BREAKING NEWS

৪ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

দ্রুত শিল্পায়নের লক্ষ্যে বোর্ড গঠন মুখ্যমন্ত্রীর

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: July 20, 2016 9:31 am|    Updated: July 20, 2016 10:01 am

An Images

স্টাফ রিপোর্টার: শিল্পায়ানের স্বার্থে এক জানালা পদ্ধতি চালু করল রাজ্য সরকার৷

সরকারের দ্বিতীয় ইনিংসে রাজ্যে শিল্পায়নই যে তাঁর পাখির চোখ তা আগেই জানিয়ে দিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ মিলন মেলায় বিশ্ব বাংলা সম্মেলনের মঞ্চে দাঁড়িয়ে শিল্পায়নের স্বার্থে রাজ্যে যত দ্রূত সম্ভব ‘এক জানালা পদ্ধতি’ চালু করা হবে৷ মঙ্গলবার নবান্নে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ঘোষণা করেন  দ্রূত শিল্পায়নের স্বার্থে তৈরি হল ‘ইন্ডাস্ট্রিয়াল প্রমোশনাল বোর্ড’৷ তাঁর কথায় “শিল্পের সঙ্গে যুক্ত সব দফতরগুলিকে নিয়ে এই নতুন প্রমোশনাল বোর্ড তৈরি করা হয়েছে৷ নতুন বোর্ডের চেয়ারম্যান হিসাবে নিযুক্ত করা হল প্রাক্তন তথ্য-প্রযুক্তি সচিব কে সিদ্ধার্থ৷ বোর্ডের দুই উপদেষ্টা হিসাবে কাজ করবেন অর্থ ও শিল্প দফতরের মন্ত্রী অমিত মিত্র ও মুখ্যসচিব বাসুদেব বন্দ্যোপাধ্যায়৷ বোর্ডের নিজস্ব ওয়েবসাইট তৈরি হয়েছে৷ এ ছাড়াও শিল্প, অর্থ, খাদ্য-প্রক্রিয়াকরণ, ক্ষুদ্র, কু্টির শিল্প, ভূমি ও ভূমি রাজস্ব, তথ্য-প্রযুক্তি, পর্যটন, পরিবহণ দফতরের প্রধাণ সচিব এই কমিটির সদস্য৷”

মুখ্যমন্ত্রীর কথায়, প্রতি সপ্তাহের শনিবার নতুন কমিটি বৈঠকে বসে কাজের অগ্রগতির রিপোর্ট তৈরি করে মুখ্যমন্ত্রীকে রিপোর্ট জমা দেবে৷ এদিকে এদিন মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, আগামী বছরের বিশ্ববঙ্গ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে জানুয়ারির ১৯ ও ২০ তারিখ৷ সম্মেলনে উদ্বোধন করার জন্য রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়কে ইতিমধ্যেই আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে৷ নবান্ন সূত্রে খবর, এই বিশ্ববাংলা মঞ্চ থেকেই শিল্পায়ন যাতে পূর্ণ গতিতে এগিয়ে চলে তার জন্য এখন থেকেই কোমর বেঁধেছে রাজ্য সরকার৷ এই লক্ষ্যে একাধিক পদক্ষেপ চূড়ান্ত৷ যার অন্যতম হল রাজ্যে একটি আন্তর্জাতিক সম্মেলন গৃহ বা সেন্টার অফ এক্সলেন্স তৈরি করা৷ মুখ্যমন্ত্রী বলেছেন, “অন্তত একশোটি হোটেল এই আন্তর্জাতিক সম্মেলন গৃহের সঙ্গে যুক্ত করা হবে৷ যাতে বিশ্ববঙ্গ সম্মেলনে আগত অতিথিদের আর অন্যত্র থাকতে না হয়৷” নবান্ন সূত্রে খবর বেসরকারি সংস্থা প্রস্তাবিত ‘আন্তর্জাতিক কনভেনশন কেন্দ্র’ তৈরির কাজ শুরু করেছে৷ অর্থমন্ত্রী অমিত মিত্র বলেন, দু’বছরের মধ্যে এই প্রকল্প সম্পূর্ণ হবে৷”

বস্তুত,  এদিন নবান্নে মুখ্যমন্ত্রীর পৌরহিত্যে অর্থমন্ত্রী অমিত মিত্র, মুখ্যসচিব বাসুদেব বন্দ্যোপাধ্যায়-সহ শিল্প ও অর্থ দফতরের আধিকারিকদের বৈঠকে এই বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়৷ এদিন এক প্রশ্নের উত্তরে মুখ্যমন্ত্রী বলেন,  মার্কিন প্রশাসনের নতুন নিয়মে রাজ্যের যেসব যুবক-যুবতী ভিসা সমস্যায় চাকরি থেকে অব্যাহতি নিয়ে রাজ্যে ফিরে আসবেন তাঁদের যাতে কোনও ব্যবস্থা করা যায় তার ব্যবস্থা করবে রাজ্য সরকার৷

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement