Advertisement
Advertisement
Britain

মাদক খেয়ে উদ্দাম যৌনলীলা! মিলনের ‘আজব’ পরীক্ষায় প্রাণ গেল যুবতীর

নানারকমভাবে শারীরিক সম্পর্ক করতে পছন্দ করতেন ওই যুবতী।

Britain woman died while experimenting physical relation
Published by: Anwesha Adhikary
  • Posted:May 17, 2024 4:39 pm
  • Updated:May 17, 2024 4:39 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: যৌনতা নিয়ে হাজারো পরীক্ষানিরীক্ষা করতে ভালোবাসতেন। সেটাই হল কাল। যৌনতায় মেতে উঠতে গিয়েই মৃত্যু হয়েছে এক যুবতীর। চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে ব্রিটেনে (Britain)। প্রেমিকার মৃত্যুর খবর পেয়ে আত্মঘাতী হয়েছেন ওই তরুণীর প্রেমিকও।

জানা গিয়েছে, মৃতার নাম জর্জিয়া ব্রুক। ২৬ বছর বয়সি জর্জিয়া পেশায় নৃত্যশিল্পী। দীর্ঘদিন ধরে লুক ক্যানন নামে এক যুবকের সঙ্গে তাঁর সম্পর্ক ছিল। পুলিশি তদন্তে উঠে এসেছে, প্রেমিকের সঙ্গে নানারকমভাবে শারীরিক সম্পর্ক করতে পছন্দ করতেন জর্জিয়া। একাধিকবার এইভাবে যৌনতায় লিপ্ত হয়েছেন তাঁরা। শেষবার দুজন মিলে পরিকল্পনা করেন, প্রচুর মাদক খেয়ে উদ্দাম যৌনতায় মাতবেন।

Advertisement

কিন্তু সেখানেই বিপত্তি। জানা গিয়েছে, কোকেন আর ঘুমের ওষুধ খেয়ে শারীরিক সম্পর্ক করেছিলেন যুগল। সেই সময়েই জর্জিয়ার শ্বাসরোধ করে ফেলেন লুক। হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে ওই যুবতীর  মৃত্যু হয়। খবর পেয়েই হাসপাতালের কাছেই একটি জঙ্গলে গিয়ে আত্মঘাতী হন লুক। ঘটনার তদন্ত শুরু করে পুলিশ।

Advertisement

[আরও পড়ুন: ‘মানবাধিকার নিয়ে ভারতকে জ্ঞান দিয়ে লাভ নেই’, মত ভারতীয় বংশোদ্ভূত মার্কিন জনপ্রতিনিধিদের

লুককেই কাঠগড়ায় তোলেন জর্জিয়ার মা। তিনি বলেন, “আমার মেয়ে কী পরবে, কোথায় বসবে সবকিছুই ঠিক করে দিত লুক। ওই খুন করেছে জর্জিয়াকে।” পালটা লুকের ভাই বলেন, প্রেমিকার প্রতি মোটেই এমন আচরণ করতেন না লুক। তদন্তে নেমে যুগলের মেসেজ থেকে পুলিশ জানতে পারে, মাদক খেয়ে সঙ্গমে আগ্রহী ছিলেন জর্জিয়া নিজেই।

তবে তদন্তের শেষে গোটা বিষয়টিকে অনিচ্ছাকৃত খুন হিসাবেই রায় দিয়েছে ব্রিটেনের স্থানীয় আদালত। বিচারকদের মতে, সঙ্গমের সময় ঘটলেও যেহেতু শ্বাসরোধ করার জেরে যুবতীর মৃত্যু হয়েছে, তাই এটা খুন। সেই সঙ্গে আদালত জানিয়েছে, পরীক্ষা করতে গিয়ে বিপজ্জনক যৌনতার দিকে ঝুঁকছে তরুণ প্রজন্ম। ২০২২ সালে ঘটে যাওয়া এই ঘটনার বিচার শেষে আদালতের মত, জর্জিয়ার এই করুণ পরিণতি থেকে সকলের শিক্ষা নেওয়া উচিত। এমন যৌনতার জেরে ক্ষতি হতে পারে, সেই নিয়ে সচেতন থাকতে হবে যুবসমাজকে।

[আরও পড়ুন: প্রথমবার শুধু পণবন্দিদের জন্য বৈঠক রাষ্ট্রসংঘে, হামাসের ডেরা থেকে মুক্তি কবে?]

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ