BREAKING NEWS

০৯ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  বুধবার ২৫ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

রাম নিয়ে নাছোড় নেপাল, ওলির দাবির পর অযোধ্যা খুঁজতে শুরু খননকার্য

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: July 17, 2020 11:37 am|    Updated: July 17, 2020 11:37 am

Nepal archaeological department to start excavation in search of Ayodhya

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রভু শ্রী রামচন্দ্রকে নিয়ে নাছোড় নেপাল (Nepal)। প্রধানমন্ত্রী কেপি শর্মা ওলির ‘রাম নেপালি’ দাবির পর এবার অযোধ্যা খুঁজে বের করতে খননকার্য শুরু করল সে দেশের প্রত্নতত্ত্ব বিভাগ।

[আরও পড়ুন: ‘ভগবান রাম ভারতীয় নন, তিনি নেপালি’, আজব দাবি নেপালের প্রধানমন্ত্রী ওলির]

নেপালের পুরাতত্ত্ব বিভাগ জানিয়েছে, শীঘ্রই ভগবান রামের (Lord Ram) নেপালে জন্ম নিয়ে গবেষণার কাজ শুরু করবে তারা। নেপালের পুরাতত্ত্ব বিভাগের ডিজি দামোদর গৌতম জানিয়েছেন, একটি দায়িত্ববান সংস্থা হিসেবে দেশে সাংস্কৃতিক আর ধার্মিক স্থলগুলি নিয়ে পুরাতাত্ত্বিক খনন, অনুসন্ধান এবং বিশ্লেষণ করা হবে। তাঁর বক্তব্য, “দেশের প্রধানমন্ত্রীর বয়ানের পর আমাদেরও দায়িত্ব রয়েছে কিছু। তবে অযোধ্যা যে নেপালে সেই দাবির সপক্ষে এখনও আমাদের কাছে তেমন জোরাল কোনও প্রমাণ নেই।”

ভারতের সঙ্গে জমি বিবাদের আবহে সম্প্রতি রামচন্দ্র আদতে নেপালি এবং আসল অযোধ্যা নেপালের বিরগঞ্জের থোরিতে বলে দাবি করে বসেন প্রধানমন্ত্রী ওলি। এনিয়ে নিজের দল ছাড়াও নেপালের বিরোধী দলগুলিও প্রতিবাদে সরব হয়েছে। নেপালি কংগ্রেস তোপ দেগে বলেছে, অরাজক ও স্বৈরাচারী শাসন ব্যবস্থা থেকে নজর ঘোরাতে ওলি অযৌক্তিক বিষয় নিয়ে মাতামাতি করছেন। তবে এতে পুরাতত্ত্ব বিভাগ থেমে নেই। প্রধানমন্ত্রীর ‘ইচ্ছা’ মেনেই আপাতত থোরি গ্রামে খননকার্য শুরু হবে। নেপালের পুরাতত্ত্ব বিভাগ জানিয়েছে যে, তাঁরা বিগত কয়েক বছর ধরে বারা, ধৌসা আর চিতবন জেলায় খননকার্য চালিয়েছে। এই সমস্ত জেলাই নদীর ধারে অবস্থিত।

প্রসঙ্গত, প্রধানমন্ত্রী ওলির বয়ানে ভারতে তুঙ্গে বিতর্ক। বিজেপির মুখপাত্র বিজয় সোনকর কটাক্ষ করে বলেন, “ভারতেও কমিউনিস্টরা ধর্ম ও মানুষের বিশ্বাস নিয়ে ছেলেখেলা করে। এখানে যেভাবে কমিউনিস্টদের মানুষ ছুঁড়ে ফেলে দিয়েছে। নেপালেও একইভাবে ওলিকে গদি থেকে ছুঁড়ে ফেলবে জনতা।” এর আগে, ওলির বয়ানে চটে লাল হয়েছিলেন অযোধ্যার পুরোহিতরা। ওলিকে ‘পাগল’ বলে তুলোধোনা করে তাঁরা ভবিষ্যদ্বাণী করে বলেছেন, এক মাসের মধ্যে পড়ে যাবে নেপালের বর্তমান সরকার।

[আরও পড়ুন: সমুদ্রের ‘ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানি’, আগ্রাসী চিনকে কটাক্ষ মার্কিন আমলার]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে