×

৫ ফাল্গুন  ১৪২৫  সোমবার ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার
নিউজলেটার

৫ ফাল্গুন  ১৪২৫  সোমবার ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কর্মব্যস্ত জীবন থেকে খানিকটা সময় বের করে নিতে হয় প্রিয়জনের জন্য। প্রেমালাপে অনেক সময়ই বাধা হয়ে দাঁড়ায় সময়। কর্মক্ষেত্রে মন জুগিয়ে চলতে গিয়ে অনেক সময়ই ভালবাসার মানুষটির মন খারাপের কারণ হতে হয়। ভাবুন তো, যদি প্রেম করার জন্য আলাদা ছুটির ব্যবস্থা থাকত, তাহলে কী ভালই না হত। এ আর নিছক অলীক কল্পনা নয়, বাস্তবেই এবার প্রেমের জন্য ছুটি পেতে চলেছেন মহিলারা।

[চিনা ‘ফাঁদে’ পা দিতে নারাজ মালয়েশিয়া, বেকায়দায় বেজিং  ]

না, এমন সৌভাগ্য এ দেশের মহিলা কর্মীদের হয়নি। হয়েছে সুদূর চিনে। সামনেই চিনা নববর্ষ। সেজে উঠেছে ড্রাগনের দেশ। চারদিকে উৎসবের মেজাজ। আর এমন মরশুমে একটু মন খুলে প্রেম করা না গেলে কি চলে? তাই তো সে দেশের মহিলা কর্মীদের জন্য অভিনব উদ্যোগ নিয়েছে চিনের দু’টি সংস্থা। নববর্ষের সময় ৩০ বছরের বেশি বয়সের সিঙ্গল মহিলাদের প্রেম করার জন্য ছুটি দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে তারা।

চিনে মেয়েদের তাড়াতাড়ি বিয়ে দেওয়াটাই রেওয়াজ। ৩০ পেরিয়েও কোনও মহিলা অবিবাহিতা থাকলে সমাজ তাঁকে একপ্রকার বাতিলের খাতাতেই ফেলে দেয়। যদিও যত দিন যাচ্ছে ছবিটা পালটাচ্ছে। এদেশের মতো চিনের মহিলারাও কেরিয়ার সচেতন হয়ে উঠেছেন। নিজের পায়ে দাঁড়িয়েই বিয়ের বন্ধনে আবদ্ধ হতে চান তাঁরা। এই মানসিকতার কারণেই সমাজের তথাকথিত রেওয়াজ ভেঙে চুরমার হয়ে যাচ্ছে। কিন্তু কেরিয়ারে ফোকাস করতে গিয়ে বাড়ছে একাকীত্বও। আর সেই একাকীত্ব ও অবসাদ কাটাতেই এই প্রয়াস।

নববর্ষের জন্য এমনিই সাত দিন ছুটি পাওয়া যায়। এবার ত্রিশোর্ধ্ব অবিবাহিতা মহিলা কর্মীরা আরও আটদিন ছুটি দেওয়া হয়েছে। এর আগে পূর্ব চিনের একটি স্কুলে সিঙ্গল শিক্ষক-শিক্ষিকাদের ভালবাসার জন্য মাসে দুটি করে অতিরিক্ত ছুটি মঞ্জুর করা হয়েছিল। সেই পথেই এবার হাঁটল দুটি সংস্থা। এমন ঘোষণায় স্বাভাবিকভাবেই উচ্ছ্বসিত সেই কোম্পানির সিঙ্গল মহিলা কর্মীরা।

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং