১০ ফাল্গুন  ১৪২৬  রবিবার ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

১০ ফাল্গুন  ১৪২৬  রবিবার ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বৃহন্নলাদের অত্যাচারে মৃত্যু হল এক শিশুর। শুক্রবার সকালে মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছে ঝাড়গ্রামের শিলদায়। পরিবার সূত্রের খবর, জন্মের পর থেকেই শ্বাসকষ্টে ভুগছিল শিশুটি। বৃহস্পতিবারই হাসপাতাল থেকে বাড়ি আনা হয়েছিল তাকে। এদিন সকালে বৃহন্নলারা বাড়িতে এসে শিশুটিকে নিজস্ব কায়দায় নাচায়। তারা চলে গেলে ফের শ্বাসকষ্ট শুরু হয় শিশুটির। পরে বাড়িতেই মৃত্যু হয় তার। এই ঘটনায় তিন বৃহন্নলাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। অভিযুক্তদে কড়া শাস্তি চাইছে সিশুটির পরিবার। 

ঝাড়গ্রামের শিলদা গ্রাম সূত্রে খবর, খিলার পরিবারের সদ্যোজাতর বয়স মাত্র ১ মাস ২১ দিন। জন্মের পর থেকেই শ্বাসকষ্টে ভুগছিল সে। বারবার হাসপাতালে নিয়ে যেতে হত তাকে। সম্প্রতি তাকে হাসপাতালে ভর্তিও করা হয়েছিল। বৃহস্পতিবারই বাড়ি ফিরেছিল সে। তাকে যত্নে রাখতেও বলেছিল চিকিৎসক। শুক্রবার সকালে খিলার পরিবারের শিলদার বাড়িতে হাজির হয় কয়েকজন বৃহন্নলা। তাঁরা ১২ হাজার টাকা চায়। পরিবারের সদস্যরা, তাঁদের ফিরে যেতে বলে। কিন্তু কথা শোনেনি বৃহন্নলারা। সদ্যোজাতকে না নাচিয়ে ফিরবে না বলে জানিয়ে দেয় ওই বৃহন্নলা।পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে বচসা শুরু হয়। গ্রামবাসীদেের অভিযোগ, চূড়ান্ত অসভ্যতামি শুরু করে ওই বৃহন্নলারা। শেষপর্যন্ত তাদের হাতে শিশুটিকে তুলে দিতে বাধ্য হয় পরিবারের সদস্যরা। এরপর নিজস্ব কায়দায় প্রায় ১৫ মিনিট সদ্যোজাতটিকে নাচায় তারা। এরপর পরিবারের হাতে তাকে তুলে দিয়ে ফিরে যায়।

[আরও পড়ুন : ‘তৃণমূল যে ভাষা বোঝে, তাতেই পুরভোটে জবাব দেওয়া হবে’, হুঁশিয়ারি সায়ন্তনের]

এর কিছুক্ষণ পরেই ফের শ্বাসকষ্ট শুরু হয় তার। চিকিৎসকের কাছে নিয়ে যাওয়ার আগেই নিস্তেজ হয়ে যায় শিশুটি। এরপরেই ক্ষোভে পেটে পড়ে গ্রামবাসীরা। পুলিশের কাছে অভিযোগ জানায় তারা। তিন বৃহন্নলাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। শিশুটির জেঠিমা রুপা খিলারের অভিযোগ, “আজ বৃহন্নলাদের জন্য আমরা পরিবারের এক সদস্যকে হারালাম। ওদের বারবার বারণ করেছিলাম। তাও কথা শুনলেন না।এবার অভিযুক্তদের কড়া শাস্তির দাবি জানাচ্ছি।”  

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং