BREAKING NEWS

১১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৯  সোমবার ২৮ নভেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

অ্যাডিলেডে ইতিহাস গড়েও মাঠের বাইরে উচ্ছ্বাস দেখালেন না কোহলিরা

Published by: Tanumoy Ghosal |    Posted: December 11, 2018 10:16 am|    Updated: December 11, 2018 10:22 am

Team India focused on second test

দেবাশিস সেন, অ্যাডিলেড: অ্যাডিলেড ওভালে ঐতিহাসিক টেস্ট জয়ের পর ভারতীয় সংসারে কী কী ঘটল?

জশ হ্যাজেলউড বধের পর নিজের উত্তেজিত তর্জন-গর্জন নিশ্চয়ই ধরে রাখলেন বিরাট কোহলি? দুঃখিত।রাখেননি। ভারতীয় টিম মাঠে উপস্থিত তেরঙ্গা সমর্থকদের উৎসবের সঙ্গে মিশে গেল না? না, যায়নি। চেতেশ্বর পুজারার মতো কেউ কেউ ড্রেসিংরুমে ঢোকার সময় ছুটকো অটোগ্রাফ দিলেন শুধু। কিন্তু তার চেয়ে বেশি নয়। অনুষ্কা শর্মা? ভারতীয় ক্রিকেটের ফার্স্ট লেডি তো হাজির ছিলেন অ্যাডিলেড গ্যালারিতে। চিরস্মরণীয় জয়ের পর ‘বিরুষ্কা’ কিছু রোম্যান্টিক ফ্রেম উপহার দিলেন না?না, দিলেন না।

[অ্যাডিলেডে রেকর্ড ঋষভের, ভারত জিতলেও মন খারাপ ইশান্তের]

অস্ট্রেলিয়ায় এই প্রথম কোনও ভারতীয় টিম সিরিজের প্রথম টেস্ট জিতে লিড নিয়ে শুরু করল। অথচ আশ্চর্যজনক ভাবে সেই গৌরবের পরেও টিম সংযত থেকে গেল! মাঠে হয়েছে, টেস্ট জয়ের মুহূর্তে ভাল রকম হয়েছে। অসীম উল্লাসে ভারত অধিনায়কের মুষ্টিবব্ধ হাত ছোড়া, বন্য চিৎকারে সতীর্থদের উপর ঝাঁপিয়ে পড়া-সব হয়েছে। সবচেয়ে তাৎপর্যের, রবিচন্দ্রন অশ্বিনের সঙ্গে কোহলির উত্তেজিত বহিঃপ্রকাশের যুগলবন্দি দেখা গিয়েছে। চার বছর আগে এই অশ্বিনকে বাদ দিয়েই অ্যাডিলেডে নেমেছিলেন অধিনায়ক বিরাট। চার বছর পরের অ্যাডিলেডে সেই অশ্বিনের হাত ধরেই জয়ের উইকেট এল। কিন্তু অবাক হল, উৎসব মুখবন্ধে এত আশাবাদ সত্ত্বেও পরের দিকে আর তেমন কিছুই হল না।

শোনা গেল, টিম ম্যানেজমেন্ট থেকে নাকি প্লেয়ারদের বলে দেওয়া হয়েছে একটা টেস্ট জিতে উৎসব নয়। মাত্র একটা টেস্টই জিতেছে টিম, সিরিজ নয়। সাংবাদিক সম্মেলনে এসে কোহলি বলে গেলেন যে, জয়ের মূহূর্তে তাঁর পক্ষে নিজেকে শান্ত রাখা সম্ভব হয়নি। আবেগে কিছুটা ভেসে গিয়েছিলেন। কিন্তু সঙ্গে এটাও বলে যান যে, সিরিজ সবে শুরু হয়েছে। “এ রকম আগেও আমরা একটা টেস্ট বিদেশে জিতেছি। কিন্তু শেষটা ভাল আর করতে পারিনি। তাই সংযত থাকতে হবে,” বলছিলেন বিরাট। আর ভারতীয় টিম যে মোটেও ছুটকো একটা টেস্ট জয়কে পাখির চোখ করে ডনের দেশে আসেনি, তা বোঝা গেল বিরাটের সাংবাদিক সম্মেলন শেষ হওয়ার কিছু পর। দেখা গেল, মাঠে নেমে পড়েছেন লোকেশ রাহুল। সঙ্গী টিমের সহকারী কোচ সঞ্জয় বাঙ্গার। অ্যাডিলেডে ভারত জিতেছে ঠিকই। কিন্তু ওপেনাররা দুর্ধর্ষ পারফর্ম করেছেন বলা যাবে না। রাহুল দ্বিতীয় ইনিংসে গোটা চল্লিশেক করেছেন বটে। কিন্তু টিম তাঁর কাছ থেকে আরও বড় রান চাইছে। সোজাসুজি বললে, পারথে টিম আরও নিরঙ্কুশ ভাবে জিততে চাইছে। টেনশন ফ্রি ভাবে জিততে চাইছে। সোমবার  গ্যালারিতে বসে অনুষ্কা শর্মা পর্যন্ত প্রবল টেনশনে পড়ে গিয়েছিলেন। শেষ উইকেটে নাথন লায়ন আর জশ হ্যাজেলউড একটু একটু করে টার্গেট কমিয়ে আনছেন যখন, কোহলিকে দেখা গেল অস্থির হয়ে পড়তে। বোলার লাইন-লেংথে ভুলভ্রান্তি করলে রেগে যেতে। একই টেনশনে ভুগতে দেখা যাচ্ছিল গ্যালারিতে বসা অনুষ্কাকেও। মুখচোখ থমথমে করে চুপচাপ বসে। হাতের মোবাইল চেপে ধরে। পরে ভারত জিতে যাওয়ার পর অনুষ্কাকে দেখা গেল উঠে দাঁড়িয়ে হাততালি দিতে। 

[ কোহলির ‘বিরাট’ ভক্ত এই অজি খুদে, টেস্ট দেখতে হাজির অ্যাডিলেডে]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে