৫ আশ্বিন  ১৪২৬  সোমবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: এল বরষা সহসা মনে তাই বৃষ্টি ভেজার ইচ্ছে জাগতেই পারে৷  বিশেষত বাচ্চারা তো জল পেলে মজা করার সুযোগ ছাড়ে না৷  স্কুল থেকে ফেরার সময় জমা জলে পা ডোবানো সব বড়দের নস্টালজিয়াতেই জমা সুখস্মৃতি৷  কিন্তু এর কারণে অসুখ বিসুখের হাতছানি কম নয়৷  আর সে দায় পোহাতে হয় মা-বাবাদেরই৷  কয়েকটা ঘরোয়া পদ্ধতি মানলে অবশ্য ঠাণ্ডা লাগানো এড়ানো যায়৷

কী কী করবেন?

 ভিটামিন-সি সমৃদ্ধ খাবার খাওয়া

ভিটামিন-সি ঠাণ্ডা লাগা প্রতিরোধ করতে পারে৷  শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাও বাড়িয়ে দেয়৷  বর্ষাকালে ঠাণ্ডা লেগে যাওয়ার সম্ভাবনা সবথেকে বেশি৷  তাই এই সময় যত বেশি ভিটামিন-সি সমৃদ্ধ খাবার খাওয়া যায় ততই মঙ্গল৷  লেবু থেকে শুরু করে বিভিন্ন টকজাতীয় ফল খেয়েই সহজেই ঠাণ্ডা লাগা আটকানো সম্ভব৷

বৃষ্টি ভেজার পর স্নান

বৃষ্টি ভেজার পর ঠাণ্ডা লাগার ভয়ে অনেকেই স্নান করাকে এড়িয়ে যান৷  কিন্তু এতে ঠাণ্ডা লাগে আরও বেশি৷  যত তাড়াতাড়ি সম্ভব ভেজা জামাকাপড় ছেড়ে ফেলা উচিত৷  তারপর হালকা গরম জলে পা ধুয়ে ফেলা উচিত৷  যাতে জমা জল থেকে পায়ে জীবাণুর আক্রমণ প্রতিহত করা যায়৷  এরপর কবোষ্ণ জলে স্নান সেরে নিন৷  অ্যান্টিসেপটিক সাবান ব্যবহার করলেও জীবাণুর হাত থেকে বাঁচা সম্ভব৷

 তুলসী-মধু-লবঙ্গ

এরপরেও ঠাণ্ডা লাগার সম্ভাবনা থাকলে দুটি তুলসী পাতা, মধু ও লবঙ্গের সঙ্গে মিশিয়ে খেতে পারেন৷  বর্ষাকালে যাঁদের ঠাণ্ডা লাগার প্রবণতা আছে তাঁরা নিয়মিত এটি খেতে পারেন৷  তাতে সর্দি-কাশি থেকে মুক্তি পাবেন৷

চুল শুকনো করা

বৃষ্টিতে ভেজার পর চুল শুকনো করার প্রতি অনেকেই নজর দেন না৷  শরীর মোছার সঙ্গে মাথাও যে পুরোপুরি শুকিয়েছে তা একেবারে নিশ্চিত করুন৷  দরকার হলে ড্রায়ারের সাহায্যেও যত তাড়াতাড়ি সম্ভব চুল শুকিয়ে ফেলুন৷

গরম চা বা কফি পান

বৃষ্টিতে ভেজার ফলে শরীরের তাপমাত্রা কমে যায়৷  তাতেই ঠাণ্ডা লেগে যাওয়ার সম্ভাবনা বাড়তে থাকে৷  এই অবস্থা আটকাতে গরম চা বা কফি পান করুন৷  এতে শরীরের হারানো উষ্ণতা ফিরে আসবে৷

জলপান

জলপানের যে কোনও বিকল্প নেই তা সকলেই জানেন৷  ঠাণ্ডা লাগার ক্ষেত্রেও এই বিষয়টি মাথায় রাখবেন৷  অনেক অ্যান্টিবায়োটিকে যে কাজ হয় না তা জল খেলে হয়৷  পরিমিত পরিমাণে জল খেলেই শরীর থেকে অনেক জীবাণু বেরিয়ে যায়৷  তাই এরকম পরিস্থিতিতে বেশি করে জল খান৷  বাচ্চাদের ক্ষেত্রেও এই পদ্ধতিগুলিই মেনে চলুন৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং