BREAKING NEWS

১৪  আষাঢ়  ১৪২৯  বুধবার ২৯ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

সোনি-আমনার স্কিলই গড়বে ডার্বির ভাগ্য! কী বলছেন প্রাক্তনরা?

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: December 1, 2017 1:18 pm|    Updated: December 1, 2017 1:18 pm

East Bengal is ahead off Mohun Bagan in  derby, says Formar footballer debashis muKherjee

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:  আর মাত্র একদিন পরেই ডার্বি। বাঙালি চিরন্তন আবেগের ম্যাচে কোন দলকেই এগিয়ে বা পিছিয়ে রাখা যায় না বলেই মনে করেন বিশেষজ্ঞরা। বলা হয়, ম্যাচের নব্বই মিনিট যে দল ভাল ফুটবল খেলবে, সেই দলই বাজিমাত করবে। সেই মতেই বিশ্বাস করেন প্রাক্তন ফুটবলার দেবাশিস মুখোপাধ্যায়। তবে মাঝমাঠের কারণেই ডার্বিতে কিছুটা হলেও ইস্টবেঙ্গলকেই এগিয়ে রাখছেন তিনি। অন্যদিকে, জাপানি ফুটবলার ইউটা বল নিয়ে অনুশীলন নামার পর চনমনে মোহনবাগানও। সবমিলিয়ে শহরে চড়ছে ডার্বির পারদ।

[মোহনবাগানের চিন্তায় মাঝমাঠ, ডিফেন্স ভাবাচ্ছে ইস্টবেঙ্গলকে]

নিজে মোহনবাগান ও ইস্টবেঙ্গল দু’দলেই খেলেছেন। ডার্বি খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে ঝুলিতে। প্রাক্তন গোলরক্ষক দেবাশিস মুখোপাধ্যায়ের মতে, ‘মাঝমাঠে আমনার মতো ফুটবলাদের উপস্থিতির কারণেই এগিয়ে ইস্টবেঙ্গল। মাঝমাঠ থেকে গোটা দলকে নেতৃত্ব দিচ্ছে আমনা। মোহনবাগানে সোনি নিরর্ভরতা বড্ড বেশি। ও যদি ভাল খেলে,  তবেই ভাল খেলবে মোহনবাগান।’  এবছর মোহনবাগান ও ইস্টবেঙ্গল কোনও দলের ডিফেন্সই আহামরি নয়। প্রথম ম্যাচে শেষ মুহূর্তে গোল খেয়ে পয়েন্ট নষ্ট করেছে দু’দলই। পার্থক্য বলতে, ঘরের মাঠে গতবারের চ্যাম্পিয়ন আইজলের বিরুদ্ধে খেলেছে ইস্টবেঙ্গল। আর অ্যাওয়ে ম্যাচে মিনার্ভা পাঞ্জাবের বিরুদ্ধে নেমেছিল মোহনবাগান। কিন্তু, প্রতিপক্ষের বিচারে লাল-হলুদ ডিফেন্সকেও এগিয়ে রাখছেন দেবাশিস মুখোপাধ্যায়।

[রবিবারের ডার্বির টিকিট মিলছে কোথায়, জেনে নিন খুঁটিনাটি]

এদিকে ডার্বির আগে রীতিমতো চনমনে মোহনবাগানও। ইস্টবেঙ্গলের প্রথম ম্যাচে ড্র সবুজ-মেরুন শিবিরের আত্মবিশ্বাস অনেকটাই বাড়িয়ে দিয়েছিল। এবার ইউটা বল নিয়ে প্র‌্যাকটিসে নামার পর ডার্বি জয়ের স্বপ্ন দেখছে সবুজ-মেরুন শিবিরও। তাদের বিশ্বাস, এই জাপানি ফুটবলারটি যদি ডার্বি ম্যাচে খেলতে পারেন, তাহলে অনেক হিসেবই বদলে যাবে। মাঝমাঠ নিয়ে যে চিন্তা আছে, তা দূর হবে। অনেক আশা নিয়ে দিয়েগোকে নিয়ে আসা হয়েছিল। কিন্তু তিনি সেই আশা পূরণ করতে পারেনি। তাই ইউতাই এখন মোহনবাগানের ভরসা। বৃহস্পতিবার বল নিয়ে বেশ কিছুক্ষণ প্র‌্যাকটিস করেছেন এই জাপানি ফুটবলারটি। তবে পরিস্থিতি যা তাতে ইউটার পক্ষে ৯০ মিনিট খেলা সম্ভব নয়। ফলে মোহনবাগান শিবির চাইছে যেভাবেই হোক ইউতা যেন প্রথম ৪৫ মিনিট মাঠে থাকেন। ফরোয়ার্ডে সম্ভবত ডিকার সঙ্গে শুরু করবেন ক্রোমা। মাঝমাঠে থাকছেন মোহনবাগানের প্রাণভোমরা সোনি নর্ডি। পিছন থেকে আক্রমণে নেতৃত্ব দেবেন তিনি।

[মহিলাদের কবাডি ম্যাচে হিজাব পরে বসে পুরুষ কোচ, তারপর…]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে