৩১ ভাদ্র  ১৪২৬  বুধবার ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দ্বিতীয়বার মসনদে বসেই বিদেশ সফরে একের পর এক মাস্টারস্ট্রোক দিচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। মধ্যপ্রাচ্যের ইসলামিক দেশ বাহরিনে এবার কৃষ্ণ মন্দিরের সংস্কারে এগিয়ে এলেন মোদি। রবিবার সেই দেশের রাজধানী মানামাতে শ্রীকৃষ্ণের মন্দিরের সংস্কারের জন্য বরাদ্দ করলেন ৪২ কোটি টাকা। প্রায় ২০০ বছরের পুরনো এই মন্দিরে এদিন ঘটা করে জন্মাষ্টমীও পালন করেন তিনি।

[আরও পড়ুন: অবশেষে কাশ্মীরের সচিবালয় থেকে সরলো পৃথক পতাকা, উড়ছে তেরঙ্গা]

ইতিমধ্যেই মধ্যপ্রাচ্যের আরেক ইসলামিক দেশ সংযুক্ত আরব আমিরশাহী শনিবার নরেন্দ্র মোদির হাতে দেশের সর্বোচ্চ অসামরিক সম্মান ‘অর্ডার অফ জায়েদ’ তুলে দিয়েছে আমিরশাহী সরকার। যার ফলে আন্তর্জাতিক মঞ্চে ফের একবার চাপে পড়ে গিয়েছে পাকিস্তান। রবিবার বাহরিনের রাজধানী মানামাতে অবস্থিত শ্রীকৃষ্ণ মন্দিরের সংস্কারে উদ্যোগ নিয়ে ভারত সরকারের তরফ থেকে ৪২ কোটি টাকা বরাদ্দ করলেন মোদি। ২০০ বছরের পুরনো মন্দিরে এদিন জন্মাষ্টমীও পালন করেন তিনি।

[আরও পড়ুন:একইসঙ্গে তিনটি সরকারি চাকরি! ৩০ বছর পর ফাঁস কর্মচারীর জারিজুরি]

জানা গিয়েছে, ১৬,৫০০ বর্গফুট জমিজুড়ে হবে সংস্কার। এর পাশাপাশি ৪৫ হাজার বর্গফুটের একটি চারতলা ভবন নির্মাণের প্রকল্পও ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী। সেই ভবনে থাকবে উপসনা গৃহ, সভাকক্ষ। বস্তুত, ভারতের প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর এই প্রথম বাহরিনে পা রাখলেন নরেন্দ্র মোদি। মানামার এই মন্দির নিয়ে দীর্ঘদিন সংস্কারের দাবি ওঠে। এই মন্দিরকে ঘিরে এই অঞ্চলকে বাহরিনের ছোট ভারতও বলা হয়। সেই প্রাচীন মন্দিরের সংস্কারে বরাদ্দ ঘোষণা করে প্রবাসী হিন্দুদের মন জয় করলেন নরেন্দ্র মোদি, তা বলাই যায়।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং