২৮ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২৬ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

ছোট ফ্ল্যাটে জায়গার অভাব? এই উপায়ে সাজিয়ে ফেলুন সাধের বাসস্থান

Published by: Sulaya Singha |    Posted: August 11, 2018 7:55 pm|    Updated: August 11, 2018 7:55 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ঘর যত ছিমছাম হয়, ততই যেন প্রাণ খুলে নিঃশ্বাস নেওয়া যায়। ঘরে আলো, বাতাস খেলে তো বটেই সঙ্গে ধুলো-বালি পরিষ্কারের ঝক্কিও কমে। কিন্তু শহুরে জীবনযাপনে এমন স্বপ্নের ঘর আর মেলে কোথায়? ফ্ল্যাটের দাম আকাশ ছোঁয়া। আর বড়সড় ফ্ল্যাট কেনা মধ্যবিত্তের সাধ্যের বাইরে। তাই কোনওক্রমে মাথা গোঁজার ঠাঁই হলেই ভাগ্যবান মনে হয়। ছোটখাটো দু-একটা ঘরের মধ্যেই সব ধরনের আসবাব, জিনিসপত্রের ভিড়। ঘরের মেঝে খুঁজে পাওয়াই দুষ্কর। এমন পরিস্থিতিতে নিজের সাধের ফ্ল্যাটে থাকাও যেন দুঃসাধ্য মনে হয়। তবে নিরাশ হওয়ার কিছু নেই। আপনার ছোট্ট ফ্ল্যাটটিকেও যতটা সম্ভব মনের মতো করে সাজিয়ে-গুছিয়ে নেওয়াই যায়। শুধু বুদ্ধি করে সাজানোর প্ল্যানিংটা করে ফেলতে পারলেই কেল্লা ফতে। তেমনই কিছু টিপস রইল এই প্রতিবেদনে।

আসবাব: মধ্যবিত্ত পরিবারে নানা ধরনের বেখাপ্পা আসবাবই ঘরের অর্ধেক দখল নিয়ে নেয়। তাই আসবাব কেনা বা তৈরি করার সময় ভালভাবে ভেবে নিন। বাড়িতে দেওয়ার আলমারি বা কাবার্ড থাকলে মেঝে অনেকটা ফাঁকা থাকে। তাছাড়া দেওয়ালের উপর দিকে কাঠের বক্স পাল্লা বানিয়ে নিতে পারলে তো কথাই নেই। যাবতীয় অপ্রয়োজনীয় জিনিস সেখানেই ঢুকে যাবে। আবার প্রবেশ পথেই ছড়িয়ে-ছিটিয়ে জুতো না রেখে সোফা কাম সু ব়্যাক ব্যবহার করা যেতেই পারে। এতে জায়গায় বাঁচে আর আপনার বাড়ির সৌন্দর্যও বজায় থাকে। পুরনো আলনার পরিবর্তে এমনভাবে আসবাব বানান যাতে কাবার্ডও থাকবে, আবার তা টেবল হিসেবেও কাজে লাগবে। অর্থাৎ মাল্টি পার্পাস ফারনিচার তৈরি করাই ফ্ল্যাটবাসীদের জন্য বুদ্ধিমানের কাজ।

দেওয়াল: অনেকেই ক্যালেন্ডার, ঠাকুরের ছবি, ওয়ালপ্লেট, পেন্টিং ইত্যাদি দিয়ে ঘরের দেওয়াল ভরিয়ে ফেলেন। চোখ মেলে দেখুন তো, সত্যিই কি দেওয়ালটি এতে দেখতে সুন্দর লাগে? নিশ্চয়ই নয়। তাই যত পারবেন দেওয়াল ফাঁকা রাখুন। এতে ঘর পরিচ্ছন্ন লাগে। ঝুল বা ধুলো-ময়লাও জমে না। খুব বেশি হলে একটি ঘরের দেওয়ালে একটিই ওয়াল পেন্টিং রাখুন। আর দেওয়ালের রঙ যদি সাদা হয়, তবে ঘরে আলোও খেলতে পারে ভালভাবে। পারলে দেওয়ালে এমন আলো ব্যবহার করুন যা ঘরকে আরও উজ্জ্বল করে। সবচেয়ে ভাল হয়, ডাইনিং বা ঘরের দেওয়ালে যদি বড় আয়না লাগাতে পারেন। এতে ঘর বড় ও উজ্জ্বল দেখায়।

[রান্নাঘরে তেলের দাগ, জেনে নিন পরিষ্কারের ঘরোয়া উপায়]

কালার প্যালেট: টিভি বা সোফার দেওয়ালে কালার প্যালেট ব্যবহার করতে পারেন। বিভিন্ন নিউট্রাল রঙিন প্যালেট বা মর্ডান টেক্সচারের টাইলস ব্যবহার করলে বাড়ির সৌন্দর্য বৃদ্ধি পায়। ছোট্ট ফ্ল্যাটে লাগে আধুনিকতার ছোঁয়া। ডাইনিংয়ে ছোটখাটো বাহারি গাছও রাখতে পারেন। 

[এটা একান্তই আপনার জায়গা, তাই বেডরুম সাজানোর আগে মাথায় রাখুন এগুলি]

রান্নাঘর: মডিউলার কিচেনের যুগে আপনিই বা পিছিয়ে থাকেন কেন? বাসনপত্র, মশলাপাতি, হাতা চামচ এমনকী ডাস্টবিনটিও যদি পাল্লার ভিতর লুকিয়ে রাখা যায়, তাহলে এক নজরে দারুণ পরিষ্কার আর ছিমছাম দেখায় আপনার রান্নাঘরটি। বাজেট বুঝে নিজেই ডিজাইন বানিয়ে মিস্ত্রিকে ডেকে পালটে ফেলুন রান্নাঘরের লুক। আত্মীয়-অতিথিদের পছন্দ হবেই।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement