২ কার্তিক  ১৪২৬  রবিবার ২০ অক্টোবর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: যৌনপল্লি সম্পর্কে ধারণা বোধহয় খুবই একপেশে৷ এমন এক অঞ্চল যেখানে বিক্রি হয় শরীর, যেখানে বিকিয়ে যায় ভালবাসা৷ এমন একটি জায়গা যেখানে খুঁজে পাওয়া যায় না কোনও সম্পর্ক৷ থেকে যায় শুধু হতাশা৷
যৌনপল্লিতে এটাই যেন বিধান! এমনটাই যেন হয়!
কিন্তু এর বাইরেও এই যৌনপল্লির মানুষের একটা অন্য জীবন আছে৷ আছে এক অজানা গল্প! যা আমার আপনার অজানা৷
এমনই কিছু বিষয় রইল এই প্রতিবেদনে যা যৌনপল্লি সম্পর্কে আপনার চিরাচরিত ভাবনাকে বদলে দেবে৷

১. সোনাগাছি, কলকাতা
ভারতের সবচেয়ে বিখ্যাত এবং বড় এই যৌনপল্লিতে ১১০০০ জন পতিতার বাস| দেহব্যবসাই পেটের ভাত যোগায় এই মহিলাদের৷ কিন্তু এই সোনাগাছির প্রেক্ষাপটেই তৈরি হয়েছে অস্কার পাওয়া ডকুমেন্টরি ‘বর্ন ইনটু ব্রথেল’৷

২. কামাতিপুরা, মুম্বই
দেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম এই নিষিদ্ধপল্লিতে নাকি একসময় দাউদ ইব্রাহিমের মতো কুখ্যাত ডনেরও আসা যাওয়া ছিল৷ এখানকার বাসিন্দারা যে শুধু দেহব্যবসার মাধ্যমেই জীবিকা নির্বাহ করেন তেমন নয়৷ এই এলাকায় রয়েছে একটি বিড়ি তৈরির কারখানা৷ এলাকার মহিলারাই এই কারখানায় কাজ করেন৷

৩. বুধওয়ার পেথ, পুণে
সম্ভবত এটিই দেশের তৃতীয় বৃহত্তম নিষিদ্ধপল্লি৷ এখানকার দেহ ব্যবসায়ীরা সংশ্লিষ্ট অঞ্চলে একটি বই এবং যান্ত্রিক সরঞ্জামের হাব তৈরি করেছেন৷

৪. মিরগঞ্জ, এলাহাবাদ
ভারতের সবচেয়ে ভয়ানক নিষিদ্ধপল্লি এই মীরগঞ্জ৷ শোনা যায়, এখানে নাকি যে মহিলারা পাচার হয়ে আসেন, তাঁদের ঠাঁই হয় এই যৌনপল্লিতে৷ সাধারণ মানুষেরা নাকি এই স্থানে আসতে ভয় পান| শোনা যায়, অদ্ভুত এক খারাপ লাগা ঘিরে রয়েছে এই নিষিদ্ধপল্লিকে৷ হাহাকার আর আর্তনাদই যেন এখানকার জীবন৷

৫. জি.বি.রোড, দিল্লি
লোকালয়ের মাঝেই ঠায় দাড়িয়ে এই নিষিদ্ধপল্লি৷ উপরতলায় চলে দেহব্যবসা এবং একতলায় রয়েছে মার্কেট৷ রাস্তার দু’পাশেই সারিবদ্ধ ভাবে রয়েছে একাধিক বাড়ি যেখানে রমরমিয়ে চলে দেহব্যবসা৷

৬. চতুর্ভুজস্থান, মুজাফ্ফরপুর
ছোট ছোট চৌকো ঘরে বেশ্যালয় গড়ে উঠেছে এই অঞ্চলে৷ এই ছোট ঘরগুলিই এই অঞ্চলের বৈশিষ্ট্য৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং