BREAKING NEWS

১০  আশ্বিন  ১৪২৯  শুক্রবার ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

‘শ্রীলঙ্কার মতো হবে না বাংলাদেশের দশা’, আশ্বাস পরিকল্পনা মন্ত্রী মান্নানের

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: August 11, 2022 11:41 am|    Updated: August 11, 2022 11:41 am

Bangladesh won't go Sri Lanka way, assures Hasina minister | Sangbad Pratidin

সুকুমার সরকার, ঢাকা: ঋণের বোঝা ও অর্থনৈতিক বিপর্যয়ের জেরে দেউলিয়া শ্রীলঙ্কা। পরিস্থিতি এতটাই খারাপ যে কাড়ি কাড়ি টাকা ফেললেও জ্বালানি, ওষুধের মতো সামগ্রী মিলছে না। সম্প্রতি, উদ্বেগ উসকে একলাফে জ্বালানির দাম অনেকটাই বৃদ্ধি করেছে বাংলাদেশ। প্রশ্ন উঠছে, তবে কি দ্বীপরাষ্ট্রের মতোই আর্থিক সংকটে পড়েছে ঢাকা? এহেন পরিস্থিতিতে অর্থনীতি নিয়ে দেশবাসীকে আশ্বস্ত করেছেন বাংলাদেশের পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নান।

বুধবার সুনামগঞ্জের শান্তিগঞ্জ উপজেলায় বঙ্গবন্ধুর গণমুখী সমবায় ভাবনার আলোকে ‘বঙ্গবন্ধুর মডেল গ্রাম প্রতিষ্ঠা’ শীর্ষক পাইলট প্রকল্পের আওতায় ঋণ বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মান্নান। সেখানে তিনি বলেন, “তিন মাস ধরে একটি কুচক্রী মহল বলে আসছে, বাংলাদেশের পরিস্থিতি শ্রীলঙ্কার মতো হয়ে যাবে। এসব কথা আমলে নিয়ে দুশ্চিন্তা করবেন না, বাংলাদেশ শ্রীলঙ্কা হবে না।” দেশবাসীকে আশ্বস্ত করে তিনি আরও বলেন, “আর মাত্র এক মাস। আমরা আগের অবস্থানেই ফিরে যাব। বিদ্যুতের আসা-যাওয়ায় মানুষের কষ্ট হচ্ছে। এই সংকট আমেরিকা-রাশিয়ার তৈরি। অথচ একটি মহল আমাদের দোষারোপ করে ফায়দা নেওয়ার অপচেষ্টায় আছে।”

[আরও পড়ুন: কূটনৈতিক জয় ভারতের, পাকিস্তানি রণতরীকে নোঙর ফেলতে দিল না বাংলাদেশ]

উল্লেখ্য, গত সপ্তাহ থেকে বাংলাদেশে (Bangladesh) জ্বালানির নতুন দাম কার্যকর হয়েছে। ফলে ডিজেল এবং কেরোসিনের দাম একধাক্কায় লিটার প্রতি ৩৪ টাকা করে বৃদ্ধি পেয়েছে। মূল্যবৃদ্ধির পর সেঞ্চুরি পার করেছে দুই জ্বালানির দামই। ডিজেল ও কেরোসিনের লিটার প্রতি দাম ৮০ টাকা থেকে বেড়ে ১১৪ টাকা দাঁড়িয়েছে। বেড়েছে পেট্রলের দামও। ৮৬ টাকা থেকে বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৩০ টাকা। সেঞ্চুরি পার করে অকটেনের দাম দাঁড়িয়েছে ১৩৫ টাকা। জনতার অভিযোগ, গত নভেম্বরে ডিজেলের দাম বাড়ানোর পর বাস ভাড়া বাড়ানো হয় প্রায় ২৭ শতাংশ, লঞ্চ ভাড়া বাড়ানো হয় ৩৫ শতাংশ যা তেলের দাম বাড়ানো হারের চেয়ে অনেক বেশি। এটাই রেকর্ড দামবৃদ্ধি।

জ্বালানির মূল্যবৃদ্ধির পর হাসিনা সরকারের তরফে বিবৃতি দিয়ে জানানো হয়েছিল, নতুন মূল্যবৃদ্ধির ভার বহন করা সকলের পক্ষে সম্ভব নয়। কিন্তু বিশ্বে জ্বালানি বাজারের সঙ্গে সামঞ্জস্য রাখার জন্য জ্বালানির দাম না বাড়িয়ে সরকারের কোনও উপায় ছিল না। দেশবাসীকে একটু ধৈর্য ধরার আবেদন জানানো হচ্ছে। বাংলাদেশের এই জ্বালানির মূল্যবৃদ্ধিকে অশনি সংকেত হিসেবে গণ্য করছেন আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিশেষজ্ঞরা। শ্রীলঙ্কার অর্থনৈতিক সংকটের শুরুতে অস্বাভাবিক হারে দাম বেড়েছিল জ্বালানি। এরপরই নিত্য প্রয়োজনীয় সামগ্রীর দাম লাগামছাড়াভাবে বেড়েছিল। বাংলাদেশেও কি সেই ইতিহাসের পুনরাবৃত্তি হতে চলেছে, উঠছে প্রশ্ন।

[আরও পড়ুন: ফুটবল খেলা নিয়ে বাংলাদেশে ফের অশান্তি, গভীর রাতে মন্দিরে ঢুকে প্রতিমা ভাঙচুর]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে