Advertisement
Advertisement

Breaking News

Pakistan

কোরান পোড়ানোর অভিযোগ, পুলিশের হাত থেকে অভিযুক্তকে ছিনিয়ে নিয়ে খুন করল পাক জনতা

খুনের পর প্রকাশ্যে ঝুলিয়ে দেওয়া হয় অভিযুক্তের মৃতদেহ।

Mob in Pakistan killed man accused in desecrating Quran

প্রতীকী ছবি।

Published by: Anwesha Adhikary
  • Posted:June 21, 2024 12:12 pm
  • Updated:June 21, 2024 12:12 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কোরান বিকৃত করার অভিযোগে পাকিস্তানে এক ব্যক্তিকে খুন করল উন্মত্ত জনতা। জানা গিয়েছে, ওই ব্যক্তির বিরুদ্ধে অভিযোগ পেয়ে তাঁকে হেফাজতে নিয়েছিল পুলিশ। কিন্তু পুলিশি হেফাজত থেকে ওই ব্যক্তিকে জোর করে বের করে খুন করে জনতা। তার পরে প্রকাশ্যে ঝুলিয়ে দেওয়া হয় ওই ব্যক্তির মৃতদেহ।

মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর-পশ্চিম পাকিস্তানের (Pakistan) খাইবার পাখতুনখোয়ার সোয়াত জেলায়। স্থানীয় পুলিশের প্রধান জাহিদুল্লাহ জানান, কোরান বিকৃতির অভিযোগ উঠেছিল এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে। তিনি নাকি পবিত্র ধর্মগ্রন্থের বেশ কয়েকটা পাতা পুড়িয়ে দিয়েছিলেন। অভিযোগ পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই বৃহস্পতিবার রাতে অভিযুক্তকে আটক করে হেফাজতে নেয় পুলিশ। তবে অভিযুক্তের পরিচয় প্রকাশ করা হয়নি।

Advertisement

[আরও পড়ুন: ডার্ক ওয়েবে ফাঁস নেটের প্রশ্নপত্র, কেন্দ্রের অভিযোগের পরই মামলা দায়ের সিবিআইয়ের

অভিযুক্তের গ্রেপ্তারির খবর পেয়েই থানার সামনে জড়ো হয় বিশাল জনতা। মাদয়ান থানার সামনে গিয়ে তাঁরা দাবি করতে থাকেন, অভিযুক্তকে তাঁদের হাতে তুলে দিতে হবে। কিন্তু জনতার দাবি মানতে চায়নি পুলিশ। সেই রাগে থানা লক্ষ্য করে গুলিবৃষ্টি শুরু করে উন্মত্ত জনতা। পালটা গুলি চালায় পুলিশও। সেই গোলাগুলির মধ্যে পড়ে গুরুতর আহত হন এক ব্যক্তি। তাঁকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

Advertisement

এই ঘটনায় আরও ক্ষিপ্ত হয়ে থানায় আগুন ধরিয়ে দেয় আমজনতা। থানায় জোর করে ঢুকে অভিযুক্তকে সোজা গুলি করে খুন করা হয়। তার পর অভিযুক্তের মৃতদেহ বের করে এনে ঝুলিয়ে দেওয়া হয় প্রকাশ্যেই। তার পর থেকে ব্যাপক অশান্তি শুরু হয় মাদয়ান এলাকাজুড়ে। হিংসার জেরে ইতিমধ্যেই আহত হয়েছেন আটজন। বিপুল পুলিশবাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে এলাকায়।

[আরও পড়ুন: এখনই কার্যকর নয় বিতর্কিত তিন ফৌজদারি আইন, মোদিকে চিঠি মমতার

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ