BREAKING NEWS

৭ কার্তিক  ১৪২৮  সোমবার ২৫ অক্টোবর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

বিরল হাড়ের ক্যানসারে ভুগছে দীপ, আর্থিক সাহায্য করে ওর যন্ত্রণা দূর করতে পারেন আপনিও

Published by: Sulaya Singha |    Posted: February 15, 2021 4:13 pm|    Updated: February 26, 2021 1:12 pm

This boy is suffering from Osteosarcoma, type of cancer, please help | Sangbad Pratidin Sponsored

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: স্বপ্ন দেখে বড় হয়ে দেশসেবা করার। বিশ্বের বুকে ভারতের নাম উজ্জ্বল করে পরিবারকে গর্বিত করার। কিন্তু ভাগ্যদেবী সহায় হচ্ছেন কই! মারণ রোগ আঁকড়ে ধরেছে ওর শরীরকে। প্রতিদিনই যমদূতের সঙ্গে লড়াই চালাতে হচ্ছে। আর সেই লড়াইয়ে একটু একটু করে বাড়ছে যন্ত্রণা। আদৌ এই কষ্ট থেকে মুক্তি পাবে সে? রোজ মনে মনে প্রশ্ন করে দীপ মাইতি। তার এই প্রশ্নের উত্তর লুকিয়ে আপনাদের কাছে। হাড়ের ক্যানসারে আক্রান্ত দীপকে আর্থিকভাবে সাহায্য করে তাকে জীবনের মূলস্রোতে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনিই। জিয়নকাঠি ছুঁইয়ে দীপের স্বপ্নপূরণের অংশীদার হতে ওর পাশে দাঁড়ানো খুবই প্রয়োজন।

অনুদানের জন্য এই লিংকে ক্লিক করুন।

অস্টিওসারকোমায় ভুগছে দীপ। এটি এক ধরনের হাড়ের ক্যানসার। অত্যন্ত বিরল একটি রোগ। সামান্য ব্যথা থেকে ঘটনার সূত্রপাত। হাঁটলেই পায়ে আর হাঁটুতে যন্ত্রণা হত। শরীর ছেড়ে দিত। তখন কেউ টেরও পায়নি, কী ভয়ংকর রোগ বাসা বেঁধেছে দীপের শরীরে। তরুণ তরতাজা একটি ছেলে চোখের সামনেই ঝিমিয়ে যেতে শুরু করে। বেশ কয়েকটি পরীক্ষার পর চিকিৎসকরা জানিয়েছিলেন বিরল অস্টিওসারকোমায় ভুগছে দীপ। যে ছেলে লেখাপড়া শিখে দেশের জন্য নিজের সেরাটা উজাড় করে দিতে চেয়েছিল, তাকেই শারীরিক অবস্থার অবনতির জন্য ভরতি হতে হয় হাসপাতালে। পরিস্থিতি এতটাই করুণ হয়ে যায় যে দশম শ্রেণির পর পড়াশোনাতেও ইতি টানতে হয় দীপকে।

প্রতিনিয়ত ছেলেকে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়তে দেখে চোখের জল ধরে রাখতে পারেন না মা। দিনরাত এক করে অর্থ জোগাড় করেন তিনি। চিকিৎসার ব্যবস্থা করে ছেলেকে মারণ রোগের হাত থেকে রক্ষা করাই মায়ের একমাত্র লক্ষ্য এখন। মায়ের চোয়াল চাপা সংগ্রাম দেখে ভিতরে ভিতরে আরও যেন দুর্বল হয়ে পড়ে দীপ। সংসারের ‘বোঝা’ হয়ে থাকতে ইচ্ছা করে না তার। কিন্তু নিয়তির কাছে সকলেরই যে হাত-পা বাঁধা।

অনুদানের জন্য এই লিংকে ক্লিক করুন।

এর থেকে মুক্তির উপায় কী? চিকিৎসকরা জানাচ্ছেন, দ্রুত লিম্ব স্যালভেজ সার্জারি প্রয়োজন। কিন্তু তার জন্য খরচ অন্তত ৮ লক্ষ টাকা। দীপের কথায়, আত্মীয়-স্বজনরা এতদিন তার পরিবারের পাশে থেকেছেন। নানাভাবে সাহায্য করেছেন। কিন্তু এই বিপুল পরিমাণ অর্থ জোগাড় করা তাদের কাছে কল্পনাতীত। দীপের বাবা পেশায় একজন কৃষক। মাসে মেরেকেটে হাতে আসে হাজার দুয়েক টাকা। কোনওক্রমে তা দিয়ে সংসার চলে। সঞ্চিত অর্থও ইতিমধ্যেই শেষ। কার্যত সর্বস্বান্ত হয়েই তাই আপনাদের কাছে সাহায্য চাইছে এই দরিদ্র পরিবার। এই বিরল রোগের চিকিৎসায় আর্থিকভাবে দীপকে সাহায্য করুন। যন্ত্রণায় ছটফট করা এক তরুণের মুখের হাসি ফিরিয়ে আনতে পারলে যে মনও তৃপ্ত হবে।

দীপের অসুস্থতা এবং তার চিকিৎসার জন্য খরচের বিষয়টি খতিয়ে দেখেছে একটি মেডিক্যাল দল। এই সংক্রান্ত সমস্ত নথিপত্রও রয়েছে। অনুদানের আগে আপনিও চাইলে তা যাচাই করে দেখতে পারেন। কিংবা মেডিক্যাল টিমের আয়োজকের সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগ করতে পারেন।

চ্যারিটি নম্বর: 81685959
বিঃ দ্রঃ- এই অনুদান 80G, 501(c) ইত্যাদি কর ছাড়ের ক্ষেত্রে প্রযোজ্য নয়।

অনুদানের জন্য এই লিংকে ক্লিক করুন।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement