৯ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

সৌরভের শর্ত মানতে নারাজ অস্ট্রেলিয়া, ১৪ দিনই কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে বিরাটদের!

Published by: Sulaya Singha |    Posted: July 21, 2020 1:30 pm|    Updated: July 21, 2020 1:34 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: চলতি বছর ভারতের অস্ট্রেলিয়া সফরে সবুজ সংকেত দেখিয়েছিল বিসিসিআই (BCCI)। অজি বোর্ডের সামনে একটি শর্তও রেখেছিলেন ভারতীয় বোর্ড সভাপতি সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় (Sourv Ganguly)। চেয়েছিলেন, দু’সপ্তাহ নয়, বিরাট কোহলিদের যেন কোয়ারেন্টাইনে কম সময়ের জন্য রাখা হয়। কিন্তু শোনা যাচ্ছে, সৌরভের সেই অনুরোধ রাখছে না ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। অর্থাৎ ডনের দেশে ১৪ দিনই টানা কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে টিম ইন্ডিয়াকে।

করোনার আতঙ্ক উপেক্ষা করেই সমস্ত নিয়মবিধি মেনে মাঠে নেমে পড়েছে ইংল্যান্ড ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ। কিন্তু বিরাট কোহলিরা? তাঁদের কবে স্বমহিমায় দেখা যাবে বাইশ গজে? এ প্রশ্নের উত্তর এখনও মেলেনি। তবে তারই মধ্যে ক্রিকেটপ্রেমীদের স্বস্তি দিয়ে বিসিসিআই, ডিসেম্বরে নিশ্চিতভাবেই টিম ইন্ডিয়াকে বাইশ গজে খেলতে দেখা যাবে অস্ট্রেলিয়া মাঠে। কিন্তু সভাপতি সৌরভ চেয়েছিলেন, অস্ট্রেলিয়া পৌঁছে ভারতীয় দলকে আর একটু কম সময় রাখা হোক কোয়ারেন্টাইনে। কেন? সৌরভের কথায়, “আসলে দু’সপ্তাহ ধরে ক্রিকেটাররা হোটেলের ঘরে বসে থাকবে, সেটা আমরা চাইছি না। তাতে সকলকেই হতাশা গ্রাস করতে পারে।” কিন্তু তাঁর সেই অনুরোধকে আমল দিচ্ছেন না অজি বোর্ডের নয়া সিইও নিক হোকলি। বরং তিনি দু’সপ্তাহ কোয়ারেন্টাইনে থাকার প্রয়োজনের কথাই তুলে ধরেছেন। সেই সঙ্গে এও জানিয়েছেন, কোয়ারেন্টাইনে ক্রিকেটারদের ঘরবন্দি থাকতে হবে না। তাঁরা অনুশীলন করতে পারবেন।

[আরও পড়ুন: কলকাতা লিগে প্রথম এগারোয় রাখতে হবে দুই বাঙালি জুনিয়রকে, নজিরবিহীন সিদ্ধান্ত IFA-র]

একটি সংবাদমাধ্যমকে নিক বলেন, “দু’সপ্তাহের কোয়ারেন্টাইন খুবই দরকার। আমরা চেষ্টা করছি, অত্যাধুনিক পরিকাঠামোর ব্যবস্থা করার যাতে ওই সময়ও প্র্যাকটিসের মধ্যে থাকতে পারেন ক্রিকেটাররা। এতে ম্যাচে নামতে সমস্যা না হয়। অবশ্যই চিকিৎসক ও বিশেষজ্ঞর পরামর্শ মেনেই সমস্ত বন্দোবস্ত করা হবে।” যদিও ক্রিকেটারদের একই হোটেলে রাখা হবে, নাকি ভেন্যুর কাছাকাছি একাধিক হোটেলে বিরাটদের থাকার ব্যবস্থা করা হবে, সে বিষয়ে এখনও বিস্তারিত জানানো হয়নি। তবে নিকের কথায় স্পষ্ট, সফরকারী দলকে সুরক্ষিত ও ফিট রাখার সবরকম পরিকল্পনাই শুরু হয়ে গিয়েছে।

ক্রীড়াসূচি অনুযায়ী ডিসেম্বর-জানুয়ারিতে অজিবাহিনীর মুখোমুখি হবেন কোহলিরা। বর্তমানে সে দেশে অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে করোনা ভাইরাস (Coronvirus)। যদিও মেলবোর্নের চেহারা এখনও সংকটজনক। তবে ডিসেম্বরে সিরিজ মানে হাতে অনেকটাই সময় আছে। তাই এই সফরে আপত্তি করেনি বিসিসিআই।

[আরও পড়ুন: দলে ফিরেই ভেলকি ব্রডের, ক্যারিবিয়ানদের কুপোকাত করে সিরিজে সমতা ফেরাল ইংল্যান্ড]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement