও বাইপাস সার্জারি ছিল যথেষ্ট টেনশনের৷ এখন অন্যান্য সাধারণ অপারেশনের মতোই জলভাত হয়ে গিয়েছে৷ আগামী দিনে ব্রেন টিউমার অপারেশনের ক্ষেত্রেও কি এই রকম পরিবর্তন ঘটবে?
ডা. সিদ্ধার্থ ঘোষ: এই সার্জারিতে উন্নত প্রযুক্তির পাশাপাশি বিশিষ্ট চিকিৎসকও খুব জরুরি৷ বাইপাস সার্জারির থেকেও অনেক জটিল ব্রেন টিউমার অপারেশন৷ ব্রেনের বিভিন্ন স্থানে টিউমার হতে পারে৷ এছাড়া অপারেশনের সঙ্গে আরও অন্যান্য সমস্যাও দেখা যায়৷ তাই এই অপারেশন বর্তমানে খুবই সহজ বা সবক্ষেত্রেই সফল হয় সেই দাবি করা ঠিক নয়৷ তবে গত ১০-১৫ বছরের তুলনায় বর্তমানে ব্রেন টিউমার সার্জারিতে সাফল্যের হার অনেকটাই বেড়েছে৷

আরও জানতে ডা. সিদ্ধার্থ ঘোষের সঙ্গে যোগাযোগ করুন এই নম্বরে- 9832377623/9962201590। বিশদে সাক্ষাৎকারটি পড়তে ক্লিক করুন epaper.sangbadpratidin.in

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement