৪ ভাদ্র  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ২২ আগস্ট ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

৪ ভাদ্র  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ২২ আগস্ট ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মোবাইল নম্বর পোর্টেবল পরিষেবা চালু হওয়ার পর থেকে অনেকটাই স্বস্তি পেয়েছিলেন মোবাইল ব্যবহারকারীরা। যে টেলিকম সংস্থার সিম কার্ডই ব্যবহার করুন না কেন, পোর্টের সৌজন্যে সাধের নম্বরটি পালটানোর প্রয়োজন পড়ত না। কিন্তু এবার হয়তো আর তেমনটা হবে না। আগামী বছর মার্চ মাস থেকে হয়তো ইচ্ছে মতো মোবাইল নম্বর পোর্টেবল করা যাবে না। মিডিয়া রিপোর্ট অন্তত তেমনটাই বলছে।

একটি সর্বভারতীয় ইংরাজি সংবাদমাধ্যমের খবর অনুযায়ী, এমএনপি ইন্টার কানেকশন টেলিকম সলিউশন এবং সিনিভার্স টেকনোলজিস ভারতে মোবাইল নম্বর পোর্টেবলের দায়িত্বে রয়েছে। এই দুই কোম্পানিই টেলিকমিউনিকেশন দপ্তরে লিখিতভাবে জানিয়েছে, আগামী বছর থেকে তারা মোবাইল নম্বর পোর্ট করা বন্ধ করবে। পোর্ট করে বিশেষ অর্থ না মেলার কারণেই এই সিদ্ধান্ত নিচ্ছে তারা।

[মিলনের সময় চরম সুখ চান? তাহলে এই কাজটি অবশ্যই করুন]

একটি টেলিকম সংস্থা থেকে সরে অন্য সংস্থার পরিষেবা গ্রহণ করলেও গ্রাহককে নিজের মোবাইল নম্বরটি পালটাতে হত না। শুধু পুরনো সিম কার্ড সরিয়ে নতুন সিম কার্ড লাগিয়ে নিলেই হল। টেলিকম অথরিটি অফ ইন্ডিয়া বা ট্রাই পোর্ট করার মূল্য কমানোর কথা ঘোষণা করেছিল। ট্রাই-এর তরফে নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল, প্রতিটি পোর্টে ১৯ টাকার বদলে ৪ টাকা দিলেই হবে। আর যত দিন যাচ্ছে, মোবাইল ব্যবহারকারীর সংখ্যাও বাড়ছে। গত ফেব্রুয়ারিতে এ দেশে টেলিফোন গ্রাহকের সংখ্যা যেখানে ছিল প্রায় ১১৭৯.৮৩ মিলিয়ন, সেখানে একমাসেই তা বেড়ে দাঁড়ায় ১২০৬.২২ মিলিয়নে। অর্থাৎ বৃদ্ধির হার মাসে প্রায় ২.২৪ শতাংশ। যাদের মধ্যে আবার শহরে গ্রাহকের বৃদ্ধির পরিমাণ অনেকটাই বেশি। সেই কারণেই পোর্ট করার মূল্য কমানোর পক্ষেই সওয়াল করেছিল ট্রাই। এমএনপি পোর্টেবল সংস্থা জানাচ্ছে, গত মার্চে মোবাইল নম্বর পোর্ট করার জন্য ১৯.৬৭ মিলিয়ন আবেদন জমা পড়েছে। চাহিদা বাড়লেও দাম না বাড়ার কারণেই পোর্ট করা বন্ধের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে খবর। তবে এমনটা হলে গ্রাহকদের ঝঞ্ঝাট বাড়বে তা বলাই বাহুল্য।

[ভিড়ের হাত থেকে নায়কের মতো জাহ্নবীকে বাঁচালেন ইশান]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং