BREAKING NEWS

২০ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ৭ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

বল বিকৃতি কাণ্ডে অধিনায়ক ও ডেপুটির পদ থেকে সরে দাঁড়ালেন স্মিথ-ওয়ার্নার

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: March 25, 2018 3:05 pm|    Updated: July 25, 2019 5:26 pm

Smith and David Warner step down and Tim Paine is the new captain

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: রবিবার অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেট ইতিহাসে কলঙ্কের দিন হিসেবেই চিহ্নিত হয়ে রইল। দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে তৃতীয় টেস্ট চলাকালীন বল বিকৃতির অভিযোগ স্বীকার করে নিলেন অজি অধিনায়ক স্টিভ স্মিথ। যার জেরে নেতার পদ থেকে সরে দাঁড়াতে হচ্ছে তাঁকে। সহ-অধিনায়ক পদ থেকে সরতে হল ডেভিড ওয়ার্নারকে।

[পথ দুর্ঘটনার কবলে পড়লেন শামি, মাথায় গুরুতর চোট]

রবিবার অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট বোর্ডের সিইও জেমস সাদারল্যান্ড গোটা ঘটনায় দুঃখ প্রকাশ করে জানান, কেপটাউনে চলতি টেস্টে স্মিথ ও ওয়ার্নারকে আর অধিনায়ক এবং সহ-অধিনায়কের ভূমিকায় দেখা যাবে না। আমরা ক্রিকেটে স্বচ্ছতা বজায় রাখতে চাই বরাবর। তাছাড়া ক্রিকেট সমর্থকরাও আমাদের থেকে সুবিচার আশা করে. সেই কারণেই স্মিথ ও ওয়ার্নারের সঙ্গে কথা বলে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে. দলের অস্থায়ী নেতা হিসেবে বেছে নেওয়া হল টিম পেইনকে। পুরো বিষয়টি নিয়ে তদন্তে হবে বলেও জানান তিনি। ভারতের বিরুদ্ধে খেলার সময় রিভিউ নিয়ে বিতর্ক তৈরি হয়েছিল। যে কাণ্ড ক্রিকেটে ‘ব্রেন ফেড’ নামে পরিচিত। এবার বল বিবৃতির ঘটনা ‘বিগ মিসটেক’ হয়ে রয়ে গেল। তবে নেতৃত্ব গেলেও স্মিথ ও ওয়ার্নারকে এখনই সাসপেন্ড করা হল না। প্রোটিয়াদের বিরুদ্ধে পেইনের নেতৃত্বে মাঠে নামছেন তাঁরা।

ঠিক কী হয়েছিল শনিবার?

অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে তৃতীয় টেস্টের তৃতীয় দিন পাঁচ উইকেট হাতে নিয়ে দক্ষিণ আফ্রিকা ২৯৪ রানে এগিয়ে ছিল। শনিবার নিউল্যান্ডসে দক্ষিণ আফ্রিকার দ্বিতীয় ইনিংসে অস্ট্রেলিয়ান ফিল্ডার ক্যামেরন ব্যানক্রফটকে বল নিয়ে কিছু করতে দেখা যায়। টিভিতেও ধরা পড়ে সেই বিতর্কিত দৃশ্য। এরপরই ব্যানক্রফট স্বীকার করেন, তিনি ফিল্ডিংয়ের মাঝে কোনও একটা বস্তু দিয়ে বল বিকৃত করার চেষ্টায় ছিলেন। গতকালই ম্যাচ শেষে ব্যানক্রফটকে নিয়ে সাংবাদিক সম্মেলনে আসেন অজি অধিনায়ক স্মিথ। ব্যানক্রফট বলেন, “ম্যাচ অফিশিয়ালদের সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। আমার বিরুদ্ধে বল বিকৃতির অভিযোগ উঠেছে। সুযোগ বুঝে টেপ আর মাটির গুঁড়ো দিয়ে বল বিকৃতির চেষ্টায় ছিলাম। তবে সেটা কাজে দেয়নি। কারণ আম্পায়াররা বল পালটাননি। আমাকে স্ক্রিনেও দেখানো হয়।” অস্ট্রেলীয় অধিনায়ক স্মিথও সাংবাদিকদের কাছে বলে যান, “যা হয়েছে তাতে মোটেও গর্বিত নই। এটা খেলার নীতির বিরোধী। আমার নেতৃত্ব আর দলের সততা নিয়েও প্রশ্ন উঠছে। এরকম আর ঘটবে না।” ইতিমধ্যেই আইসিসি-র জরিমানার মুখে পড়েছেন ব্যানক্রফট। এমন পরিস্থিতিতে অধিনায়ক ও সহ-অধিনায়ককেই সব দায় নিতে হয়। সেই কারণেই নিজেদের পদ থেকে সরে দাঁড়াতে রাজি হয়েছেন তাঁরা। তবে এই ঘটনার পর তাঁদের আইপিএল-এ খেলা নিয়ে প্রশ্নচিহ্ন দেখা দিয়েছে। শেন ওয়ার্ন থেকে ডেল স্টেইন, কেভিন পিটারসেন থেকে আকাশ চোপড়ারা টুইটারে পুরো বিষয়টি নিয়ে তীব্র উষ্মা প্রকাশ করেছেন।

[পদত্যাগপত্র প্রত্যাহার না করেও দলগঠনের কাজে ক্লাবের পাশে সৃঞ্জয়-দেবাশিস]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে