১৯ আষাঢ়  ১৪২৭  সোমবার ৬ জুলাই ২০২০ 

Advertisement

ইছামতীর পাড় থেকে উদ্ধার যুবকের ক্ষতবিক্ষত দেহ, চাঞ্চল্য বনগাঁয়

Published by: Bishakha Pal |    Posted: March 4, 2020 10:45 am|    Updated: March 4, 2020 5:00 pm

An Images

ছবিটি প্রতীকী

জ্যোতি চক্রবর্তী, বনগাঁ: যুবকের ক্ষতবিক্ষত দেহ ঘিরে চাঞ্চল্য ছড়াল বনগাঁ থানা এলাকায়। বুধবার থানা থেকে ঢিল ছোঁড়া দূরত্বে উদ্ধার হয়েছে দেহ। ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে।

এদিন সকালে বনগাঁ মতিগঞ্জ হাট এলাকায় এক যুবকের ক্ষতবিক্ষত দেহ দেখতে পায় স্থানীয়রা। সঙ্গে সঙ্গে খবর দেওয়া হয় পুলিশে। ঘটনাস্থলে আসে বনগাঁ থানার পুলিশ। ইছামতীর নদীর ধার থেকে ওই যুবকের দেহ উদ্ধার করা হয়। তাঁর পরনে ছিল স্ট্রাইপড জামা ও প্যান্ট। যুবকের সারা শরীরে রয়েছে আঘাতের চিহ্ন। তবে মুখের অবস্থা ভয়াবহ। গোটা মুখ ছিল থেঁতলানো। যুবকের পরিচয় এখনও পাওয়া সম্ভব হয়নি। সন্ধান শুরু করেছে পুলিশ। তাদের প্রাথমিক অনুমান কোনও কারণে খুন করা হয়েছে যুবককে। দেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠিয়েছে পুলিশ। একটি খুনের মামলা রুজু করা হয়েছে। ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে।

[ আরও পড়ুন: দক্ষিণবঙ্গে আজও ঝোড়ো হাওয়ার সঙ্গে ভারী বৃষ্টি, চলবে সপ্তাহজুড়ে ]

তবে স্থানীয়দের অভিযোগ ইচ্ছামতী নদীর পাড়ের এই হাটে প্রায়দিনই কোনও না কোনও সমস্যা হয়। অনেকেই এই জায়গাটিকে নেশার আখড়া বানিয়ে নিয়েছে। প্রায়দিনই নেশাখোরদের ভিড় হয় এই হাটে। এছাড়া বাইরে থেকেও অনেকে নেশা করতে আসে এখানে৷ অ্যালকোহল তো বটেই, হেরোইন-সহ অন্যান্য মাদক নিয়েও অনেকে নেশা করে। এমনকী স্কুল পড়ুয়ারাও বাদ যায় না। তারাও স্কুল পালিয়ে বা টিউশন পালিয়ে হাটের মধ্যে এসে মদ খায়। প্রশাসনকে এই ব্যাপারে আগে অনেকবার জানানো হয়েছিল। কিন্তু কোনও লাভ হয়নি। তাই স্থানীয়রাও সচরাচর এখানে আসেন না। তাঁরাও রীতিমতো আতঙ্কে থাকেন। রাতে হাটের মধ্যে দিয়ে বাড়ি ফিরতেও ভয় পান আশপাশের বাসিন্দারা।

[ আরও পড়ুন: বাহারি চুলের ছাঁট! ছাত্রদের উচ্চ মাধ্যমিকের অ‌্যাডমিট দিল না স্কুল ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement