৩১ ভাদ্র  ১৪২৬  বুধবার ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

৩১ ভাদ্র  ১৪২৬  বুধবার ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ চারে লিভারপুলের কাছে লজ্জাজনক হারের পর ড্রেসিংরুমে ভেঙে পড়েছিলেন লিওনেল মেসি। বার্সেলোনাকে ফাইনালে পৌঁছে দিতে না পাড়ার যন্ত্রণা কুড়ে কুড়ে খাচ্ছে তাঁকে। আর আর্জেন্টাইন তারকার সেই কাটা ঘায়েই এবার নুনের ছিটে দিল মুম্বই পুলিশ। পথচারীদের সচেতন করতে মঙ্গলরাতে বার্সার চূড়ান্ত ব্যর্থতাকেই বেছে নিল তারা। শুধু তাই নয়, লিভারপুল বিমানবন্দরেও বার্সা সমর্থকের রোষের মুখে পড়তে হল এলএম টেনকে।

অ্যানফিল্ডের মাঠে রূপকথার জন্ম দিয়েছিল লিভারপুল। লিগের সেমিফাইনালের প্রথম লেগে ৩-০ গোলে হেরে দ্বিতীয় লেগে ঘরের মাঠে বার্সেলোনাকে ৪-০ গোলে হারিয়ে মাদ্রিদ ফিনালের টিকিট ছিনিয়ে নেন য়ুরগেন ক্লপের ছেলেরা। অ্যাগ্রিগেটে ৪-৩ ফলে জেতে দ্য রেডস। এই নিয়ে পরপর দুবছর চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে গেল লিভারপুল। রূপকথার রাতে হতাশা নিয়েই মাঠ ছাড়েন মেসিরা। এই ম্যাচকে হাতিয়ার করেই এবার জনসাধারণকে পথসচেতনতার পাঠ দিল মুম্বই পুলিশ। টুইটারে লিভারপুলের চতুর্থ তথা শেষ গোলটির ভিডিও পোস্ট করেছে তারা। যে গোলটিই মেসিদের বিদায় নিশ্চিত করে দিয়েছিল। ভিডিওর সঙ্গে মুম্বই পুলিশ লেখে, “হয় ফাইনালে পৌঁছাতে হবে আর নাহলে বাড়ি। অন্যমনস্ক হলেই তার বড় মূল্য চোকাতে হবে।” মুম্বই পুলিশের এমন পোস্টে মন খারাপ মেসি সমর্থকদের।

[আরও পড়ুন: সেমিফাইনালেই শেষ হবে ভারতের বিশ্বকাপ সফর? কী মত কপিল দেবের?]

এদিকে, হারের পর লিভারপুল বিমানবন্দরে বার্সা সমর্থকদের ক্ষোভের মুখে পড়তে হল আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ডকে। ডোপ পরীক্ষার জন্য দলের সঙ্গে বার্সেলোনায় ফিরতে পারেননি মেসি। পরে আলাদা করে পৌঁছান জন লেনন বিমানবন্দরে। আর সেখানেই রোষের মুখে পড়লেন তিনি। মেসিকে দেখেই টিটকিরি দিতে শুরু করেন বার্সা ভক্তরা। তাঁকে লক্ষ্য করে গালিগালাজও করা হয় বলে খবর। এমনকী এক সমর্থকের সঙ্গে বচসাতেও জড়ান মেসি। পরে বার্সা ডিরেক্টর এসে পরিস্থিতি সামাল দেন।

[আরও পড়ুন: মাশরাফিকে নিয়ে বিতর্কিত পোস্টের জের, ৬ চিকিৎসককে শোকজ]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং