BREAKING NEWS

১৪ ফাল্গুন  ১৪২৭  শনিবার ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‘বাড়ি বসে কাজ বড় একঘেয়ে, আমায় গ্রেপ্তার করুন’, পুলিশের কাছে আজব দাবি ব্যক্তির

Published by: Sulaya Singha |    Posted: February 19, 2021 9:43 pm|    Updated: February 19, 2021 9:43 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: করোনা অতিমারীর জেরে গৃহবন্দি হয়ে যেন প্রাণ ওষ্ঠাগত হয়ে উঠেছিল বহু মানুষেরই। একঘেয়ে জীবন আর কতদিনই বা ভাল লাগে। কিন্তু বাড়ির বাইরে পা রাখলেই ওঁত পেতে বসে অদৃশ্য মারণ ভাইরাস। অগত্যা শপিং থেকে অফিসের কাজ, সবই সারতে হয়েছে বাড়ির চার দেওয়ালের অন্দরেই। এমন পরিস্থিতিতে একঘেয়ে অনুভূত হয়নি, এমন মানুষ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কিন্তু এই একঘেয়ে কাটানোর জন্য সাসেক্সের এক ব্যক্তি যা করলেন তা নিঃসন্দেহে নজিরবিহীন।

ভাবতে পারেন, চুপিসারে হয়তো কোনও লং ড্রাইভে বেরিয়ে পড়েছিলেন তিনি। কিংবা মজার কোনও কাণ্ড ঘটিয়েছেন। কিন্তু না, আপনার কল্পনারও অতীত এই ঘটনা। বাড়িতে একঘেয়ে জীবন কাটিয়ে বিরক্ত সেই ব্যক্তি সোজা ফোন করে দেন থানায়। বলেন, বাড়ি বড় একঘেয়ে। তাঁকে যেন গ্রেপ্তার করা হয়! শুনতে অবাক লাগছে, কিন্তু এটাই সত্যি।

[আরও পড়ুন: মৌলবির নাক ডাকার আওয়াজ বাজল মসজিদের মাইকে, ঘুম উড়ল এলাকাবাসীর]

ব্যক্তির পরিচয় এখনও পর্যন্ত জানা যায়নি। গত বুধবার তিনি বার্জেস হিল থানায় ফোন করে বলেন, বাড়িতে একঘেয়ে হওয়ার চেয়ে ভাল জেলে কাটাবেন। তাঁর শুধু প্রয়োজন একটু শান্তি। সংসারের চিৎকার-চেঁচামেচি থেকে দূরে যাওয়ার জন্য এই পথই বেছে নিতে চান তিনি। মিড সাসেক্স নেবারহুডের পুলিশিং ইন্সপেক্টর জানান, বুধবার বিকেল ৫টা নাগাদ থানায় এসে নিজেই ধরা দেন ওই ব্যক্তি। তাঁকে বোঝানো হয়, পরিবারের মানুষদের সঙ্গে থাকতে ইচ্ছা না করলে তিনি যেন নিজের সঙ্গে খানিকটা সময় কাটান। এতে একঘেয়েমি কমতে পারে।

গত অক্টোবরে হওয়া সমীক্ষা বলছে, গৃহবন্দি থাকার কারণে প্রায় পাঁচ শতাংশ মানুষের স্বভাব ও আচরণে বিপুল বদল এসেছে। খুব তাড়াতাড়ি মেজাজ হারান এঁরা। ছোটখাটো কথায় বিরক্ত হন। তাঁর মধ্যেই যে এই ব্যক্তিও রয়েছেন, তা বলাই বাহুল্য। আর ঠিক এই কারণেই সকলের প্রার্থনা, আর যেন কোনও অতিমারীর সাক্ষী না হতে হয় বিশ্ববাসীকে।

[আরও পড়ুন: বিয়ে করতে গিয়ে বিপত্তি, বাজির শব্দে মেজাজ হারিয়ে বরকে নিয়ে ছুটল ঘোড়া, তারপর…]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement