BREAKING NEWS

৭ আশ্বিন  ১৪২৭  বুধবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

যাদবপুরের ছাত্রীদের পোশাক ‘রুমালের মতো’, মন্তব্য মন্ত্রী সুব্রতর

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: August 14, 2016 5:07 pm|    Updated: August 14, 2016 5:08 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ক’দিন আগেই বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়াশোনার মান কমে গিয়েছিল বলে মন্তব্য করেছিলেন৷ এবার আঙুল তুললেন বিশ্ববিদ্যালয়ের সংস্কৃতির দিকে৷ মিছিলের নামে ছাত্র-ছাত্রীরা যা করেন এবং ছাত্রীদের খাটো পোশাক পরা নিয়ে তীব্র অসন্তোষ প্রকাশ করলেন সুব্রত মুখোপাধ্যায়৷

গত শুক্রবার যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াশোনার মান এতটাই নেমে গিয়েছে যে তা অন্তত বছর তিনেক বন্ধ থাকা উচিত বলে মন্তব্য করেছিলেন তিনি৷ তাঁর মতে, এককালে যাদবপুর থেকে পড়াশোনা করতে না পারলে আফশোস হত৷ তবে সে যাদবপুর আর নেই বলেই অভিমত ছিল তাঁর৷ বর্ষিয়ান সুব্রতবাবুর এ মন্তব্যের পর চারিদিকে সমালোচনার ঝড় ওঠে৷ রাজ্যের পাঁচতারা বিশ্ববিদ্যালয় সম্পর্কে মন্ত্রীর এ উক্তিকে ভাল চোখে নেননি অনেকেই৷ কিন্তু নিজের মন্তব্যে অটল ছিলেন তিনি৷ বরং এদিন আক্রমণের মাত্রা একধাপ চড়িয়ে আঙুল তুললনে বিশ্ববিদ্যালয়ের সংস্কৃতির প্রতি৷ তাঁর মতে ক্যাম্পাসের ভিতর ছাত্র-ছাত্রীরা যা করে বেড়ান তা কহতব্য নয়৷ ‘‘আমি আন্দোলনের বিরোধী নই, কিন্তু তা যেন আমাদের সভ্যতা, সংস্কৃতির মধ্যে থাকে৷ ভিতরে যেটা হয় সেটা আমি মাইকে বলতে পারব না৷,’’ এদিন এমনই আক্রমণাত্মক মন্তব্য করেন সুব্রতবাবু৷ এরপর ছাত্রীদের পোশাক নিয়েও সমালোচনা করেন তিনি৷ তাঁর মতে ‘রুমালের মতো’ কাপড় পরা আমাদের সংস্কৃতির পরিপন্থী৷ শাড়ি না পরলেও অন্তত সংস্কৃতি বজায় রাখার মতো পোশাক পরতে আর্জি জানান তিনি৷

প্রসঙ্গত, যাদবপুরের ছাত্রীদের পোশাক নিয়ে মন্তব্য করে সমালোচনার মুখে পড়েছিলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ৷ রাজনৈতিক মতাদর্শে মিল না থাকলেও যাদবপুর প্রসঙ্গে তাঁর সঙ্গে একরকম সহমতই যেন পোষণ করলেন সুব্রতবাবু৷

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement