Advertisement
Advertisement
Russia-Ukraine War

রুশ গোলার মুখে একে অপরকে আঁকড়ে বাঁচার চেষ্টা বৃদ্ধ দম্পতির, ইউক্রেনের ভিডিও দেখে কাঁদছে বিশ্ব

কিয়েভ সংলগ্ন বাকারিভ শহরের মর্মান্তিক ঘটনা।

Russian Tank blows up Ukrainian civilian car died elderly Couple inside | Sangbad Pratidin
Published by: Kishore Ghosh
  • Posted:March 9, 2022 6:30 pm
  • Updated:March 9, 2022 7:06 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: যুদ্ধ মানেই মৃত্যু মিছিল। গতকালই রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের (Russia-Ukraine War) একটি পরিসংখ্যান সামনে এসেছে, সেখানে একথাই স্পষ্ট হয়েছে। দেখা গিয়েছে রুশ হামলায় মৃত্যু হয়েছে ইউক্রেনের বহু সাধারণ নাগরিকের। ফের তেমনই একটি ঘটনার ভিডিও প্রকাশ্যে এসেছে। যা দেখে চোখের জল ধরে রাখতে পারছে না বিশ্ববাসী। ভাইরাল ভিডিওয় দেখা গিয়েছে, বিনা প্ররোচনায় রাশিয়ান ট্যাঙ্কগুলি চালিয়ে ধ্বংস করে দিচ্ছে একটি সাধারণ গাড়িকে। যার ভেতরে ছিলেন এক বয়স্ক দম্পতি। হামলা হতেই তাঁরা পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন। যদিও পারেননি। ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় দম্পতির।

ভিডিওটি গত মঙ্গলবারের। ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভ সংলগ্ন বাকারিভ শহরের ঘটনা। ওই এলাকাতেও যুদ্ধ ক্রমশ ঘোরাল হয়ে ওঠায় এলাকা ছাড়তে শুরু করেছেন স্থানীয় বাসিন্দারা। মনে করা হচ্ছে ওই বয়স্ক দম্পতিও প্রাণ বাঁচাতে শহর ছাড়ছিলেন। যদিও রুশ বাহিনীর হামলার মুখে তা আর সম্ভব হয়নি। ভিডিওতে দেখা গিয়েছে, ওই দম্পতির গাড়ি স্বাভাবিক গতিতে এগোচ্ছিল ফাঁকা রাস্তা দিয়ে। উলটো দিকের রাস্তা দিয়ে যাচ্ছিল রুশ সেনার কয়েকটি ট্যাঙ্ক। আচমকা একটি ট্যাঙ্ক মুখ ঘুরিয়ে গাড়িটিকে লক্ষ্য করে গুলি চালাতে শুরু করে। তিনবার গুলি করা হয় গাড়িটিতে। সম্পূর্ণ ঝলসে যায় গাড়িটি।

Advertisement

[আরও পড়ুন: যুদ্ধবিধ্বস্ত কিয়েভ থেকে নিরাপদে বেরতে পেরেছেন, মোদিকে ধন্যবাদ পাক তরুণীর]

রুশ সেনা প্রথমবার গুলি চালানোর পরেই পালানোর চেষ্টা করেছিলেন গাড়ির ভেতরে থাকা বয়স্ক দম্পতি। যদিও একের পর এক গুলি চলায় তা সম্ভব হয়নি। পরে প্রচন্ড ক্ষতিগ্রস্ত গাড়িটির কাছে যান স্থানীয়রা। তখন দেখা যায় গাড়ির ভেতের একে অপরকে জড়িয়ে ধরে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেছেন দম্পতি। সম্ভবত শেষ মুহূর্তেও একে অপরকে আকড়ে বাঁচার চেষ্টা করেছিলেন ওঁরা।  

Advertisement

[আরও পড়ুন:  ‘যতই শহর দখল করুন, ইউক্রেন জিততে পারবেন না পুতিন’, হুঁশিয়ারি বাইডেনের]

প্রসঙ্গত, রাষ্ট্রসংঘের মানবাধিকার দপ্তর জানিয়েছে, সোমবার পর্যন্ত ইউক্রেন-রাশিয়া যুদ্ধে ৪০৬ জন সাধারণ নাগরিকের মৃত্যু হয়েছে। এদের মধ্যে ২৭ জন শিশু। গুরুতর আহতের সংখ্যা ৮০১। যদিও মৃতের প্রকৃত সংখ্যা অনেকটাই বেশি বলে মনে করা হচ্ছে রাষ্ট্রসংঘের তরফেই। এদিকে ইউক্রেনের দাবি, ১২ হাজার রুশ সেনার মৃত্যু হয়েছে পালটা মারে। এছাড়াও পুতিনের সেনার ২ হাজার সামরিক সরঞ্জামের ক্ষতি হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে ২৮৫টি ট্যাঙ্ক, ৪৪টি যুদ্ধবিমান ও ৪৮টি কপ্টার। যদিও মস্কোর দাবি, ৪৯৮ জন রুশ সেনার মৃত্যু হয়েছে এখনও পর্যন্ত। আহত হয়েছেন ১ হাজার ৫৯৭ জন। এখনও অবধি কতজন ইউক্রেনীয় সেনার মৃত্যু হয়েছে তা কোনওপক্ষই জানায়নি।   

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ