১ আশ্বিন  ১৪২৫  মঙ্গলবার ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮  |  পুজোর বাকি আর ২৮ দিন

মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও রাশিয়ায় মহারণ ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: নিউল্যান্ডসের পিচে মুখ থুবড়ে পড়েছিলেন ভারতীয় ওপেনাররা। অজিঙ্ক রাহানেকে দলে না রাখা নিয়ে ক্রিকেটমহলে প্রশ্ন উঠেছিল। দ্বিতীয় টেস্টে মাঠে নামার আগে তাই নতুন করে দল সাজানোর পথেই হাঁটতে চলেছেন অধিনায়ক বিরাট কোহলি।

[মাস্টার ব্লাস্টার নন, ছেলে অর্জুনের রোল মডেল অন্য দুই ক্রিকেটার]

বিদেশের মাটিতে শিখর ধাওয়ান ও রোহিত শর্মার পারফরম্যান্সের গ্রাফ একেবারেই নজরকাড়া নয়। সেখানে রাহানে ও লোকেশ রাহুল অনেক বেশি সাফল্য পেয়েছেন। অথচ প্রথম টেস্টে দু’জনকে দলের বাইরেই রেখেছিল ভারতীয় টিম ম্যানেজমেন্ট। যার ফল মোটেও সুখকর হয়নি। প্রোটিয়াদের বিরুদ্ধে পেসার ও স্পিনাররা লেটার মার্কস নিয়ে উত্তীর্ণ হলেও ভারতীয় ব্যাটিং অর্ডার দলকে লজ্জায় ফেলেছে। একমাত্র হার্দিক পাণ্ডিয়া ছাড়া কেউই ক্রিজে টিকতে পারেননি। আর তাই শুক্রবার বিরাটের গলায় শোনা গেল দল পরিবর্তনের কথা। আগেই খবর ছিল, সেঞ্চুরিয়নে ছয় ব্যাটসম্যানকে খেলানো হবে। ফিরবেন রাহানে ও রাহুল। সেক্ষেত্রে বাদ পড়তে পারেন ধাওয়ান ও অশ্বিন। অর্থাৎ ওপেনিং কম্বিনেশনে যে বদল আসছে, সে ইঙ্গিত আগেই মিলেছিল। এদিন বিরাটের কথায় তা আরও স্পষ্ট হল। অনুশীলনের আগে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে ক্যাপ্টেন কোহলি জানান, “শনিবার দ্বিতীয় টেস্টে আমাদের ওপেনিং কম্বিনেশন কী হবে তা প্র্যাকটিকের পরই ঠিক করব। তবে ব্যাটিং লাইন-আপ নিয়ে অযথা ভয় পাওয়ার কোনও কারণ আছে বলে মনে হয় না। পাঁচ না ছয় ব্যাটসম্যান খেলানো হবে, সেটাও এখনও ঠিক হয়নি। তবে প্রতিটি ব্যাটসম্যানকেই নিজের সেরাটা দিতে হবে। বিপক্ষের বোলিংয়ের সামনে রুখে দাঁড়াতেই হবে।” যদিও রাহানে দলে ফিরছেন কিনা সে বিষয়টি স্পষ্ট করেননি ভারত নেতা। উলটে বললেন, “প্রথম ম্যাচের আগে অনেকেই রাহানেকে দলে না রাখার কথাই বলেছিলেন। এখন তাঁরাই উলটো বলছেন। তবে এখনও প্রথম একাদশ ঠিক করা হয়নি।”

বিদেশের মাটিতে ধাওয়ান ও রোহিতের পরিসংখ্যান ঘাঁটলে দেখা যাবে, ভারতের বাইরে মাত্র একখানি সেঞ্চুরি করেছেন ধাওয়ান। আর বিদেশে ১৫ টেস্টে রোহিতের গড় মাত্র ২৫.১১। উলটো দিকে লোকেশ রাহুলের চারটি টেস্ট শতরানের মধ্যে তিনটিই বিদেশে। রাহানের গ্রাফও প্রশংসনীয়। দেশের বাইরে ছ’টি সেঞ্চুরি ও ন’টি হাফ-সেঞ্চুরি রয়েছে তাঁর ঝুলিতে। ধাওয়ানের খারাপ পারফরম্যান্সের প্রসঙ্গে বিরাটের বক্তব্য, “দক্ষিণ আফ্রিকার বাউন্স কাউকেই অবাক করে না। এই উইকেটও বাউন্সি হবে। প্রথম টেস্টে পরিস্থিতিটা বুঝতে সময় লেগেছে। তবে এবার এমন পরিস্থিতির জন্য আমরা প্রস্তুত।”

[২০৮ রান তাড়া করতে না পারার অজুহাত হয় না, বিরাটদের তোপ শ্রীকান্তর]

দেখুন ভিডিও:

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং