২১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  রবিবার ৮ ডিসেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ঘরের মাঠে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে ইনিংসে জিতল নিউজিল্যান্ড। এই জয় অনেকটা তেতো হয় গেল নতুন এক বিতর্কে। নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে সরাসরি বর্ণবিদ্বেষের অভিযোগ এনেছেন হোফ্রা আর্চার। অতীতেও এমন ঘটনার সামনে দাঁড়াতে হয়েছে তাঁকে। আবার তাঁকে নিয়ে এমন ঘটনা ঘটায় ক্রিকেটমহল বিস্মিত। নিউজিল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড অবশ্য এ ব্যাপারে আর্চারের পাশে। তাঁরা বলেছেন, “আমরা দুঃখিত। ভাবতেই পারছি না এমন ঘটনা দেশের মাটিতে ঘটবে। তদন্ত হচ্ছে। সিসি ঢিভি দেখা হচ্ছে। সেখানে যদি অপরাধীকে খুঁজে পাই।”

হোফ্রা আর্চারের অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে নিউজিল্যান্ডের এই জয় অনেকটা চোনা ফেলে দিল। ঘটনাটা ঘটে খেলার শেষে। প্রথম টেস্ট শেষ হয়ে যাওয়ার পর যখন তিনি মাঠ ছাড়ছিলেন সেই সময় ঘটে অপ্রীতিকর ঘটনা। “আমি যখন মাঠ ছাড়ছি, তখন দেখি আমাকে নিয়ে নানা কটু মন্তব্য হচ্ছে। যার পুরোটাই বর্ণবিদ্বেষী। যদিও সতীর্থরা আমাকে মাঠ থেকে বের করে নিয়ে আসে।” নিউজিল্যান্ড শিবিরের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, “হোফ্রার সঙ্গে যা করা হয়েছে তা মোটেই সমর্থন যোগ্য নয়। খেলার মাঠে ইংল্যান্ড শত্রু হতে পারে। আসলে তারা আমাদের বন্ধু। এমন আচরণ যেন এরপর আর না করা হয়।”



নিউজিল্যান্ড টেস্ট জিতল ইনিংস এবং ৬৫ রানে। প্রথম ইনিংসে ২৬২ রানে পিছিয়ে থাকার পর দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে ইংল্যান্ড শেষ ১৯৭ রানে। এই বড় জয়ের পিছনে বড় অবদান ওয়াগনারের। তিনি ৪৪ রানে পাঁচ উইকেট পান। বাঁহাতি স্পিনার স্যান্টনার ৫৫ রানে পান ৩। ১৩৮ রানে ইংল্যান্ডের ৮ উইকেট পড়ার পর স্যাম কুরান ও আর্চার দলকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন। কিন্তু তাঁদের পক্ষে ইনিংস হার বাঁচানো সম্ভব ছিল না। স্যাম কুরান ২৯ রানে নট আউট থাকেন। আর্চারের করেন ৩০ রান। তাঁর ব্যাটিংয়ের সময়ই আসল ঘটনা ঘটে। যে কথা তিনি পরে জানান।

ইংল্যান্ড প্রথম ইনিংসে ৩৫৩ রান করলেও নিউজিল্যান্ডের কিপার ওয়াটলিং (২০৫) ও স্যান্টনারের (১২৬) ব্যাটিংয়ে নিউজিল্যান্ড করে ন’উইকেটে ৬১৫ রান। খেলা শেষে রুট বলছিলেন, “প্রথম ইনিংসেই আমরা টেস্ট হেরেছি। ওয়াটলিং ও স্যান্টনারের জুটির কথা বলছি না। আমাদের দলের রান সাড়ে চারশোর উপর নিয়ে যাওয়া উচিত ছিল। সেটা পারিনি। তারপর নিউজিল্যান্ডকে ম্যাচে ফিরতে সাহায্য করেছি।” নিউজিল্যান্ড অধিনায়ক উইলায়মসন বলছেন, “এভাবে জয় পাব ভাবিনি। মিডল অর্ডার রানকে ছ’শো পার করে দেওয়ায় জেতার ব্যাপারে আত্মবিশ্বাসী ছিলাম।”

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং