BREAKING NEWS

৮ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  বুধবার ২৫ নভেম্বর ২০২০ 

Advertisement

চুক্তি সাক্ষরিত, ঢাকাকে করোনা ভ্যাকসিনের ৩ কোটি ডোজ বিক্রি করবে সেরাম ইনস্টিটিউট

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: November 5, 2020 8:56 pm|    Updated: November 5, 2020 8:56 pm

An Images

সুকুমার সরকার, ঢাকা: ভারতের সিরাম ইনস্টিটিউট বাংলাদেশকে করোনা ৩ কোটি ডোজ ভ্যাকসিন দেবে। বৃহস্পতিবার ঢাকার সচিবালয়ে বাংলাদেশ স্বাস্থ্য মন্ত্রকের সভাকক্ষে মউ চুক্তি সাক্ষরের পর একথাই জানালেন বাংলাদেশের স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালিক। এর জন্য বিশ্বের বৃহত্তম ভ্যাকসিন উৎপাদনকারী সংস্থা ভারতের সিরাম ইনস্টিটিউট (Serum Institute) ও বাংলাদেশের বেক্সিমকো ফার্মার সঙ্গে স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রকের বৃহস্পতিবার চুক্তি হয়েছে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

এপ্রসঙ্গে ডা. জাহিদ মালিক বলেন, ‘ভ্যাকসিন তৈরি হলে প্রথম পর্যায়ে বাংলাদেশকে করোনার ৩ কোটি ডোজ দেবে সিরাম। এই ভ্যাকসিন বাংলাদেশে নিয়ে আসবে বেক্সিমকো ফার্মাসিটিক্যালস (Beximco Pharmaceuticals)। একজন ব্যক্তির জন্য দুই ডোজ হিসেবে দেড় কোটি মানুষকে এটা দেওয়া হবে। ডোজের এই পরিমাণটা নিরাপদ ও কার্যকর বলেই প্রমাণিত হয়েছে।’ বেক্সিমকো ফার্মার পক্ষে চিফ অপারেটিং অফিসার রাব্বুর রেজা, ভারতের সিরাম ইনস্টিটিউটের পক্ষে অতিরিক্ত পরিচালক সন্দীপ মলয় এবং বাংলাদেশের পক্ষে স্বাস্থ্য পরিষেবা বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মহম্মদ মোস্তফা কামাল চুক্তিতে সই করেন। এ সময় সেখানে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক (Zahid Maleque) ও বাংলাদেশে নিযুক্ত ভারতীয় হাইকমিশনার বিক্রম কুমার দোরাইস্বামী উপস্থিতও ছিলেন। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (WHO) অক্সফোর্ড টিকার অনুমোদন দিলে বাংলাদেশে এই টিকা আসবে। এখানে প্রতি ডোজ টিকার দাম পড়বে ৫ ডলার বা ৪২৫ টাকা।

[আরও পড়ুন: করোনার কোপ, বাংলাদেশে আরও পিছিয়ে গেল জনসুমারির কাজ ]

ভ্যাকসিন সংক্রান্ত এই চুক্তি যখন সই হচ্ছে তখন গত ২৪ ঘণ্টায় বাংলাদেশে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও ১৭ জনের মৃত্যু হল। এই নিয়ে দেশে মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল ৬ হাজার ২১ জন। এছাড়া দেশে নতুন করে আরও ১ হাজার ৮৪২ জনের শরীরে করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। এর ফলে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৪ লক্ষ ১৬ হাজার ৬ জন। এছাড়া বৃহস্পতিবার দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৫ হাজার ২২৫ জনের নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। আর এই সময়ের মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৮৯১ জন। এর ফলে মোট সুস্থ হলেন ৩ লক্ষ ৩৩ হাজার ৫৮৮ জন।

[আরও পড়ুন: আওয়ামি লিগকে ক্ষমতা থেকে উৎখাতের অনেক ষড়যন্ত্র হয়েছে, অভিযোগ হাসিনার]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement