Advertisement
Advertisement

একান্ত বৈঠকে ওবামা-ট্রাম্প

মেলানিয়া ও ট্রাম্পের সঙ্গে মেয়েদের নিয়ে ছবি তুলতে আপত্তি ওবামা-পত্নী মিশেলের৷

Obama, Trump meet at White House to begin transition of power
Published by: Sangbad Pratidin Digital
  • Posted:November 11, 2016 9:22 am
  • Updated:May 29, 2023 3:37 pm

সুচন্দ্রা মজুমদার, ওয়াশিংটন: ভোটে জেতার পর প্রথম পা রাখলেন হোয়াইট হাউসে৷ প্রত্যাশিতভাবেই পেলেন উষ্ণ অভ্যর্থনা৷ হোয়াইট হাউসের হবু বাসিন্দা ডোনাল্ড ট্রাম্পের দিকে হাসি মুখে করমর্দনের জন্য হাত বাড়িয়ে দিলেন বিদায়ী বাসিন্দা বারাক ওবামা৷ করমর্দন ও সৌজন্যমূলক আলিঙ্গনের পর পূর্বসূরিদের রীতি ও ঐতিহ্য মেনেই আলোচনায় বসলেন ওবামা ও ট্রাম্প৷ ট্রাম্পের শপথগ্রহণ ২০ জানুয়ারি৷ কিন্তু তার আগেই সস্ত্রীক হোয়াইট হাউসে এসে প্রথামাফিক সাক্ষাৎপর্ব ও আলোচনা সেরে ফেললেন পূর্বসূরির সঙ্গে৷

এদিন হোয়াইট হাউসে পৌঁছনোর আগে প্রথমে নিউইয়র্কে আসেন৷ নিউ ইয়র্কে ট্রাম্পের বিমান মাটি ছুঁতেই ওয়াটার ক্যাননের মাধ্যমে ওয়াটার স্যালুট দিয়ে অভ্যর্থনা জানানো হয় ট্রাম্পের বিমানকে৷ ট্রাম্প পরে ওয়াশিংটন ডিসিতে আসার. পর সকাল এগারটা নাগাদ কড়া নিরাপত্তায় পৌঁছন ওভাল অফিসে৷ সঙ্গে ছিলেন স্ত্রী মেলানিয়া ট্রাম্প৷ মেলানিয়াকে সাদরে জড়িয়ে ধরেন ওবামা পত্নী মিশেল৷ মিশেল মেলানিয়াকে হাত ধরে গোটা হোয়াইট হাউস ঘুরিয়ে দেখান৷ ওবামার দুই কন্যার সঙ্গে গল্প জুড়ে দেন মেলানিয়া৷ একসঙ্গে খাওয়া দাওয়া সারেন তাঁরা৷ সূত্রের খবর, ক্ষমতা হস্তান্তর প্রক্রিয়া মসৃণ করতেই এদিন দু’জনের মধ্যে একান্তে বেশ কিছুক্ষণ কথা হয়৷ তবে ট্রাম্প ও ওবামার মধ্যে ভোটের সময় যে তুমুল রেষারেষি, বাগযুদ্ধ, ব্যক্তিগত আক্রমণ কুৎসিত পর্যায়ে নেমে এসেছিল এদিন দুজনের কথায় ও আচরণে তার লেশ মাত্র ছিল না৷ ওবামা আগাম শুভেচ্চা জানিয়ে বলেন, তিনি আশা রাখেন ট্রাম্প দেশ ও মানবজাতির স্বার্থে সুপ্রশাসক হিসাবে সফলভাবে কাজ করবেন৷

Advertisement

উল্লেখ্য, প্রাচীন প্রথা মেনে বিদায়ী প্রেসিডেন্ট ও হবু প্রেসিডেন্ট সপরিবারে ছবি তোলেন হোয়াইট হাউসে৷ এর আগে ওবামা ও মিশেল ছবি তুলেছিলেন জর্জ বুশ এবং লরা বুশের সঙ্গে৷ কিন্তু এদিন মিশেলের আপত্তিতে সপরিবার গ্রুপ ছবি তোলা হল না৷ সূত্রের খবর, মিশেলই নাকি মেলানিয়া ও ট্রাম্পের সঙ্গে মেয়েদের নিয়ে ছবি তুলতে আপত্তি করেছিলেন৷ হোয়াইট হাউসের দক্ষিণমুখী প্রবেশ পথে সবকিছু ব্যবস্থাপনা থাকা সত্ত্বেও শেষ মুহূর্তে তা বাতিল হয়৷ মার্কিন সংবাদমাধ্যমে জোর জল্পনা, ভোট প্রচারের সময় ট্রাম্পের আক্রমণাত্মক কথায় আহত হয়েছিলেন মিশেল৷ হিলারি ও মিশেলের সঙ্গে তিক্ততম বাগযুদ্ধে জড়িয়ে পড়েন ট্রাম্প৷ সেই ঘটনার কথা ভোলেননি মিশেল৷ তাই আবেগে টাটকা ক্ষত মনে রেখেই পিছিয়ে আসেন মিশেল৷ বিরক্তি প্রকাশ করেই সপরিবারে গ্রুপ ছবি তোলা থেকে বিরত থাকেন তিনি৷ তাঁর মত বদলানোর জন্য মিশেলকে জোরাজুরি করেননি ট্রাম্প পত্নী মেলানিয়া৷

Advertisement

অন্যদিকে, শীঘ্রই দেখা করতে চান এবং আলোচনায় বসতে চান বলে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী টেরেসা মে-কে মার্কিন সফরের জন্য আমন্ত্রণ পাঠালেন ট্রাম্প৷ এদিন বিদায়ী মার্কিন ভাইস প্রেসিডেণ্ট জো বিডেন দেখা করেন তাঁর উত্তরসূরী মাইক পেন্সের সঙ্গে৷ এদিনও সিয়াটেল-সহ কয়েকটি শহরে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ফলাফলের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ দেখিয়ে পথে নামে উত্তেজিত জনতা৷ কয়েকটি শহরে বিক্ষোভ, মিছিল, জমায়েত ও ভাঙচুর হয়৷ তবে তা বড় আকার নেয়নি৷

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ