Advertisement
Advertisement
Kabosu

হাসিমুখেই ‘বিশ্বজয়’, ঘুমের মধ্যেই প্রয়াত ‘বিশ্বের সবচেয়ে সুখী কুকুর’ কাবোসু

শিবা ইনু প্রজাতির এই কুকুরকে গোটা নেটদুনিয়া চেনে একডাকে।

Kabosu, the iconic Shiba Inu dog dies
Published by: Biswadip Dey
  • Posted:May 24, 2024 3:13 pm
  • Updated:May 24, 2024 3:13 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: গোটা দুনিয়া চেনে তাকে। তাকে নিয়েই তৈরি হয়েছে অসংখ্য মিম। যার কিছু হয়তো আপনিও শেয়ার করেছেন। মারা গেল সেই কুকুর কাবোসু। শিবা ইনু প্রজাতির এই কুকুর (Shiba Inu dog) ক্রিপ্টোকারেন্সি ডগিকয়েনেরও প্রতীক। তার মৃত্যুতে শোকাচ্ছন্ন নেটজগৎ।

শুক্রবার ডগিকয়েনের এক্স হ্যান্ডলে এই দুঃসংবাদ শেয়ার করা হয়েছে সকলের সঙ্গে। জানানো হয়েছে, কাবোসু তার প্রভুর কোলে শান্তিপূর্ণ ভাবে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেছে। লেখা হয়, ‘এই একটি কুকুর সারা বিশ্বে যে প্রভাব ফেলেছে তা অপরিমেয়। ও ছিল এমন একজন যে কেবল সুখ ও অনন্ত ভালোবাসাই বুঝত। দয়া করে ওর এবং ওর পরিবারের এই স্পিরিটকে আপনাদের হৃদয়ে রেখে দিন।’

Advertisement

[আরও পড়ুন:  ৫ দিনের মধ্যে খুনের হুমকি! সোশাল মিডিয়ায় বিস্ফোরক দাবি অর্জুন সিংয়ের]

মিমের (Meme) মুখ হিসেবে গোটা পৃথিবী চেনে কাবোসুকে (Kabosu)। রসিকতা করেই তার মুখ ব্যবহার করেই সৃষ্টি করা হয়েছিল ক্রিপ্টোকারেন্সি ডগিকয়েন। যা মুহূর্তে মন জিতে নেয় নেট ভুবনের। তৈরি হয় তার অসংখ্য ফ্যান। সেই সাফল্যকে মাথায় রেখেই পরে শিবা ইনু ও ফ্লকির মতো টোকেনও তৈরি হয় অন্য জনপ্রিয় কুকুরদের মুখ ব্যবহার করে।

২০২২ সালে লিউকোমিয়া ও যকৃতের অসুখ ধরা পড়েছিল কাবোসুর। দুবছর পেরতে না পেরতেই পৃথিবী থেকে বিদায় নিল ‘বিশ্বের সবচেয়ে সুখী কুকুর’। কাবোসুর প্রভু জানিয়েছেন, আগামী রবিবার ২৬ মে নারিতা সিটিতে কাবোসুর উদ্দেশে একটি ‘ফেয়ারওয়েল পার্টি’ দেওয়া হবে। সেই সঙ্গেই তিনি জানিয়েছেন, ঘুমের মধ্যেই প্রাণ হারিয়েছে কাবোসু। কিন্তু এখনও তিনি অনুভব করতে পারছেন কাবোসু এখনও হাসছে, নিজের লেজ হারছে এবং তাঁর গা ঘেঁষেই দাঁড়িয়ে রয়েছে। যেমনটা সে এতকাল করে এসেছে।

[আরও পড়ুন: ‘আমার জন্ম জৈবিক প্রক্রিয়ায় নয়’, মোদির মন্তব্যে মমতার পালটা, ‘আমাদের তো মা-বাবা আছে’]

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ