১৪  আশ্বিন  ১৪২৯  রবিবার ২ অক্টোবর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

আতঙ্কের মাঝেও স্বস্তি, করোনার কবল থেকে বেঁচে ফিরলেন ৫৬ হাজার

Published by: Bishakha Pal |    Posted: March 7, 2020 8:46 am|    Updated: March 12, 2020 1:11 pm

More than 56 thousand recovery cases of coronavirus globally

ফাইল ফটো

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বিশ্বের প্রায় ৯১টি দেশে কামড় বসিয়েছে প্রাণঘাতী ভাইরাস করোনা। এক লক্ষেরও বেশি মানুষ এই ভাইরাসে আক্রান্ত। মৃতের সংখ্যা সাড়ে তিন হাজার ছুঁই ছুঁই। এমন পরিস্থিতিতেও বিশ্ববাসীর জন্য সুখবর। এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর দোড়গোড়া থেকে ফিরে এসেছে, এমন নিদর্শনও রয়েছে। গোটা বিশ্বে প্রায় ৫৬ হাজার ১০৬ জন করোনা আক্রান্ত আজ সম্পূর্ণ সুস্থ।

চিনের ইউহান থেকেই গোটা বিশ্বে ছড়িয়ে পড়েছে করোনা ভাইরাস। ইউহান থেকে করোনার করাল গ্রাসে চলে আসে গোটা চিন। বর্তমানে এই দেশে মৃত্যুর সংখ্যা ৩ হাজার ৭০ জন। চিন তো বটেই, জাপান, দক্ষিণ কোরিয়া, ইটালি, ফ্রান্স, মালয়েশিয়া, থাইল্যান্ড ও ভারতের মতো দেশের দ্রুত গতিতে ছড়িয়ে পড়ছে করোনা। ভারতে এখনও পর্যন্ত কোনও করোনা আক্রান্তের মৃত্যুর খবর পাওয়া না গেলেও বাকি দেশগুলোয় বাড়ছে মৃতের সংখ্যা। তবে এই ভাইরাসে আক্রান্ত হলেই যা মৃত্যু হবে এমন নয়। করোনায় আক্রান্তরা বেঁচে উঠেছে এমন ঘটছে বিশ্বজুড়ে। এখনও পর্যন্ত ৫৬ হাজার ১০৬ জন করোনা আক্রান্ত সুস্থ হয়ে উঠেছেন বলে খবর। ফলে আক্রান্তের পাশাপাশি আশার আলো দেখছেন বিজ্ঞানীরাও।

[ আরও পড়ুন: মৃত্যুপথযাত্রীর শেষ ইচ্ছাপূরণ ইউহান হাসপাতালের, সূর্যাস্ত দেখলেন করোনা আক্রান্ত বৃদ্ধ ]

তবে এই খুশিতে সতর্কতায় ঢিলেমি দেওয়ার কোনও প্রশ্নই নেই বলে জনিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। করোনা থেকে বাঁচতে সার্জিকাল বা N95 মাস্ক পরার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। প্রয়োজনে স্যানেটাইজা ব্যবহার করতেও বলেছেন তাঁরা। এদিকে করোনা আক্রান্তদের চিকিৎসায় সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। নিজের ৩ মাসের বেতন তিনি দান করেছেন চিকিৎসার জন্য। ২০১৯-এর শেষ তিন মাসের বেতন মার্কিন স্বাস্থ্য দপ্তরের হাতে তুলে দিয়েছেন ট্রাম্প। হোয়াইট হাউসের প্রেস সচিব স্টিফানি গ্রিশ‌্যাম মার্কিন প্রেসিডেন্টের দেওয়া চেকের ছবি টুইট করে এই তথ্য জানিয়েছেন।

করোনা আতঙ্কে কাঁপছে গোটা বিশ্ব। WHO প্রতিটি দেশকে অনুরোধ করেছে করোনা ভাইরাস আক্রান্তদের যেন ‘হায়েস্ট প্রায়োরিটি’ দিয়ে বিবেচনা করা হয়। আতঙ্কের জেরে আন্তর্জাতিক স্তরে পর্যটনের হার কমেছে প্রায় ৩ শতাংশ। চিনের পর সবচেয়ে খারাপ অবস্থা দক্ষিণ কোরিয়ার। ১৭৪টি নতুন আক্রান্তের খবর পাওয়া গিয়েছে। গোটা দেশে আক্রান্তের সংখ্যা ছড়িয়েছে ৬ হাজার ৭৬৭ জন।

[ আরও পড়ুন: ভুটানেও করোনার থাবা, ভারত থেকে বেড়াতে যাওয়া পর্যটকের দেহে মিলল ভাইরাস ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে