১৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ৩০ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

East Bengal: সমস্যা মেটাতে শুক্রবার বিনিয়োগকারী সংস্থা ও ক্লাবকে নিয়ে আলোচনায় বসবেন মধ্যস্থতাকারীরা

Published by: Krishanu Mazumder |    Posted: August 19, 2021 10:41 pm|    Updated: August 20, 2021 12:16 am

Mediators will sit with investor and club to solve the deadlock of East Bengal | SangbadPratidin

দুলাল দে: মিটিং তখন কিছুটা এগিয়েছে। সব পয়েন্ট ছেড়ে ইস্টবেঙ্গলের (East Bengal) কার্যকরী কমিটির সদস্যরা তখন শুধু ক্লাবের ভিতরে নিজেদের জন্য ব্যবহার করার জায়গা নিয়ে আলোচনা করছেন। পাশাপাশি বলা হচ্ছে, প্রাক্তন সচিব আইনজীবী পার্থ সেনগুপ্তর মধ্যস্থতায় লোগো এবং ক্লাব সদস্যদের নিয়ে নিয়মের যে পরিবর্তন আনা হয়েছিল, সেটাও নাকি ইনভেস্টর শ্রী সিমেন্টের শেষ পাঠানো চূড়ান্ত চুক্তিপত্রে ঠিক ভাবে উল্লেখ নেই। এসব নিয়ে যখন আলোচনা হচ্ছে, ঠিক তখনই মিটিংয়ের মাঝপথে ক্লাব এবং শ্রী সিমেন্টের (Shree Cement) মধ্যে আলোচনায় থাকা এক মধ্যস্থতাকারীর ফোন চলে আসে লাল-হলুদের শীর্ষ কর্তার কাছে। তিনি জানান, শুক্রবার ফের তিনি এবং আরেকজন মধ্যস্থতাকারী পুরো বিষয়টা নিয়ে আলোচনায় বসবেন শ্রী সিমেন্ট কর্তৃপক্ষর সঙ্গে। তারপর ইস্টবেঙ্গল কর্তাদের সঙ্গে।

https://www.sangbadpratidin.in/sports/football/atk-mohun-bagan-goalkeeper-arindam-bhattacharya-felt-sorry-after-committing-mistake-in-isl-final/
এবারের আইএসএলে কি দেখা যাবে ইস্টবেঙ্গলকে?

মধ্যস্থতাকারীর পক্ষ থেকে এরকম বার্তা পাওয়ার পরেই বৃহস্পতিবারের ক্লাবের কার্যকরী কমিটির মিটিং মাঝপথে ভেস্তে যায়। ঠিক হয়, শুক্রবার বিকেলে মধ্যস্থতাকারীদের সঙ্গে কথা বলার পরেই সিদ্ধান্ত নেওয়ার জন্য ফের সন্ধ্যা ৭ টায় ক্লাবে এসে মিটিংয়ে বসবেন কার্যকরী কমিটির সদস্যরা।তাহলে কি শুক্রবারেই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত? ঘটনার গতি প্রকৃতি দেখে মনে হচ্ছে, শ্রী সিমেন্ট কিংবা মধ্যস্থতাকারীদের দিক থেকে হয়তো চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত শুক্রবারেই জানিয়ে দেওয়া হবে। কিন্তু লাল-হলুদ কর্তারা কি তারপরই সই করবেন, কী করবেন না, তা নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত শুক্রবারেই নিতে পারবেন? পুরো ঘটনায় অভিজ্ঞমহল মনে করছে, হয়তো সিদ্ধান্তর দিকে চলে যাবেন। কিন্তু শুক্রবারই চুক্তিপত্রে সই হবে কি না, তা নিয়ে এখনই চূড়ান্ত ভাবে কিছু বলা যাচ্ছে না। তবে দু’পক্ষের মধ্যে জট খোলার জন্য হয়তো শুক্রবারই শেষ মিটিং। কারণ, এই মিটিংয়ে শুধু ইস্টবেঙ্গল কর্তারা কিংবা শ্রী সিমেন্ট কর্তৃপক্ষর প্রতিনিধিই থাকছেন না। থাকবেন, রিলায়েন্সের (Reliance) প্রতিনিধিও। ফলে আশা করা যাচ্ছে, যা হওযার শুক্রবার তিন পক্ষর মিটিংয়েই ঠিক হবে।

[আরও পড়ুন: Afghanistan Crisis: ‘তুমি মেয়ে, বাড়ি যাও’, তালিবানের আসল মুখ চেনালেন আফগান সাংবাদিক শবনম]

এদিন ক্লাবের পক্ষে ফুটবল সচিব ,যিনি টার্মশিটে সইয়ের ব্যাপারে একটা বড় ভূমিকা নিয়েছিলেন, সেই সৈকত গঙ্গোপাধ্যায় বললেন, “ মধ্যস্থতাকারীদের পক্ষ থেকে যে ফোনটা এসেছিল, তা যথেষ্ট ইঙ্গিতপূর্ন। আশা করছি, সব সমস্যা মিটে গিয়ে আমরা ফুটবল খেলবো। শুরু যে ভাবে হয়েছিল, তার থেকে এখন অনেকটাই ভাল জায়গায় আসতে পেরেছি আমরা। ছোট যে সমস্যাটুকু আছে, আশা তো করছি, শুক্রবার সেই সমস্যাটুকুও মিটে যাবে।”

ক্লাব কর্তারা যখন মিটিংয়ে বলছেন, “পার্থ সেনগুপ্তর ঠিক করে দেওয়া লোগো এবং সদস্যদের অধিকার নিয়ে পয়েন্টগুলো চুক্তিপত্রে ঠিক ভাবে প্রতিফলিত হয়নি, তখন শ্রী সিমেন্টের আইনজীবীরা খতিয়ে দেখছেন, কোন পয়েন্টগুলো নিয়ে আপত্তির কথা জানাচ্ছেন লাল-হলুদ কর্তারা।

মধ্যস্থতাকারীরাও আশাবাদী, এতগুলো পয়েন্ট নিয়ে যখন একটা সমঝোতায় আসা গিয়েছে, তখন সামান্য এক, দুটি পয়েন্ট নিয়েও ঠিক সমঝোতা হয়ে যাবে।

[আরও পড়ুন: কাল হল নেপথ্যের গুজবই, কাবুলের বিমান থেকে খসে পড়া দুই ভাইয়ের কাহিনি বড়ই বেদনাদায়ক]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে