BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

নিয়মভঙ্গে আইসিসি-র কোপে বিরাট, কাটা গেল ম্যাচ ফি

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: January 16, 2018 10:58 am|    Updated: January 16, 2018 10:58 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ১৫৩ রানের বিরাট ইনিংস খেলে একাই দলকে লড়াইয়ের অক্সিজেন দিয়েছেন ক্যাপ্টেন কোহলি। কিন্তু সেদিনই আইসিসি-র নিয়মভঙ্গের অভিযোগ উঠল তাঁর বিরুদ্ধে। যার জেরে ২৫ শতাংশ ম্যাচ ফি এবং ভুলের শাস্তি হিসেবে এক পয়েন্ট কেটে নেওয়া হচ্ছে ভারত অধিনায়কের।

[কোহলির ব্যাটে ভর করে প্রোটিয়াদের জবাব ভারতের]

একেতেই দল বাছাই নিয়ে প্রাক্তনদের তোপের মুখে অধিনায়ক। তার উপর কাটা গেল ম্যাচ ফিও। ঘটনা সেঞ্চুরিয়ন টেস্টের তৃতীয় দিনের। দক্ষিণ আফ্রিকার দ্বিতীয় ইনিংসের ২৫তম ওভার চলছিল। তখনই ফিল্ড আম্পায়ার মাইকেল গগকে লাগাতার বলের অবস্থা নিয়ে অভিযোগ জানাচ্ছিলেন বিরাট। তাঁর বক্তব্য ছিল, বৃষ্টির কারণে স্যাঁতস্যাঁতে আউটফিল্ডের জন্য বল অনেকটাই ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। তাই এই বল দিয়ে খেলা সম্ভব হচ্ছে না বলে জানান তিনি। পাশাপাশি দুই অনফিল্ড আম্পায়ার গগ, পল রিফেল এবং তৃতীয় ও চতুর্থ আম্পায়ার কেটলবোরো ও আলাহুদ্দিন পালেকর বলছেন, বল নিয়ে অভিযোগ করার পর অত্যন্ত ‘আগ্রাসীভাবে’ বলটি মাঠে ফেলে দেন বিরাট। আর সেই কারণেই তাঁর বিরুদ্ধে আইসিসি-র লেভেল ওয়ান নিয়মভঙ্গের অভিযোগ উঠেছে। তবে পরে নিজের ভুল স্বীকার করে নিয়েছেন বিরাট। সেই সঙ্গে ম্যাচ রেফারি ক্রিস ব্রডের দেওয়া শাস্তিও মেনে নিয়েছেন। তাই আলাদা করে এ নিয়ে শুনানির প্রয়োজন হবে না বলে খবর।

[চোটের কারণে দেশে ফিরছেন ঋদ্ধি, দলে ঢুকছেন কার্তিক]

কোনও ক্রিকেটার আইসিসি-র এই লেভেল ওয়ান নিয়মভঙ্গ করলে কমপক্ষে ২৫ শতাংশ ও সর্বোচ্চ ৫০ শতাংশ ম্যাচ ফি কাটা যেতে পারে। সঙ্গে ভুলের শাস্তি হিসেবে কাটা যায় এক অথবা দু’পয়েন্ট। এক্ষেত্রে বিরাটকে সর্বনিম্ন শাস্তিই দেওয়া হয়েছে। বৃষ্টির কারণে আলো কমে যাওয়ায় ৫.১ ওভার আগেই তৃতীয় দিনের খেলা হয়ে যায়। স্বাভাবিকভাবেই সেই পরিস্থিতি কাজে লাগানোর চেষ্টা করছিলেন ভারত অধিনায়ক। তখনই তিনি লাগাতার বল নিয়ে নালিশ জানাচ্ছিলেন আম্পায়ারকে। ম্যাচের পর বুমরাহও জানান, “বল ভিজে থাকায় তা সুইং করছিল না। এমন পরিস্থিতিতে কী করা উচিত তা নিয়ে আম্পায়ারের সঙ্গে আমরা আলোচনা করছিলাম।” আর তাতেই শাস্তির মুখে পড়তে হল বিরাটকে।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement