BREAKING NEWS

০৫ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  শুক্রবার ২০ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

একমাত্র ভারতীয় হিসেবে স্কিয়িংয়ে দেশকে পদক এনে দিলেন এই তরুণী

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: January 10, 2018 9:19 am|    Updated: July 13, 2018 6:13 pm

Aanchal Thakur gets India first international title in ski

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মানুষি চিল্লার থেকে পি ভি সিন্ধু, মেরি কম থেকে অরুণিমা সিনহা, মহিলাদের কীর্তিতে ভারতের মাথা বিশ্ব মঞ্চে উঁচু হয়েছে। গর্বিত হয়েছেন দেশবাসী। এবার আরও এক ক্ষেত্রে ইতিহাস গড়লেন এক ভারতীয় নারী। স্কিয়িংয়ে প্রথম আন্তর্জাতিক পদক জিতে দেশের মুখ উজ্জ্বল করলেন আঁচল ঠাকুর।

[স্যার ডন ব্র্যাডম্যানের রেকর্ড ভেঙে নজির এই ব্যাটসম্যানের]

মানালির ছোট্ট গ্রাম বুরুয়ার বাসিন্দা আঁচলের বয়স ২১ বছর। বরফে ঢাকা শহরের কাছে থাকার ফলেই ছোট থেকে এই খেলাতেই আগ্রহ ছিল তাঁর। নিজের ইচ্ছে পূরণে পাশে পেয়েছিলেন পরিবারকেও। বাবার কাছেই স্কিয়ের হাতেখড়ি। তারপর অলিম্পিয়ান হীরালালের কাছে প্রশিক্ষণ নেন আঁচল। আর এই বয়সে দেশের প্রথম ও একমাত্র অ্যাথলিট হিসেবে স্কিয়িংয়ে ব্রোঞ্জ পদক জিতলেন তিনি। এর আগে কোনও পুরুষ খেলোয়াড়ও এই কীর্তি করে দেখাতে পারেননি।

[দল নিয়ে চূড়ান্ত অসন্তুষ্ট ইস্টবেঙ্গল সচিব, তোপের মুখে প্লাজা-চার্লস]

আন্তর্জাতিক স্কি ফেডারেশনের উদ্যোগে তুরস্কে অনুষ্ঠিত অ্যালপাইন এজডার ৩২০০ কাপে স্ল্যালম রেস বিভাগে ব্রোঞ্জ পদক ঘরে তুললেন আঁচল। এ দেশে এই খেলার জনপ্রিয়তা একপ্রকার নেই বললেই চলে। তাই ওই প্রতিযোগিতায় আঁচলের অংশগ্রহণ নিয়ে বিশেষ মাথা ব্যথা ছিল না দেশবাসীর। তবে পদক জিতে নিজেই সোশ্যাল মিডিয়ায় এ খবর দেন আঁচল। আর তারপর থেকেই শুভেচ্ছার বন্যায় ভাসছে তাঁর ভারচুয়াল ওয়াল। আঁচল লিখেছিলেন, “জীবনে একটা অপ্রত্যাশিত ঘটনা ঘটে গিয়েছে। প্রথম আন্তর্জাতিক খেতাব জিতেছি। তুরস্কের স্মৃতিটা শেষমেশ সুখেরই হল।”

আঁচলের এই কৃতিত্বের জন্য তাঁকে টুইটারে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রী রাজ্যবর্ধন সিং রাঠোর। তাঁর ভূয়সী প্রশংসা করে অভিনন্দন জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিও। দেশবাসীর ভালবাসা ও শুভেচ্ছায় উচ্ছ্বসিত ইতিহাস তৈরি করা এই তরুণী।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে