BREAKING NEWS

১৫  আষাঢ়  ১৪২৯  বৃহস্পতিবার ৩০ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

ঘর থেকে সন্তান-সহ দম্পতির ক্ষতবিক্ষত দেহ উদ্ধার, খুনের কারণ নিয়ে ধন্দে পুলিশ

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: October 8, 2019 4:20 pm|    Updated: October 8, 2019 4:21 pm

A couple and their child allegedly murdered in Mursidabad

ছবি: প্রতীকী

সাবিরুজ্জামান, লালবাগ: বাড়ির ভিতর থেকে এক শিক্ষক, তাঁর সন্তানসম্ভবা স্ত্রী ও ছেলের ক্ষত বিক্ষত দেহ উদ্ধারের ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়াল এলাকায়। মঙ্গলবার সকালে চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে মুর্শিদাবাদের জিয়াগঞ্জে। খবর পেয়েই ঘটনাস্থল থেকে দেহগুলি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠিয়েছে জিয়াগঞ্জ থানার পুলিশ। ঘটনাস্থল থেকে মিলেছে একটি ধারাল অস্ত্র। কী কারণে এই খুন, তা নিয়ে ধন্দে পুলিশ।

[আরও পড়ুন: উৎসবের শহরে ইচ্ছেমতো দাম হাঁকাচ্ছে ট্যাক্সি-অ্যাপ ক্যাব, নাকাল যাত্রীরা]

আদতে সাগরদিঘির বাসিন্দা হলেও প্রায় পাঁচ বছর ধরে জিয়াগঞ্জের লেবুতলায় বাস বন্ধুপ্রকাশ পালের। স্ত্রী বিউটি মণ্ডল পাল ও ছেলে বছর আটেকের বন্ধুঅঙ্গন পালকে নিয়ে ওই বাড়িতে থাকতেন ওই ব্যক্তি। জানা গিয়েছে, মঙ্গলবার সকালে বাজারে গিয়েছিলেন পেশায় শিক্ষক প্রকাশ বাবু। ১০ টা নাগাদ ফেরেন তিনি। এর ২০ মিনিটের ব্যবধানে তাঁদের বাড়ি থেকে আর্ত চিৎকার শোনা যায়। শব্দ পেয়েই ওই বাড়িতে ছুটে যায় প্রতিবেশীরা। অভিযোগ, তাঁরা ঘটনাস্থলে যেতেই এক যুবককে সেখান থেকে পালিয়ে যেতে দেখেন স্থানীয়রা। এরপরই তাঁরা ঘরে ঢুকে দেখেন বিছানার উপর পড়ে রয়েছে প্রকাশ বাবুর দেহ। ঘরের মেঝেতে মেলে তাঁর সন্তানের দেহ। পাশের ঘর থেকে উদ্ধার হয় তাঁর স্ত্রীর দেহ।

খবর পেয়ে জিয়াগঞ্জ থানার পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে দেহগুলি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠিয়েছে। ঘর থেকে মিলেছে একটি ধারাল অস্ত্র। কিন্তু কেন খুন করা হল এই তিনজনকে? যে যুবককে স্থানীয়রা ঘর থেকে বের হতে দেখেছেন, তিনিই বা কে? তবে কী খুনের ঘটনার সঙ্গে তিনি জড়িত? সেক্ষেত্রে খুনের পিছনে কি কারণ থাকতে পারে। ব্যক্তিগত শক্রতা নাকি অন্য কিছু, তা নিয়ে ধন্দে পুলিশ। ইতিমধ্যেই তদন্তের স্বার্থে এলাকার বাসিন্দাদের জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করেছে জিয়াগঞ্জ থানার পুলিশ। অভিযুক্তদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছেন স্থানীয়রা।

[আরও পড়ুন: একদিনের ‘রাজা-রানি’ দর্শন, দশমীর পর ঝালদার রাজবাড়িতে শুরু অন্য উৎসব]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে