BREAKING NEWS

১৫  আষাঢ়  ১৪২৯  শনিবার ২ জুলাই ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

ডার্বির আগে রিপ্লে নয়, জানিয়ে দিল আইএফএ

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: September 3, 2016 8:56 pm|    Updated: September 3, 2016 8:56 pm

No replay match before Derby, says IFA

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ডার্বির আগে রিপ্লে ম্যাচ দেওয়া সম্ভব নয়৷ শনিবার লিগ সাব কমিটির বৈঠকের পর সাফ জানিয়ে দিলেন আইএফএ সচিব উৎপল গঙ্গোপাধ্যায়৷ এদিন সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে আইএফএ সচিব জানান, “নিয়ম মেনেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে৷ সাত দিনের মধ্যে রিপ্লে ম্যাচ দিতেই হবে, এমন কোনও নির্দেশ সেখানে নেই৷ তাই চলতি কলকাতা লিগের ক্রীড়াসূচিতে বদল হবে না৷ আগে যেমনটা বলা হয়েছিল, সেই অনুযায়ী ১৪ সেপ্টেম্বরের পরই টালিগঞ্জ অগ্রগামীর বিরুদ্ধে রিপ্লে ম্যাচ খেলতে হবে মোহনবাগান৷

এদিকে, বাগান কর্তারা আইএফএ-কে লিখিতভাবে জানিয়ে ছিলেন, ডার্বির আগে রিপ্লে ম্যাচ না দিলে তাঁরা ৭ সেপ্টেম্বর কল্যাণীতে ডার্বি খেলবেন না৷ আইএফএ-র এই ঘোষণার পর বাগান কী সিদ্ধান্ত নেয়, এবার সেদিকেই তাকিয়ে ময়দান৷ তবে উৎপল গঙ্গোপাধ্যায়ের বিশ্বাস, সমর্থকদের কথা ভেবে নিশ্চয়ই খেলতে রাজি হবে গঙ্গাপারের ক্লাব৷

তবে ডার্বির আগে সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং সাইটে হুমকি নিয়ে মোহনবাগান দারুণ চিন্তিত৷ দীপেন কর্মকার নামে এক ইস্টবেঙ্গল সমর্থক স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছেন, কল্যাণীতে ডার্বি হওয়ার সময় ১৬ আগস্টের স্মৃতি ফিরিয়ে আনবেন৷ স্পষ্টতই হুমকি দিয়েছেন মৃত্যুর৷ ফলে মোহনবাগান কর্তারা এ বিষয়ে দারুণ চিন্তিত৷ যেহেতু, কলকাতা পুলিশের যুগ্ম কমিশনার (ক্রাইম) বিশাল গর্গ খোঁজ নিয়ে দেখেছেন দীপেনের বাড়ি নৈহাটিতে৷ কলকাতা থেকে যেসব মোহনবাগান কর্তারা কল্যাণী যাবেন তাঁদের প্রত্যেককেই নৈহাটির উপর দিয়ে যেতে হবে৷ ফলে, মৃত্যু ভয় যেন জাঁকিয়ে বসেছে মোহনবাগান অফিসিয়ালদের হৃদয়ে৷ অর্থসচিব দেবাশিস দত্ত স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন, “এমনিতেই ডার্বি হওয়া নিয়ে আমরা চিন্তায় ছিলাম৷ তার উপর এই হুমকি আমাদের দারুণ সমস্যায় ফেলে দিল৷ বহু ক্লাব সদস্য সকাল থেকে আমাদের ফোন করে জানিয়েছে, তারা নির্ভয়ে কল্যাণী যেতে পারছে না৷ যদি কোনও অঘটন ঘটে তাহলে তার দায়িত্ব নেবে কে? সুতরাং আমাদের পক্ষে কল্যাণীতে খেলা নিয়ে পাঁচবার ভাবতে হচ্ছে৷”

ইস্টবেঙ্গল সমর্থকের নিন্দা করে এদিন আইএফএ সচিব বলেন, এরা ফুটবল সমর্থক নয়৷ আমি পুলিশকে এ বিষয়ে চিঠি দেব৷ এবং চাইব এ ধরনের সমর্থকদের যেন শাস্তি হয়৷ তবে কল্যাণীর নিরাপত্তা নিয়ে চিন্তিত নন তিনি৷ জানান, পুলিশ ও পিডব্লিউডি থেকে সার্টিফিকেট নিয়েই ম্যাচের আয়োজন করা হচ্ছে৷ বিপদ এড়াতে দর্শক সংখ্যাও কম রাখা হচ্ছে৷ আগামী কাল থেকেই ডার্বির টিকিট বিক্রি শুরু হতে পারে৷ কিন্তু ডার্বি খেলতে কি রাজি হবে মোহনবাগান? সেটাই এখন লাখ টাকার প্রশ্ন৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে