BREAKING NEWS

১৯ আষাঢ়  ১৪২৭  রবিবার ৫ জুলাই ২০২০ 

Advertisement

কোয়ারেন্টাইনের গেরো, সিকিম থেকে ফিরে পরিত্যক্ত শৌচাগারে ঠাঁই বালুরঘাটের যুবকের

Published by: Bishakha Pal |    Posted: June 6, 2020 7:53 pm|    Updated: June 6, 2020 7:53 pm

An Images

রাজা দাস, বালুরঘাট: হোম কোয়ারেন্টাইন পালন না করে বিভিন্ন এলাকায় অবাধে ঘুরছেন বহু পরিযায়ী শ্রমিক। প্রায়ই এমন অভিযোগ উঠছে রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে। কিন্তু এবার ঠিক তার উলটো চিত্রই ধরা পড়ল বালুরঘাটের চকভৃগুর গোবিন্দপুর এলাকায়। পরিবারের সদস্যদের পাশাপাশি অন্যদের সুরক্ষার কথা মাথায় রেখে বাথরুমে আশ্রয় নিয়েছেন এক পরিযায়ী শ্রমিক। নিজেকে পৃথকভাবে রাখা সুরজিৎ মণ্ডল নামে ওই শ্রমিককে নিয়ে গর্বিত এলাকার বাসিন্দারা।

জানা গিয়েছে, সম্প্রতি সিকিম থেকে সুরজিৎ মণ্ডল চকভৃগুর গোবিন্দপুরে নিজের গ্রামে ফিরে এসেছেন। আর ফেরার পরই বাড়ির বাইরে একটি ফাঁকা জায়গায় থাকা ছোট্ট বাথরুমে নিজেকে কোয়ারেন্টাইনে রেখেছেন তিনি। বাড়িতে অন্য সদস্য ছাড়াও রয়েছে তাঁর ছোট্ট সন্তানরা। ঘরে আলাদা থাকার জায়গার অভাবেই এই পরিকল্পনা। তবে সুরজিৎ মণ্ডলের পাশে দাঁড়িয়েছেন গ্রামবাসীরা। পরিবারের লোকজন ও গ্রামের বাসিন্দারা মিলে সুরজিৎকে ত্রিপল ও খাবার দিয়ে সবরকম সাহায্য করছেন।

[ আরও পড়ুন: ‘জামাই আদরে রাখা অসম্ভব’, কোয়ারেন্টাইন সেন্টারে বিক্ষোভ নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য শতাব্দীর ]

আক্রান্তর পরিসংখ্যানের নিরিখে সিকিম রাজ্য হটস্পট বা রেড জোন ঘোষিত হয়নি। তবুও ওই শ্রমিকের সচেতনতাকে প্রশংসা করেছেন সকলে। পরিযায়ী শ্রমিক সুরজিৎ মণ্ডল বললেন, “বাড়িতে ঘর কম। সেখানে আলাদা থাকা প্রায় অসম্ভব। ভেবেচিন্তে বাথরুমেই ১৪ দিনের হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার পরিকল্পনা নিয়েছি। এই বাথরুম সেভাবে ব্যবহার হয় না। তবে বাথরুমের ছোট্ট জায়গায় বর্ষা-বাদলের দিনে যথেষ্ট সমস্যা রয়েছে। কিন্ত সকলের কথা মাথায় রেখেই বাথরুমে আশ্রয় নিয়েছি।”

ছবি- রতন দে

[ আরও পড়ুন: প্রেম করায় বকাবকি করতেন বাবা, গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মঘাতী মাধ্যমিক পরীক্ষার্থী ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement