BREAKING NEWS

২২ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  বৃহস্পতিবার ৯ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‘ধর্মনিরপেক্ষ’ রাষ্ট্র পাকিস্তান, টুইট করে সমালোচিত শোয়েব

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: August 9, 2017 7:51 am|    Updated: August 9, 2017 7:51 am

Shoaib calls Pakistan secular state, brutally trolled for committing gaffe on Twitter

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মুক্তমনাদের কাছে পাকিস্তান কি বধ্যভূমি। কিংবা সবাইকে নিয়ে চলার বার্তা দিলে পাক ভূখণ্ডে তাকে ব্রাত্য করা হবে। প্রাক্তন পাক পেসার শোয়েব আখতারের সাম্প্রতিক টুইট সেই বিতর্ক উসকে দিল। সম্প্রতি পাকিস্তানের ক্যাবিনেটে জায়গা পেয়েছেন দর্শন লাল নামের এক হিন্দু প্রতিনিধি। এই উদাহরণ তুলে ধরে শোয়েব টুইট করেন এটাই পাকিস্তান। যে দেশ ধর্মনিরপেক্ষ। এই টুইটের রাওয়ালপিণ্ডি এক্সপ্রেসের দিকে ধেয়ে আসতে থাকে পরপর বাউন্সার। সোশ্যাল মিডিয়ায় শোয়েব রীতিমতো ট্রোলড হন। সমালোচিত হলেও শোয়েব পিছু হটেননি। ফের টুইট করে প্রাক্তন পাক ক্রিকেটার বুঝিয়ে দেন তিনি সবাইকে সঙ্গে নিয়ে চলার পক্ষপাতী।

[সংবাদ প্রতিদিন ২৫: ‘বড়’ কাগজে সাড়া খবরের দুনিয়ায়]

 

দেশটার নাম পাকিস্তান। মৌলবাদী শক্তির আস্ফালন পাক ভূখণ্ডের প্রায় সর্বত্র। ধর্মনিরপেক্ষতা শব্দটা সোনার পাথরবাটির মতো। অন্য ধর্মের প্রতি সহনশীলতার জায়গাটা খুবই কম। তবে গত সপ্তাহে ছবিটা কিছুটা বদলায়। ২০ বছর পর হিন্দু প্রতিনিধি হিসাবে পাক সরকারের মন্ত্রিসভায় জায়গা পেয়েছেন দর্শনলাল। নওয়াজ শরিফের দলের এই নেতা সিন্ধ প্রদেশের বাসিন্দা। যে এলাকায় পাকিস্তানের ৯০ ভাগ হিন্দুদের বাস। দর্শন লালকে গত শুক্রবার শপথ বাক্য পাঠ করান পাক প্রেসিডেন্ট মামনুন হোসেন। এই ছবি নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে পোস্ট করেন শোয়েব আখতার। ছবির নিচে শোয়েব লেখেন, হিন্দু নেতা দর্শন লাল এখন পাকিস্তানের মন্ত্রী। এটা দেশের সৌজন্যের পরিচয়, এই ছবি বুঝিয়ে দেয় পাকিস্তান একটি ধর্মনিরপেক্ষ রাষ্ট্র। প্রাক্তন পাক ক্রিকেটারের এই টুইট সোশ্যাল মিডিয়ায় তোপের মুখে পড়ে। বহু পাকিস্তানি শোয়েবকে ব্যক্তিগত আক্রমণ করে বসেন। কেউ লেখেন পাকিস্তান মুসলিম রাষ্ট্র। শোয়েব এই নিয়ে বলার কে। কারও বক্তব্য, ক্রিকেট নিয়েই শোয়েব বরং থাকুক। কেউ কেউ শোয়েবের রাজনৈতিক পরিপক্কতা এবং সাধারণ জ্ঞান নিয়ে প্রশ্ন তোলেন। কয়েকজন দর্শন লালের পরিচয়ই নাকি বুঝতে পারেননি। ধর্মনিরপেক্ষতার জন্য দর্শন লালকে কেন টানা হল তা বুঝতে পারছেন না বেশ কিছু সমালোচক। তবে হাতে গোনা কয়েকজন অবশ্য শোয়েবকে সমর্থন করেছেন।

[রাজ্যসভার ভোটে চূড়ান্ত নাটক, আহমেদ প্যাটেলের মাত শেষ রাতে]

টুইটারে তাঁর দিকে অজস্র তির ধেয়ে এলেও, মচকাননি প্রাক্তন এই স্পিডস্টার। শোয়েব আরও একটি টুইট করে জানান, তাঁর অজ্ঞতা নিয়ে প্রশ্ন না করে বার্তাটি বোঝার চেষ্টা করলে মঙ্গল। আমরা সব ধর্মকে শ্রদ্ধা করতে জানি। শপথগ্রহণের ছবি স্রেফ একটি উদাহরণ। এ নিয়ে জলঘোলার কোনও প্রয়োজন নেই। শোয়েব থামার বার্তা দিলেও পাক ভূখণ্ডে সহিষ্ণুতার জল যে অনেকটা ঘুলেছে তা স্পষ্ট।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে