BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

মাধ্যমিকের লিখিত পরীক্ষায় পড়ুয়ার প্রাপ্তি ১৪! মেধাবী ছাত্রের ফলে হতবাক পরিবার

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: July 29, 2020 2:07 pm|    Updated: July 29, 2020 2:13 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মাধ্যমিক (Madhyamik) পরীক্ষায় মোট নম্বরের মধ্যে মিলেছে মাত্র ৮৪!  তার মধ্যে ৭০ নম্বরই পেয়েছে স্কুলের ‘ইন্টারন্যাল ফরমেটিভ ইভলিউশন’-এ। বাকি ১৪ নম্বর মিলেছে লিখিত পরীক্ষায়। এও সম্ভব? মার্কশিট দেখে হতবাক জয়নগরের বাসিন্দা এক মেধাবী পড়ুয়া ও তাঁর পরিবারের সদস্যেরা। বিষয়টি প্রকাশ্যে আসার পরই রিভিউ করতে বলেছেন পর্ষদ সভাপতি কল্যাণময় গঙ্গোপাধ্যায় (Kalyanmoy Ganguly)।

দক্ষিণ ২৪ পরগনার জয়নগরের (Jaynagar) বাসিন্দা ওই পড়ুয়ার নাম শিবম হালদার। জয়নগর জেএম ট্রেনিং স্কুলের ছাত্র সে। জানা গিয়েছে, টেস্ট পরীক্ষায় ৭০ শতাংশ নম্বর পেয়েছিল ওই পরীক্ষার্থী। কিন্তু মাধ্যমিকের রেজাল্ট বের হতেই অবাক পড়ুয়া। কারণ, ৭০০ এর মধ্যে তার প্রাপ্ত নম্বর মাত্র ৮৪। এর মধ্যে ৭০ নম্বরই পেয়েছে স্কুলের ‘ইন্টারন্যাল ফরমেটিভ ইভলিউশন’-এ। বাকি ৬৩০ নম্বরের লিখিত পরীক্ষায় পেয়েছে মাত্র ১৪। অঙ্ক, ইংরেজি-সহ পাঁচটি বিষয়ে ৯০-এ সে পেয়েছে ১! আর বাংলায় ৯। জীবনবিজ্ঞানে তার প্রাপ্তির ভাঁড়ার শূন্য। কিন্তু যে ছেলে টেস্টে এত ভাল ফল করেছিল, মাধ্যমিকে তার রেজাল্ট কীভাবে এত খারাপ হতে পারে?

[আরও পড়ুন: কয়েক কোটি টাকা ‘আত্মসাৎ’, অর্জুন সিংয়ের বিরুদ্ধে ফের ভাটপাড়া থানায় FIR]

ওই পড়ুয়ার এক আত্মীয়ের কথায়, “প্রথমে ওর নম্বরে আমরা চমকে যাই। ভেবেছিলাম হয়তো ভুল দেখাচ্ছে। কিন্তু মার্কশিট হাতে পেয়ে দেখি একই অবস্থা। আমরা ফলাফল পুনর্মূল্যায়নের জন্য আবেদন করব। তথ্য জানার অধিকার আইনে জানতে চাইব।’’ এই ঘটনায় অবাক ওই ছাত্রের স্কুলের শিক্ষকরাও। ইতিমধ্যেই বিষয়টি জানানো হয়েছে মধ্যশিক্ষা পর্ষদের (West Bengal Board Of Secondary Education) সভাপতি কল্যাণময় গঙ্গোপাধ্যায়কে। রিভিউ করা হলে বিষয়টি স্পষ্ট হবে বলে জানিয়েছেন তিনি। তবে কি এক বছর নষ্ট হবে শিবমের? সেই আশঙ্কায় ছাত্রের পরিবার।

[আরও পড়ুন: বানভাসি উত্তরবঙ্গে আগামী ৪৮ ঘণ্টায় আরও ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস, ভিজবে দক্ষিণের জেলাগুলিও]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement