BREAKING NEWS

১২ কার্তিক  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ২৯ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

কোচ বদলেও রোগ সারল না, ঘরের মাঠে ফের বিশ্রী হার এটিকের

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: January 25, 2018 4:28 pm|    Updated: January 25, 2018 4:28 pm

An Images

চেন্নাইয়ান এফ সি – ২ [মেলসন (৫২), জেজে (৬৪)]

এটিকে – ১   [পেটেরসন (৪৪)]

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কোচ ছাঁটাই করেও রোগ পালটাল না। ফের হার এটিকের। এগিয়ে থেকেও ঘরের মাঠে মাঠে চেন্নাইয়ান এফসির কাছে বিশ্রীভাবে হারল দুবারের চ্যাম্পিয়নরা।

[চেন্নাই ম্যাচের আগে এটিকে শিবিরে বড় ধাক্কা, ছাঁটা হচ্ছে শেরিংহ্যামকে]

চারবারের মধ্যে দুবার চ্যাম্পিয়ন। আইএসএলে এমন ইর্ষনীয় যাদের ট্র্যাক রেকর্ড তাদের এবার যেন ছায়া মনে হচ্ছে। এই ম্যাচ জিতলে প্রথম চারের মধ্যে থাকার একটা সম্ভাবনা তৈরি হয়েছিল। সেটাও কার্যত শেষ হয়ে গেল এটিকের। ঘরের মাঠে ফের হার। চেন্নাইয়ন এফসির সঙ্গে এগিয়ে থেকেও ২-১ গোলে হারল অ্যাশলে ওয়েস্টউডের দল। অথচ মঙ্গলবার কলকাতার দলের কোচের পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছিল শেরিংহ্যামকে। তার জায়গায় টিমের টিডি ওয়েস্টউডকে অস্থায়ী কোচ হিসাবে আনা হয়। কোচ পালটেও দলের পারফরম্যন্সেও বদল এল না। সেই ছন্দহীন দৌড় আর মিস পাস। এর মধ্যে প্রথমার্ধের শেষ লগ্নে কলকাতার দলকে এগিয়ে দিয়েছিলেন পেটেরসন। কিন্তু দ্বিতীয়ার্ধে চেন্নাইয়ের দলটি বদলে যায়। ৫২ মিনিটে একক কৃতিত্ব চেন্নাইকে খেলায় ফেরান মেলসন। এরপর ৬৪ মিনিটে দেবজিতের ভুলে গোল করে যান জেজে। এরপর অবশ্য দেবজিৎ আর একটি ভাল সেভ করলেও ম্যাচে ফেরার মতো কিছু করতে পারেনি কলকাতা। বল পজেশন থেকে শট অন টার্গেট। সবেতেই জেজেদের থেকে অনেক পিছিয়ে এটিকে। মাঝমাঠে প্রবীররা চেষ্টা করলেও গোল করার মতো পরিস্থিতি তৈরি করতে পারেননি।

[মোহনবাগান আইএসএল খেলবেই, ঘোষণা টুটু বোসের]

গুরুত্বপূর্ণ এই ম্যাচ জিতে লিগ টেবিলের এক নম্বরে উঠে এল জন গ্রেগরির চেন্নাই। ১২ ম্যাচে ২৩ পয়েন্ট নিয়ে পুণেকে টপকে গেল জেজেরা। এর আগে চেন্নাইতে গিয়ে ০-২ গোলে হেরেছিল প্রবীর, দেবজিতরা। এবার ঘরের মাঠেও একই লজ্জা। টিমটার অধিকাংশ ফুটবলারের চোট। এই চোটের জন্য ফিনল্যান্ড ফিরে গিয়েছেন এটিকের তারকা স্ট্রাইকার রবি কিন। এর ফলে গোল করার লোক আরও কমে গিয়েছে কলকাতার। ১২ পয়েন্ট নিয়ে লিগ টেবিলে আট নম্বরে থাকল এটিকে। হাতে আর আটটা ম্যাচ। বড় অঘটন না হলে এই টিমের প্রথম চারে যাওয়া শক্ত বলে মনে করেন বিশেষজ্ঞরা।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement