২ কার্তিক  ১৪২৬  রবিবার ২০ অক্টোবর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: হাউডি মোদি’ জ্বরে কাঁপছে আমেরিকা। নিউ ইয়র্ক থেকে হিউস্টন, সর্বত্রই প্রবাসী ভরতীয় ও মার্কিন নমো অনুরাগীদের উৎসাহ দেখার মতো। আর হবে নাই বা কেন, গত কয়েক বছরে  ‘মোদি’ শব্দটি যেন ‘রাইজিং ইন্ডিয়া’র সমর্থক হয়ে দাঁড়িয়েছে। এদিন হিউস্টন বিমানবন্দরে নমোর পদার্পণ দেখার জন্য হাজির ছিলেন অনেকেই। মার্কিন জমিতে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নেমেছেন, ফলে যথারীতি প্রটোকলের বেড়াজাল ছিলই। কিন্তু সে সব তুচ্ছ করে বিমানবন্দরে তাঁর একটি কাজ মন জয় করে নিল হাজর হাজার মানুষের।

[আরও পড়ুন: নিশানায় ‘হাউডি মোদি’ জনসভা, অশান্তির ছক পাক মদতপুষ্ট সংগঠনগুলির]

তা, কী এমন করলেন নমো? শনিবার ‘হাউডি মোদি’ মেগা ইভেন্টে যোগ দিতে হিউস্টন বিমানবন্দরে পৌঁছান প্রধানমন্ত্রী মোদি। যথারীতি তাঁকে স্বাগত জানাতে বিমানবন্দরে হাজির ছিলেন আমেরিকায় নিযুক্ত ভারতের রাষ্ট্রদূত হর্ষবর্ধন শ্রীংলা, ভারতে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত কেনেথ জাস্টার-সহ একাধিক শীষ মার্কিন ও ভারতীয় অধিকারিকরা। বিমান থেকে নামার পর স্বাগত জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী মোদির হাতে একটি ফুলের তোড়া তুলে দেওয়া হয়। ওই সময় কয়েকটি ফুল কার্পেটে পড়ে যায়। আশপাশের খুঁটিনাটি বিষয়ও যে চোখ এড়ায় না, এবং তিনি যে এখনও ‘আম আদমি’ তা ফের প্রমাণ করে মুহূর্তে মাটিতে পড়ে থাক ফুলগুলি নিজের হাতে কুড়িয়ে নেন নমো। ক্যামেরাবন্দি হয়ে এই গোটা ঘটনার ভিডিও ছড়িয়ে পড়ে নেটদুনিয়ায়। নমোর প্রশংসায় পঞ্চমুখ হয়ে ওঠেন নেটিজেনরা।  

উল্লেখ্য, শনিবার আমেরিকায় এসে রবিবারের সকালের মধ্যেই প্রবাসী ভারতীয়দের বিভিন্ন প্রতিনিধি দলের সঙ্গে দেখা করেছেন প্রধানমন্ত্রী। তাঁদের মধ্যে কাশ্মীরি পণ্ডিতরা যেমন ছিলেন তেমনি ছিলেন শিখ সম্প্রদায় ও বোহরা সম্প্রদায়ের মানুষরাও। সবাই নরেন্দ্র মোদিকে দ্বিতীয়বার ক্ষমতায় আসার জন্য অভিনন্দন জানানোর পাশাপাশি বিভিন্ন বিষয়ে স্মারকলিপিও জমা দেন। আজ মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও প্রধানমন্ত্রী মোদির যৌথ ভাষণের দিকে তাকিয়ে রয়েছে গোটা বিশ্ব।                                                        

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং