১৯ ফাল্গুন  ১৪২৭  শুক্রবার ৫ মার্চ ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

কম খরচে এভাবেই সাজিয়ে তুলুন বাড়ির মেঝে

Published by: Sayani Sen |    Posted: December 9, 2018 6:56 pm|    Updated: December 9, 2018 6:56 pm

An Images

অন্দরের সাজ, আলোর ব্যবহার, ঘরদোরের নকশা-কারুকাজের যাবতীয় দিয়ে সাজিয়ে তুলুন আপনার বাড়ি৷ এবার টাইল্‌স ও মার্বেলের ফ্লোরিং নিয়ে আলোচনা করলেন ইন্টিরিয়র ডিজাইনার উর্বশী বসু

বাড়ি মানে শুধু দেওয়াল নয়, আসবাব, পর্দা নয়৷ বাড়ি মানে ফ্লোরিংও। সুন্দর মেঝে পুরো ঘরের লুক পুরো বদলে দেয়। শীতের দেশে একরকম, আবার গরমের দেশে অর্থাৎ ট্রপিকাল দেশগুলিতে একেকরকম ফ্লোরিং হয়। ক্লাইমেট অনুযায়ী ফ্লোরিং হয়। ফ্লোরিং-এ দশ-বারো রকম বৈচিত্র্য আছে। যেমন, হার্ড উড, ল্যামিনেট, ভিনাইল, কর্ক, টাইল্‌স কার্পেট, মার্বেল সবরকম আছে।

[ঘরোয়া জিনিস দিয়েই ঘর সাজান, কিন্তু অন্যভাবে]

আমাদের গ্রীষ্মপ্রধান দেশে তাই গরমের ভাব বেশি, ঠান্ডা কম। সেক্ষেত্রে টাইল্‌স ও মার্বেল বেশি প্রেফারেবল। যেখানে শীতপ্রধান দেশে কার্পেটের প্রাধান্য দেখতে পাই। গ্লোবাল ওয়ার্মিং-এর জন্য এখন সব দেশেই সবকিছুর চল আছে। এদেশে কার্পেট, কাঠের ফ্লোরিংও হচ্ছে।ফ্লোরিং মানেই মার্বেল এমন কনসেপ্ট এখন নেই। ভাল ভাল ভিট্রিফায়েড, পোর্সিলিনের টাইল্‌স এখন খুব পপুলার হয়েছে। তাই অপশনও প্রচুর। ঘরের ডেকর কালারের সঙ্গে অনায়াসে পছন্দ করে নেওয়া যায় মনের মতো ফ্লোরিং।

[অলিভ অয়েল দিয়ে বাড়ির আসবাব পরিষ্কার! জেনে নিন উপায়]

মার্বেল ফ্লোর সবচেয়ে ঠান্ডা রাখে মেঝে। সেই জন্য শীতে কার্পেট, রাগ্‌স অথবা দড়ি পাতা যেতে পারে এমন মেঝেতে। কার্পেট নানা ধরনের হয়। উলেন অ্যাক্রিলিকের হয়, নাইলনের হয়। যার যেমন প্রয়োজন নিতে পারেন। অনেকের বাড়িতে মোটা কাশ্মীরি কাজের কার্পেটও থাকে। যা পাতলে খুব সুন্দর লাগে ঘর। ডিজাইনিং কার্পেট হয় নানা শেপ ও সাইজে। টি-টেবিলের নিচে বা ওয়াকিং প্যাসেজে, ড্রয়িং রুমে বসার জায়গার মাঝে দেখে বেছে পাতা যেতে পারে কার্পেট। বেডরুমে মাটিতে বসার জন্য কার্পেট অ্যারেঞ্জমেন্ট করা যেতে মার্বেল ফ্লোরিং বা টাইল্‌সের ওপর। রাগ্‌স বা দড়িও দারুণ দেখতে লাগে মেঝেতে।

[উদ্দাম যৌনতা বা শান্ত আদর, স্বভাব বুঝে কিনুন ম্যাট্রেস]

শীতের দেশে জুটের কার্পেটের প্রচলন বেশি। ওখানকার আবহাওয়া উপযোগী। এখানে টাইল্‌স লং লাস্টিং। কমার্শিয়াল হোটেল বা রেস্তরাঁ ছাড়া কার্পেট ওয়াল টু ওয়াল দেখতে পাওয়া যায় না। উড ফ্লোরিং শীতে উষ্ণতা আনে। কার্পেট পাতলে মেনটেন করতে হয়। কারণ আমাদের ধুলোর দেশ। যার ধুলোয় অ্যালার্জি আছে, কার্পেট পরিষ্কার না করলে অ্যালার্জি হতে পারে। তাই ঝাড়পোঁছ দরকার। বাড়িতে বাচ্চা থাকলে ফ্লোরিংটা পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন রাখতেই হয় বিশেষ করে শীতে। কার্পেট শ্যাম্পু দিয়েও ধোয়া যায়। ফ্লোরে ন্যাচরাল স্টোনও সেট করা যায়। এতে ঘর গরম থাকবে।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement