১২ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  সোমবার ২৯ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‘মিসেস শ্রীলঙ্কা’র মঞ্চে মুকুট নিয়ে টানাটানি! সুন্দরীদের লঙ্কাকাণ্ডের ভিডিও ভাইরাল

Published by: Biswadip Dey |    Posted: April 7, 2021 9:29 pm|    Updated: April 7, 2021 9:29 pm

Mrs Sri Lanka winner suffers head injuries after Mrs World strips off her crown over divorce claim । Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আজব পরিস্থিতি তৈরি হল শ্রীলঙ্কার (Sri Lanka) এক বিউটি কনটেস্টে। ‘মিসেস শ্রীলঙ্কা ২০২১’ প্রতিযোগিতায় (Mrs Sri Lanka) বিজয়িনীর মাথায় মুকুট তুলে দিয়েও তা খুলে নেওয়া হল। সেই টানাহ্যাঁচড়ায় তিনি চোটও পেলেন। ভরতি হতে হল হাসপাতালেও! তাঁর পরিবর্তে বিজয়ী ঘোষণা করা হল দ্বিতীয় স্থানাধিকারীকে।

কিন্তু কেন ঘটল এমন? কেন একজনকে সেরার শিরোপা দিয়েও এভাবে তা সরিয়ে নেওয়া হল? এই কারণকে ঘিরে ঘনিয়েছে বিতর্ক। আসলে এই সৌন্দর্য প্রতিযোগিতার নিয়ম হল, কেবল বিবাহিত মহিলারাই এই প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে পারবেন। কিন্তু দেখা যায়, ৩১ বছরের পুষ্পিকা ডি সিলভার বিয়ে হলেও পরে বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটে যায়। তাই তাঁকে সেরা হিসেবে ঘোষণা করার সিদ্ধান্ত ফিরিয়ে নেওয়া হয়।

 

[আরও পড়ুন: ‘আমার দেশকে বাঁচান’, বিউটি কনটেস্টের মঞ্চেই মায়ানমারের মডেলের কাতর আর্তি]

ক্যারোলিন জুরি, যিনি আগের বার বিজয়ী হয়েছিলেন, তিনি মঞ্চে এসে পুষ্পিকার মাথায় মুকুট পরিয়ে দেন। কিন্তু এরপরই তিনি জানতে পারেন পুষ্পিকা বিবাহবিচ্ছিন্না। আর তাতেই মেজাজ হারিয়ে ফেলেন ক্যারোলিন। সোজা মাইক হাতে তিনি বলে ওঠেন, ”এই প্রতিযোগিতার নিয়ম হল আপনাকে বিবাহিত হতে হবে। বিবাহ বিচ্ছিন্ন হলে চলবে না। তাই আমি আমার প্রথম পদক্ষেপ করছি। বিজয়িনীর মুকুটটা তুলে দিচ্ছি প্রথম রানার আপের মাথায়।” কেবল বলাই নয়, এরপরই দ্রুত তিনি এগিয়ে যান পুষ্পিকার দিকে। আর তাঁর মাথা থেকে টানাটানি করে খুলে ফেলেন মুকুটটি। গোটা ঘটনায় হতভম্ব হয়ে যান পুষ্পিকা। তাঁর মাথায় আঘাতও লাগে টানাটানিতে। এরপর ক্ষুণ্ণ ভঙ্গিতে তিনি মঞ্চ ছেড়ে বেরিয়ে যান।

পরে অবশ্য ফেসবুককেই প্রতিবাদের মঞ্চ হিসেবে বেছে নেন তিনি। দাবি করেন, তিনি বিবাহ বিচ্ছিন্না নন। এই দাবি যাঁরা করছেন, তাঁদের চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিয়ে তিনি বলেন তাঁরা যেন পুষ্পিকার ডিভোর্সের কাগজপত্র দেখান। তাঁর এমন অপমানের প্রতিবাদ করে তিনি আইনের দ্বারস্থও হবেন বলে জানিয়ে দেন।

[আরও পড়ুন: ২০৩৬ পর্যন্ত রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট থাকার পথ প্রশস্ত করতে নতুন বিলে সই পুতিনের]

আর সব শেষে তিনি মনে করিয়ে দেন, ”তিনি সত্যিকারের রানি নন, যিনি অন্য নারীর মাথা থেকে মুকুট খুলে নেন। বরং তিনিই, যিনি গোপনে অন্য নারীর মাথায় মুকুট তুলে দেন।”

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে