১১ বৈশাখ  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ২৫ এপ্রিল ২০১৯ 

Menu Logo নির্বাচন ‘১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও #IPL12 ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: শুরু হওয়ার আগেই বাতিল হয়ে গেল পর্বতারোহী সত্যরূপ সিদ্ধান্তের সুমেরু অভিযান। খারাপ আবহাওয়া এবং তার সঙ্গে আচমকাই বিমানচালকের লাইসেন্স বাতিল হয়ে যাওয়ার দরুন বাতিল হয়ে গেল অভিযান। শুক্রবার রাতে এই অভিযান বাতিলের কথা জানিয়ে দেয় সত্যরূপের এজেন্সি। ফলত, এযাত্রায় এক্সপ্লোরার্স গ্র্যান্ড স্লাম সম্পূর্ণ করার অনন্য নজির স্থাপন আর হল না বিশ্বরেকর্ডধারী বাংলার পর্বতারোহীর। আগামী ১৬ এপ্রিল দেশে ফিরছেন এভারেস্টজয়ী পর্বতারোহী।

জানা গিয়েছে, নরওয়ের লংইয়ারবেন শহর থেকে বিশেষ বিমানে বার্নিয়ো আইস ক্যাম্প যা কিনা রাশিয়ার অংশ, হয়ে সুমেরু যাওয়ার কথা ছিল সত্যরূপ-সহ আরও অন্যান্য অভিযাত্রীদের। বিমানের পাইলট ছিলেন ইউক্রেনের দুইজন। কিন্তু গত ২ এপ্রিল লংইয়ারবেন শহরে পৌঁছনোর কয়েকদিন পর অভিযাত্রীরা জানতে পারেন ওই চালকদের লাইসেন্স বাতিল হয়ে গিয়েছে। এছাড়াও ৮০ ডিগ্রি অক্ষাংশের উপর দিয়ে এই ধরনের বিশেষ বিমান ওড়ানোর ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে ইউক্রেন সরকার। ফলে সাময়িকভাবে আটকে যায় অভিযান। এরপর বহু আলোচনা-বৈঠকের পর কানাডা থেকে ছোট বাসলার বিমান আনিয়ে অভিযান শুরুর পরিকল্পনা করা হয়। কিন্তু শুক্রবার বিকেলে তাতে জল ঢেলে দেয় প্রকৃতি। অভিযানে বাদ সাধে প্রতিকূল আবহাওয়া। যার জেরে এবারের মতো বাতিল হয়ে যায় সুমেরু অভিযান। খারাপ আবহাওয়ায় বার্নিয়োয় বরফের রানওয়েতে নামার সময় বিমান ভেঙে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে। তাই এবছরের মতো অভিযান বাতিল করার কথা জানিয়ে দেয় এজেন্সি।

প্রসঙ্গত, গত ৩১ মার্চ এক্সপ্লোরার্স গ্র্যান্ড স্লাম (সপ্তশৃঙ্গ ও দুই মেরু) খেতাব জয়ের লক্ষ্যে বিশ্বরেকর্ডধারী পর্বতারোহী সত্যরূপ সিদ্ধান্ত নরওয়ের উদ্দেশে রওনা দেন। ৮৯ ডিগ্রি উত্তর অক্ষাংশ থেকে লাস্ট ডিগ্রি স্কি করে (প্রায় ১১১ কিমি) সুমেরু পৌঁছনোই ছিল অভিযানের লক্ষ্য। কিন্তু শুরুতেই হোঁচট খায় সত্যরূপের লক্ষ্য। বিমান-বিভ্রাটের জেরে নরওয়ের রাজধানী অসলোয় পৌঁছতে বাধা পান তিনি। লংইয়ারবেন পৌঁছনোর পর থেকে অভিযান ঘিরে অনিশ্চয়তা দেখা দেয়। সত্যরূপের মতো আরও অনেক দেশের ৯০ জন অভিযাত্রী, ৫০ জন ম্যারাথন যাত্রী এবং পর্যটকরা অপেক্ষারত ছিলেন ওই শহরে। সত্যরূপ জানিয়েছেন, এদিন তিনি দেরি করে ঘুম থেকে উঠে দেখেন প্রচুর মেসেজ এসেছে তাঁর হোয়াটসঅ্যাপে। অভিযান ঘিরে দোলাচল বুঝে ঠিক করেন, তখনই বেরিয়ে পড়বেন। কিন্তু তার কিছুক্ষণ পর তাঁকে জানিয়ে দেওয়া হয়, অভিযান বাতিল করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, বিশ্ব উষ্ণায়নের জেরে কানাডার দিক থেকে সুমেরু অভিযান আগেই বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। তাই অভিযাত্রীদের সবেধন নীলমণি এখন নরওয়ের দিক থেকে যাত্রা। তাতেও যদি বাদ সাধে খারাপ আবহাওয়া, সেক্ষেত্রে অভিযানের ভবিষ্যৎ নিয়ে উঠছে প্রশ্ন। আগামী বছর অভিযান শুরু হলে অভিযানের খরচের একটা বড় অংশ ফেরত দিতে হবে অভিযাত্রীদের। তবে পরের বছর অভিযানের বিষয়ে আশাবাদী সত্যরূপ।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং