Advertisement
Advertisement
Ukraine

রাশিয়ায় ড্রোন হামলায় ইউক্রেনে মৃত ৮, অস্ত্র পেলে রোখা যেত মৃত্যু, ক্ষোভ জেলেনস্কির

ফের ইউক্রেনের বন্দরনগরী ওডেসায় আঘাত হানল রাশিয়া।

8 dead as Russian drone hits residential building in Ukraine
Published by: Suchinta Pal Chowdhury
  • Posted:March 4, 2024 11:10 am
  • Updated:March 5, 2024 6:01 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ফের ইউক্রেনের বন্দরনগরী ওডেসায় আঘাত হানল রাশিয়া। রুশ বাহিনীর ড্রোন হামলায় ধূলিসাৎ হয়ে গেল বহুতল। প্রাণ হারিয়েছেন কমপক্ষে ৮ জন। মৃতদের মধ্যে রয়েছে ২ শিশুও। এই প্রাণহানির জন্য অস্ত্র সরবরাহের বিলম্ব হওয়াকেই দুষলেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোডিমির জেলেনস্কি। সঠিক সময়ে অস্ত্র পেলে এই হামলা ঠেকানো যেত বলে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন তিনি।

দুবছর পূর্ণ হয়ে গিয়েছে রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের। হামলা-পালটা আক্রমণে এখনও বজায় রয়েছে লড়াইয়ের ঝাঁজ। গত কয়েকমাসে ইউক্রেনে হামলার ধার বাড়িয়েছে মস্কো। গত শনিবার ওডেসায় আঘাত হানে রুশ ড্রোন। এনিয়ে ওডেসার স্থানীয় গভর্নর ওলেহ কিপের জানান, এই ঘটনায় শিশু ও বয়স্ক-সহ ৮ জন প্রাণ হারিয়েছেন। আহত হয়েছেন ৮ জন। হামলায় ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে আরও ১৮টি বহুতল।

Advertisement

[আরও পড়ুন: থামল ট্রাম্পের জয়রথ, প্রথমবার প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী নির্বাচনে জয়ী ভারতীয় বংশোদ্ভূত নিকি]

রুশ বাহিনীর এই হামলা নিয়ে ক্ষোভ উগরে ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি বলেছেন, “ওদের কোনও সামরিক বুদ্ধি নেই। মানুষকে হত্যা করা ও ভয় দেখানই ওদের কাজ। গোটা দুনিয়া জানে সন্ত্রাসীদের কীভাবে রোখা সম্ভব। ইউক্রেনকে ঠিক সময় অস্ত্র দিলে এই মৃত্যু আমরা আটকাতে পারতাম। ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থার মাধ্যমে আমরা সাধারণ মানুষকে রক্ষা করতে পারতাম।” এদিনের হামলা প্রাণ হারানো ৪ মাসের শিশু টাইমোফি ও দুবছরের মার্কের কথাও তুলে ধরেছেন জেলেনস্কি।

Advertisement

বলে রাখা ভালো, আগামী ১০ বছরের জন্য ইউক্রেনের সঙ্গে নিরাপত্তা চুক্তি স্বাক্ষর করেছে পশ্চিমের ৭টি দেশ। যুদ্ধের শুরু থেকে ইউক্রেনের পাশে দাঁড়িয়েছে আমেরিকা। মার্কিন অস্ত্রবলেই রাশিয়ার বিরুদ্ধে পালটা আক্রমণ শুরু করেছে কিয়েভ। মস্কোর প্রতিটা আক্রমণের কড়া জবাব দিচ্ছে ইউক্রেনীয় ফৌজ। কিন্তু এবার ভাঁড়ারে টান পড়তে শুরু করেছে ওয়াশিংটনের। ওয়াকিবহাল মহল বলছে, ইউক্রেনকে বেহিসাব সামরিক সহায়তার ফলে আমেরিকার অর্থনীতিতে ব্যাপক প্রভাব পড়েছে। বিশেষ করে এই সহায়তা নিয়ে আমেরিকার অন্দরেই চরম অসন্তোষ তৈরি হয়েছে। যেকারণে ইউক্রেনের জন্য বরাদ্দ একটি গুরুত্বপূর্ণ সামরিক প্যাকেজ মার্কিন কংগ্রেসে অনুমোদনের জন্য আটকে রয়েছে।

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ