Advertisement
Advertisement
Buddhadeb Bhattacharya

‘এ লড়াই লড়তে হবে, জিততে হবে’, AI দিয়ে বুদ্ধদেব ভট্টাচার্যর ভোট-বার্তা শোনাল সিপিএম

লোকসভা ভোটে AI কণ্ঠে দলীয় প্রার্থীদের লড়াইয়ের কী মন্ত্র দিলেন প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী?

Lok Sabha Election 2024: CPM uses Artificial Intelligence to spread Buddhadeb Bhattacharya's messege on election
Published by: Sucheta Sengupta
  • Posted:May 4, 2024 9:09 pm
  • Updated:May 4, 2024 9:25 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ক্ষমতাচ্যুত হওয়ার পরই রাজনৈতিক সন্ন্যাস নিয়েছিলেন। পার্টির কাজেও দেখা যেত কদাচিৎ। কিন্তু বেশ অনেকদিন হয়ে গেল তিনি অসুস্থ, শয্যাশায়ী প্রায়। হাসপাতালে যাওয়া-আসার মাঝে বাড়িতেও চিকিৎসা চলে নিয়মিত। কিন্তু নির্বাচন এলেই তাঁর কথা মনে পড়ে না, দলমত নির্বিশেষে এমন রাজনীতিক বিরল বঙ্গ রাজনীতিতে। আর তাঁর আবেগে ভর করে আজও ভোট বৈতরণী পেরনোর রাস্তা দেখে সিপিএম। চব্বিশের লোকসভা নির্বাচনও তার ব্যতিক্রম নয়। এবারও বুদ্ধদেব ভট্টাচার্যর থেকে লড়াইয়ের অক্সিজেন পেতে চান বাম প্রার্থীরা। আর জনতার ভোট টানতে তাঁর জলদগম্ভীর কণ্ঠস্বরে বার্তা। তিনি অসুস্থ তো কী? প্রযুক্তির সাহায্যেই এবার বুদ্ধবাবুর বার্তা ছড়িয়ে দিল সিপিএম। বাম প্রার্থীদের পক্ষে ভোট দিতে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর আহ্বান AI-এর মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ল সোশাল মিডিয়ায়।

সম্প্রতি কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা (Artificial Intelligence) ব্যবহার করে বুদ্ধদেব ভট্টাচার্যর ভোট বার্তা ব্যবহার করছে সিপিএম। শনিবার সোশাল মিডিয়ায় (Social Media) ভাইরাল হওয়া ২ মিনিট ৬ সেকেন্ডের ভিডিওয় প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর সন্দেশখালি থেকে জাতীয় রাজনীতি, শিক্ষা দুর্নীতি থেকে বেকারত্ব, মূল্যবৃদ্ধি সমস্যা – সব কিছু নিয়েই বক্তব্য রেখেছেন। বুদ্ধদেব ভট্টাচার্যর (Buddhadeb Bhattacharya) কথায়, ”দেশ, দুনিয়ার এই কঠিন পরিস্থিতিতে ভালো থাকা আমাদের পক্ষে সত্যিই দুষ্কর। কী ঘটে যাচ্ছে পশ্চিমবঙ্গে? সন্দেশখালিতে যে অন্যায় করেছে তৃণমূল, তার কোনও ক্ষমা নেই। মহিলাদের সম্মান নেই, দুর্নীতির আখড়া হয়ে যাচ্ছে রাজ্যটা। আমরা রাজ্যটাকে সাজিয়ে তুলছিলাম। বলেছিলাম, শিল্প হবে, কৃষির উন্নতি হবে। ছোট ছোট ছেলেমেয়েদের চাকরি হবে।”

Advertisement

[আরও পড়ুন: ‘বিজেপির পরিকল্পিত চক্রান্ত’, সন্দেশখালির ‘স্টিং’ ভিডিও হাতিয়ার করে তোপ অভিষেকের

কেন্দ্রে ক্ষমতাসীন দল বিজেপিকে ‘দাঙ্গাবাজ’ তকমা দিয়ে বুদ্ধবাবুর বার্তা, ”ওদিকে কেন্দ্রের ক্ষমতা দখল করে বসে আছে দাঙ্গাবাজ, দুর্নীতিগ্রস্ত বিজেপি (BJP)। নোটবন্দি থেকে আজকে ইলেক্টোরাল বন্ডের মধ্যে দিয়ে দুর্নীতি। নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসের দাম আকাশছোঁয়া। মনে রাখবেন, তৃণমূলের আমলেই বাংলায় বিজেপির বাড়বাড়ন্ত। কে নরেন্দ্র মোদি? কে মমতা ব্যানার্জি? আমাদের দেশকে, রাজ্যকে ধ্বংস করার সুযোগ ওদের দেবেন না। এই নির্বাচনে জয়ী করুন বাম ধর্মনিরপেক্ষ প্রার্থীদের। সামনে লড়াই। এ লড়াই লড়তে হবে, এ লড়াই জিততে হবে।”

Advertisement

[আরও পড়ুন: ‘দুঃখ’ মিটল কি? ডেরেকের বাড়িতে বৈঠক শেষে কী বললেন কুণাল?]

উনিশের লোকসভা নির্বাচনের আগে ব্রিগেডে বামেদের মেগা সমাবেশে হাজির হয়েও মঞ্চে ওঠেননি অসুস্থ বুদ্ধবাবু। নিজের গাড়িতেই কিছুক্ষণ বসেছিলেন। দলের কর্মীদের ভালোভাবে লডা়ইয়ের বার্তা দিয়ে সভা শুরুর আগেই তিনি ফিরে যান। আর চব্বিশের লোকসভা ভোটের (Lok Sabha Election 2024)আগে তাঁর AI বার্তাতেই উদ্বুদ্ধ হতে চাইছেন লাল শিবিরের প্রার্থীরা। সেইসঙ্গে যুগোপযোগী হয়ে উঠতে সিপিএমের এভাবে প্রযুক্তির ব্যবহারও যথেষ্ট চমকপ্রদ। কিন্তু তাতে কি ভোটবাক্স পূর্ণ হবে?  

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ