Advertisement
Advertisement

Breaking News

FIFA World Cup

‘আর্জেন্টিনাকেই বিশ্বকাপ দিয়ে দিক ফিফা’, মেসির দেশের রেফারি নিয়ে বিস্ফোরক পেপে

গোটা পর্তুগাল দলে ভিলেন এখন আর্জেন্টাইন রেফারি।

FIFA World Cup: They can now give World Cup to Argentina, Pepe slams Argentine referee | Sangbad Pratidin
Published by: Subhajit Mandal
  • Posted:December 11, 2022 12:14 pm
  • Updated:December 11, 2022 12:14 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ফাকুন্দো টেলো। বিশ্বকাপ কোয়ার্টার ফাইনালে মরক্কোর বিরুদ্ধে অপ্রত্যাশিত হারের পর পর্তুগাল শিবিরে এখন খলনায়ক এই আর্জেন্টাইন রেফারি। শনিবার ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোদের (Cristiano Ronaldo) ম্যাচের দায়িত্বে ছিলেন ৪০ বছরের টেলো। ম্যাচ হারের সঙ্গে বিশ্বকাপ থেকে বিদায় ঘটল পর্তুগালের। দাঁড়ি পড়ে গেল সিআর সেভেনের (CR7) কাপ জয়ের স্বপ্নেও। দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে পরিবর্ত হিসেবে মাঠে নেমেও ম্যাচের রং বদলাতে পারলেন না। শেষপর্যন্ত চোখের জলে মাঠ ছাড়তে হল পর্তুগিজ মহাতারকাকে।

হারের সঙ্গে অগ্নিগর্ভ পরিস্থিতি পর্তুগিজ শিবিরে। ব্রুনো ফার্নান্ডেজ থেকে পেপে চাঁচাছোলা ভাষায় আক্রমণ করেছেন রেফারিকে। প্রশ্ন উঠে গিয়েছে পর্তুগাল কোচ ফের্নান্দো স্যান্টোসের (Bruno Fernandes) রোনাল্ডোকে বেঞ্চে বসিয়ে রাখার যৌক্তিকতা নিয়ে। যা নিয়ে স্যান্টোসকে সরাসরি আক্রমণ করেছেন রোনাল্ডোর বান্ধবী জর্জিনা। তবে পর্তুগাল শিবিরের মূল ক্ষোভ ফাকুন্দো টেলোকে (Facundo Tello) ঘিরে। কেন এমন ভাগ্যনির্ধারক ম্যাচের দায়িত্ব একজন আর্জেন্টাইন রেফারিকে দেওয়া হল সরাসরি প্রশ্ন তুলেছে তারা।

Advertisement

[আরও পড়ুন: পেনাল্টি মিসের খেসারত দিলেন কেনরা, মধুর বদলা নিয়ে শেষ চারে দাপুটে ফ্রান্স]

একধাপ এগিয়ে পেপে (Pepe) বলেছেন, “মেসির (Leo Messi) অভিযোগের পরেও আজ কেন আমাদের ম্যাচে আর্জেন্টাইন রেফারি? ম্যাচে যা দেখলাম, তারপর তো ওরা বিশ্বকাপটা (FIFA World Cup) আর্জেন্টিনাকে দিয়ে দিলেই পারে।” জুড়েছেন, “দ্বিতীয়ার্ধে আমাদের ম্যাচে ফেরার সুযোগ কেড়ে নেওয়া হয়েছে। ঘনঘন খেলা থামিয়ে ছন্দ ব্যাহত করেছেন রেফারি। প্রতিপক্ষ সময় নষ্ট করলেও কর্ণপাত করেননি। এমন রেফারিকে দায়িত্বে দেওয়াটা কিছুতেই মানা যায় না।” পেপের সুরে সুর মিলিয়েছেন ব্রুনো ফার্নান্ডেজও। বলেছেন, “ম্যাচে পক্ষপাতিত্বের সম্ভাবনা উড়িয়ে দিচ্ছি না। মরক্কোর (Morocco) জয়কে ছোট করতে চাই না। কিন্তু জানতাম, আমাদের আজ মরক্কোর বাইরেও অনেক কিছুর বিরুদ্ধে লড়তে হবে।”

Advertisement

[আরও পড়ুন: মহানায়কের গৌরব নয়, কাঁটার মুকুটে বিশ্বকাপ থেকে বিষণ্ণ বিদায় রোনাল্ডোর]

প্রসঙ্গত, গ্রুপ পর্বে দক্ষিণ কোরিয়া-পর্তুগাল ম্যাচেও দায়িত্বে ছিলেন এই আর্জেন্টাইন রেফারি। সেই ম্যাচেও হারতে হয়েছিল পর্তুগালকে। মিক্সড জোনে দাঁড়িয়ে রেফারিং নিয়ে সরব হওয়া ব্রুনোকে জোর করে সরিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করছিলেন ফিফার (FIFA) এক আধিকারিক। যদিও তাঁকে পালটা ধাক্কা দিয়ে সরিয়ে দিলেন পর্তুগিজ মিডফিল্ডার। ডিফেন্ডার রুবেন ডিয়াসও মনে করছেন, মরক্কোর বক্সে ব্রুনোকে ফাউল করার জন্য একটা পেনাল্টি প্রাপ্য ছিল। হারের পর ফুটবলারদের মুখে রেফারিং নিয়ে অভিযোগ নতুন নয়। ওদিকে জিতেও রেফারির বিরুদ্ধে মুখ খুলেছেন লিওনেল মেসির মতো তারকা। তবে কি ভুলটা ফিফারই?

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ