BREAKING NEWS

১১ মাঘ  ১৪২৭  সোমবার ২৫ জানুয়ারি ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‘আর সংঘাত নয়’, অবশেষে নবনির্বাচিত মার্কিন প্রেসিডেন্টকে অভিনন্দন বার্তা জিনপিংয়ের

Published by: Biswadip Dey |    Posted: November 25, 2020 10:33 pm|    Updated: November 25, 2020 10:37 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: অবশেষে প্রতীক্ষার অবসান। নবনির্বাচিত মার্কিন (US) প্রেসিডেন্ট জো বিডেনকে (Joe Biden) জয়ের অভিনন্দন জানালেন চিনের (China) প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং (Xi Jinping)। বুধবার টেলিগ্রামে তিনি তাঁর শুভেচ্ছা বার্তা পাঠান। বিশ্বের প্রধান দেশগুলির রাষ্ট্রপ্রধানরা প্রায় সকলেই বিডেনের জয়ের পরেই তাঁকে অভিনন্দন জানিয়েছিলেন। বাকি ছিলেন একমাত্র জিনপিংই। অবশ্য গত ১৩ নভেম্বর চিনের তরফে বিডেনকে শুভেচ্ছা জানানো হয়। কিন্তু এবার প্রতিক্রিয়া এল স্বয়ং প্রেসিডেন্টের কাছ থেকে। যা কূটনৈতিক ভাবে তাৎপর্যপূর্ণ।

এদিন তাঁর বার্তায় জিনপিং আশা প্রকাশ করেছেন, দুই দেশ যেন আর কোনও সংঘাত বা সংঘর্ষে না যায়। পারস্পরিক সম্মান ও সহযোগিতার মধ্যে দিয়ে বিশ্ব শান্তি ও উন্নয়নের মহৎ উদ্দেশ্যে অগ্রসর হওয়ার আবেদন জানিয়েছেন তিনি। পাশাপাশি, দু’দেশের সম্পর্কের সুস্থ ও স্থিতিশীল বিকাশ তাদের নাগরিকদের মৌলিক অধিকারের সঙ্গে জড়িত বলেও জানান তিনি। জিনপিং ছাড়াও চিনের ভাইস প্রেসিডেন্ট ওয়াং কুইশানও শুভেচ্ছা বার্তা পাঠিয়েছেন জো বিডেন ও কমলা হ্যারিসের উদ্দেশে। 

[আরও পড়ুন: আরব-ইহুদি সম্পর্কে শুরু নয়া অধ্যায়, বাহরাইন সফরে যাবেন নেতানিয়াহু]

বিগত কয়েক মাসে দু’দেশের সম্পর্ক তলানিতে গিয়ে ঠেকেছে। বাণিজ্য থেকে শুরু করে মানবাধিকার, সংবাদমাধ্যমের স্বাধীনতা প্রভৃতি নানা বিষয়ের সংঘাতের সঙ্গে তালিকায় যুক্ত হয়েছিল কোভিড অতিমারী। ওয়াশিংটন বারবার চিনকে দায়ী করেছে সারা বিশ্বে করোনা ছড়ানোর জন্য। বিদায়ী মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প (Donald Trump) তো করোনা ভাইরাসকে ‘চিনা ভাইরাস’ বলে কটাক্ষ করেছেন বহুবার। শাসিয়েছেন বেজিংকে শিক্ষা দেওয়ার।

ফলে এমন পরিস্থিতিতে বিজেন জয়ী হওয়ার পর চিন কী বার্তা দেয়, তা জানতে আগ্রহী ছিল ওয়াকিবহাল মহল। বেশ কয়েক দিনের অপেক্ষার পর গত ১৩ নভেম্বর চিনা বিদেশমন্ত্রকের মুখপাত্র ওয়াং ওয়েনবিন বলেন, “মার্কিন জনতার রায়কে আমরা সম্মান জানাচ্ছি। বিডেন ও হ্যারিসকে অভিনন্দন। আমরা জানি যে আমেরিকার প্রেসিডেন্সিয়াল নির্বাচনের ফলাফল সে দেশের নিয়মকানুন মেনেই ঘোষিত হবে।” কিন্তু তাঁর বার্তার পরেও অপেক্ষা ছিল খোদ জিনপিং কতদিন পরে এবিষয়ে তাঁর প্রতিক্রিয়া জানান। অবশেষে মুখ খুললেন তিনি।

[আরও পড়ুন: আগ্রাসী চিন, লালফৌজকে রুখতে ‘সাবমেরিন বাহিনী’ বানাচ্ছে তাইওয়ান]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement