১৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ৩০ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

এয়ারস্ট্রাইকের দেড় মাস পর বালাকোটে সংবাদমাধ্যমের প্রবেশের অনুমতি পাকিস্তানের

Published by: Tanujit Das |    Posted: April 11, 2019 5:38 pm|    Updated: April 11, 2019 5:38 pm

Pakistan allows media to visit Balakot

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বালাকোটে ভারতীয় সেনার এয়ারস্ট্রাইকের প্রায় দেড়মাস পর, ওই এলাকায় সংবাদমাধ্যমকে প্রবেশের অনুমতি দিল পাক সেনা৷ জইশ জঙ্গিদের যে প্রশিক্ষণ শিবির ধ্বংসের দাবি করেছিল ভারতীয় বায়ুসেনা, বুধবার থেকে সেই স্থানে সংবাদমাধ্যমকে প্রবেশের অনুমতি দিল রাওয়ালপিণ্ডি৷

[ আরও পড়ুন: বোরখা পরা স্বামীর ছবি পোস্ট, পুরুষতান্ত্রিক সমাজের গালে চড় পাকিস্তানি তরুণীর  ]

পুলওয়ামা কাণ্ডের প্রতিশোধ নিতে গত ২৬ ফেব্রুয়ারি পাকভূমিতে ঢুকে বালাকোটে অবস্থিত জইশ জঙ্গিদের প্রশিক্ষণ শিবির ধ্বংস করে ভারতীয় বায়ুসেনা৷ যার পর চরমে ওঠে ভারত-পাক দ্বন্দ্ব৷ এই অভিযানের কথা স্বীকার করলেও পাকিস্তানের তরফে দাবি করা হয়, ভারতীয় বায়ুসেনার হামলায় ক্ষতি হয়েছে তাঁদের বনভূমির৷ মৃত্যু হয়েছে কয়েকটি কাকের৷ যা নিয়ে রাষ্ট্রসংঘে ভারতের বিরুদ্ধে পরিবেশ নষ্টের অভিযোগও করে পাকিস্তান৷ কিন্তু আশ্চর্যজনক ভাবে পাকিস্তানের তরফে ওই স্থানে কোনও সংবাদমাধ্যমকে ঢুকতে দেওয়া হয় না৷ আন্তর্জাতিক মিডিয়ায় প্রবেশের উপর সম্পূর্ণভাবে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়৷ কিন্তু ঘটনার দেড়মাস পর রাওয়ালপিণ্ডির বোধোদয় হওয়ায় এতে সন্দেহের গন্ধ পাচ্ছে আন্তর্জাতিক মহলের একাংশ৷ তাঁদের মতে, দেড় মাস ধরে সম্ভবত ভারতীয় বায়ুসেনার অভিযানের প্রমাণ নষ্ট করেছে পাক সেনা৷ তারপর নিজেদের মুখ রক্ষার খাতিরে ওই স্থানে সমস্ত আন্তর্জাতিক মিডিয়াকে প্রবেশ করতে দিচ্ছে৷

[ আরও পড়ুন: এবার 5D সিনেমা হলে বসেই দেখা যাবে নীল ছবি! ]

আন্তর্জাতিক মিডিয়ার একটা অংশ জানিয়েছে, বর্তমানে ওই এলাকায় যে মাদ্রাসাটি রয়েছে তাতে মোট ১৩০টি পড়ুয়া রয়েছে৷ এবং মাদ্রাসার মধ্যে প্রবেশ করে তার পাশের এলাকায় কয়েকটি গাছ পড়ে থাকতে দেখেন তাঁরা৷ পাক সেনার তরফে তাঁদের বনাঞ্চলের একটা বিশেষ স্থানেও নিয়ে যাওয়া হয়, যেখানে ভারতীয় সেনা বোমাবর্ষণ করেছে বলে রাওয়ালপিণ্ডির দাবি৷ এবিষয়ে টুইট করেন পাক সেনার মুখপাত্র আসিফ গাফুরও৷ তিনি জানান, ‘‘আন্তর্জাতিক সাংবাদমাধ্যমের বেশ কয়েকজন প্রতিনিধি আজ বালাকোটের জাব্বা এলাকার ক্ষতিগ্রস্ত এলাকায় গিয়েছিলেন৷ তাঁরা সরজমিনে ওখানকার অবস্থা খতিয়ে দেখেছেন৷ যা সরাসরি ভারতের দাবিকে খণ্ডন করে৷’’

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে