১৬ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  শুক্রবার ৩ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

আফগানিস্তানে অপহৃত ৬ ভারতীয়, সন্দেহে তালিবান জঙ্গিগোষ্ঠী

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: May 6, 2018 8:46 pm|    Updated: May 6, 2018 8:57 pm

6 Indian kidnapped in Afghanistan

ছবি: প্রতীকী

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আফগানিস্তান থেকে নিখোঁজ হল ৬ ভারতীয়। আফগান পুলিশের সন্দেহ তাদের অপহরণ করা হয়েছে। তালিবান জঙ্গিগোষ্ঠী তাদের অপহরণ করেছে বলে অনুমান।

রবিবার আফগানিস্তানের বাঘলান এলাকা থেকে তাদের অপহরণ করা হয়। তাঁরা প্রত্যেকেই ভারতীয় ইনফ্রাস্ট্রাকটার কোম্পানি কেইসি-র কর্মী। পেশায় ইঞ্জিনিয়ার। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, তাঁদের এখনও কোনও খবর পাওয়া যায়নি। মেলেনি কোনও সূত্রও।

[ সার্ভিস রিভলবার থেকে ৩ সহকর্মীকে খুন করে আত্মঘাতী বিএসএফ জওয়ান ]

রিপোর্টে প্রকাশ, শুধু ছয় ভারতীয় নয়। তাঁদের সঙ্গে আফগানিস্তানের একজনকেও অপহরণ করা হয়েছে। দেশের পুল-ই-খোমরে শহরের বাঘ-ই-শামল থেকে এই সাতজনকে অপহরণ করা হয়েছে বলে খবর। সূত্রের খবর, প্রয়োজনীয় বিভাগগুলির সঙ্গে যোগাযোগ রাখার চেষ্টা করছে পুলিশ। সেই সঙ্গে কেইসির উচ্চপদস্থ কর্তাদের সঙ্গেও যোগাযোগ রাখা হচ্ছে।

ভারতের বিদেশমন্ত্রক জানিয়েছে, কাবুলে ভারতীয় দূতাবাসের সঙ্গে যোগাযোগ রাখছে তারা। পাশাপাশি ঘটনার বিস্তারিত জানারও চেষ্টা চলছে। সংবাদমাধ্যমে প্রকাশ, অপহরণের ঘটনাস্থল খতিয়ে দেখা হচ্ছে। এখনও কোনও দল অপহরণের দায় স্বীকার করেনি। কিন্তু বাঘলানের পুলিশ মনে করছে ঘটনার পিছনে জঙ্গিগোষ্ঠী তালিবানের হাত রয়েছে।

[ জীবিত কর্মীকেই শহিদ বলে প্রচার, কর্নাটকে বিপাকে বিজেপি ]

আফগানিস্তানে ভারতীয়দের অপহরণের ফের একবার ইরাকের স্মৃতি উসকে দিল। ইরাকে ২০১৪ সালে ৩৯ জন ভারতীয়কে অপহরণ করা হয়েছিল। মাস দুই আগে তাদের মৃত্যুর খবর প্রকাশ্যে আসে। ভারতের বিদেশমন্ত্রকের তরফ থেকে জানানো হয়, ইরাকে মেরে ফেলা হয়েছে ওই ৩৯ ভারতীয়কে। ঘটনায় ইসলামিক স্টেটের হাত ছিল বলে জানানো হয়। সেখানেই তাঁদের গণকবর দেওয়া হয়েছিল। ভারত সরকারের তরফ থেকে তাঁদের দেহাবশেষ দেশে ফিরিয়ে আনা হয়। আফগানিস্তানে ভারতীয় ইঞ্জিনিয়ারদের অপহরণের খবর এই ঘটনাকেই মনে পড়িয়ে দিল। তবে আফগান পুলিশ বিষয়টি খতিয়ে দেখছে বলে আশ্বাস দিয়েছে।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে