১৭ অগ্রহায়ণ  ১৪২৯  রবিবার ৪ ডিসেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

লড়েছিলেন দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে, দেশ বাঁচাতে ইউক্রেনের সেনায় যোগ দিতে চান ৯৮ বছরের ‘যুবতী’

Published by: Kishore Ghosh |    Posted: March 20, 2022 1:08 pm|    Updated: March 20, 2022 1:50 pm

98-yr-old Ukrainian woman offers to join army to fight against Russia | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ক্রমশ রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ (Russia-Ukraine War) হয়ে উঠছে দেশপ্রেমের নতুন গাথা! এতদিনে স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে এই যুদ্ধ অসম লড়াই। প্রবল পরাক্রমশালী রুশ বাহিনীর বিরুদ্ধে সেভাবে কোনও প্রতিরোধই গড়তে পারেনি ইউক্রেন। তাই বলে দেশপ্রেম তো আর মিথ্যে হতে পারে না। বারবার সেই উদাহরণ রাখছেন ইউক্রেনের সৈনিক থেকে শুরু করে অসামরিক সাধারণ মানুষ। ফের সেই উদাহরণ রাখলেন ৯৮ বছর বয়সি এক ইউক্রেনীয় বৃদ্ধা। বয়স যাই হোক, মাতৃভূমিকে বাঁচাতে যুদ্ধে সামিল হতে চেয়েছেন তিনি। ইউক্রেনের বিদেশমন্ত্রকের (Foreign Minister of Ukraine) টুইটে একথা জানা গিয়েছে। ভাইরাল হয়েছে সেই টুইট। দেশের প্রতি বৃদ্ধার ভালবাসাকে কুর্নিশ জানাচ্ছেন নেটিজেনরা।

প্রায় এক শতক বয়সি বৃদ্ধার নাম ওলহা টিভেরদখলিবোভা (Olha Tverdokhlibova)। যিনি তাঁর জীবনের শুরুর দিনে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের (WWII) মুখোমুখি হয়েছিলেন। লড়েছিলেন দেশমাতৃকার মান বাঁচাতে। এখন বয়সের ভারে শরীর আর দেয় না, হাড়ে জোর কমেছে, তবুও প্রিয় দেশ যখন বিপন্ন, তখন অশক্ত শরীরে টগবগ করে ফুটছে বৃদ্ধার রক্ত! ওলহা জানিয়েছেন, বেঁচে থাকতে যুদ্ধমুক্ত মাতৃভূমি দেখতে চান তিনি।

[আরও পড়ুন: ফের চোখ রাঙাচ্ছে করোনা, তিনটি ভুল ধারণা সম্পর্কে সচেতন করল WHO]

ইউক্রেনের বিদেশমন্ত্রক ওলহার ছবি-সহ টুইটে লিখেছে, “৯৮ বছর বয়সি ওলহা টিভেরদখলিবোভা, একজন WWII প্রবীণ, তাঁর জীবনে দ্বিতীয়বারের জন্য যুদ্ধের মুখোমুখি হওয়া। তিনি ফের তাঁর মাতৃভূমিকে রক্ষা করতে প্রস্তুত ছিলেন। (যোগ দিতে চান যুদ্ধে)। তবে সমস্ত যোগ্যতা এবং অভিজ্ঞতা থাকা সত্ত্বেও বয়সের কারণে তাঁকে সেই সুযোগ দেওয়া হয়নি। আমরা নিশ্চিত, তিনি কিয়েভে দ্রুত আরও একটি জয় উদযাপন করবেন!”

[আরও পড়ুন: পাক সেনাঘাঁটিতে পর পর বিস্ফোরণ, দাউদাউ করে জ্বলছে অস্ত্রাগার]

গত ২৪ দিনের লড়াইয়ে পুতিন বাহিনী যুদ্ধক্ষেত্রে জিতলেও, ইউক্রেনের সাধারণ মানুষের একাধিক কাণ্ড দেখে ইউক্রেন দেশটাকে ভালবেসে ফেলছে গোটা বিশ্বের মানুষ। ওলহা টিভেরদখলিবোভার যুদ্ধে যেতে চাওয়ার এই ইচ্ছেকেও বাহবা জানিয়েছে নেটিজেনরা। সকলে বলছেন, ইউক্রেনের সাধারণ মানুষের এই মনোভাবের কারণেই হাজার চেষ্টাতেও কিয়েভ দখল করতে পারছে না রুশ বাহিনী। এবং বড় হয়ে উঠছে দেশপ্রেম। আর ক্রমশ রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ হয়ে উঠছে দেশপ্রেমের নতুন গাথা! 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে